ব্যবসা

ব্যাংকিং এবং অর্থনৈতিক পরিষেবা ক্ষেত্রে মঙ্গলবার উচ্চতার নয়া রেকর্ড গড়ল ভারতের ঘরোয়া শেয়ার সূচক। ইতিহাসে এই প্রথমবার ৪৪,০০০ পয়েন্টের লক্ষ্মণরেখা পার করে গিয়েছিল সেনসেক্স। সেই সঙ্গে নিফটি ৫০ সূচকও সর্বকালের সেরা ১২,৯৩৪.০৫ পয়েন্টের স্তরে পৌঁছে যায়। মূলত Pfizer-এর পরে Moderna ও কোভিডের ভ্যাকসিন আবিষ্কারের কথা ঘোষণা করেছে। তার জেরেই শেয়ার বাজারের সূচক ঊর্ধগামী হয়েছে এমনটাই মনে করা হচ্ছে। লগ্নিকারীরা নতুন ভ্যাকসিনের খবরে যথেষ্ট খুশি, তারই প্রতিফলন ঘটেছে শেয়ার বাজারে। এদিন নিফটি ব্যাংক, অটো, অর্থনৈতিক পরিষেবা, PSU ব্যাংক এবং বেসরকারি ব্যাংকের সূচক ১ থেকে ২ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। অন্যদিকে, মিডিয়া, IT এবং FMC-র শেয়ার বিক্রির সামান্য চাপ লক্ষ্য করা গিয়েছে। নিফটিতে এদিন টাটা মোটর্সের শেয়ারের দাম সবথেকে বেশি বৃদ্ধি পেয়েছে।

Swarnali Goswami 17.11.2020

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোটগণনা চলাকালীন সোমবার নিয়ে টানা ছ’টি কাজের দিন ভারতের শেয়ার বাজারে ঊর্ধ্বমুখী সূচক। সোমবার শেয়ার কেনাবেচার সময়, এক সময় সর্বকালীন রেকর্ডের স্তরে চলে গিয়েছিল সেনসেক্স এবং নিফটি। সেনসেক্স পৌঁছে যায় ৪২,৬৪৫.৩৩ পয়েন্টের ঘরে। আর ১২,৪৭৪ পয়েন্টের শিখর স্পর্শ করে নিফটি। মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেনের জয়ের ফলে ডলারের দাম পড়ে গিয়েছে। তার সঙ্গে বাইডেন জমানা ভারতীয় তথ্যপ্রযুক্তি কোম্পানিগুলির জন্য সুখবর বয়ে আনতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। আর সেই কারণে আইটির শেয়ারের প্রতি সাধারণ মানুষের আগ্রহ বাড়ছে লগ্নিকারীদের। বাজার বন্ধ হওয়ার সময় ৭০৪ পয়েন্ট বা ১.৬৮ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়ে সেনসেক্স দাঁড়ায় ৪২,৫৯৭ পয়েন্ট। অন্যদিকে, নিফটি৫০ সূচক ১৯৭ পয়েন্ট বৃদ্ধি পেয়ে থামে ১২,৪৬১। নিফটি ৫০-এর মধ্যে ৪৩টি সংস্থার শেয়ারদরই ছিল এদিন গ্রিন জোনে। এর মধ্যে ওষুধ সংস্থা Divi’s Labs-এর শেয়ারের দর বেড়েছে সবথেকে বেশি, ৫.৫ শতাংশ।

Swarnali Goswami 09.11.2020

শুক্রবার নয়া ত্রৈমাসিক ঋণনীতি ঘোষণা করল ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাংক। রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গর্ভনর শক্তিকান্ত দাস সুদের হার-সহ একাধিক বড় ঘোষণা করেছেন ৷ রেপো রেট ৪ শতাংশই থাকছে, সুদের হারে কোনও বদল হচ্ছে না। রিভার্স রেপো রেট থাকছে ৩.৩৫ শতাংশ। আরবিআই-এর গর্ভনর শক্তিকান্ত দাসের বক্তব্য অনুযায়ী গ্রামীণ এলাকায় অর্থব্যবস্থার উন্নতি হয়েছে৷ চলতি আর্থিক বছরে রেকর্ড শস্য উৎপাদন হয়েছে৷ পরিযায়ী শ্রমিকরা ফের শহরে কাজে ফিরছে ৷ অফিস-কাছারি শুরু হয়েছে ফলে অনলাইন কর্মাস ফের চাঙ্গা হয়েছে ৷ আর্থিক অবস্থা আরও চাঙ্গা হবে বলে অনুমান করা হচ্ছে ৷ সমস্ত সেক্টরের অবস্থার উন্নতি হচ্ছে ৷ রিজার্ভ ব্যাঙ্কের তরফে বলা হয়েছে আর্থিক বছর ২০২১-এর জিডিপিতে ৯.৫ শতাংশের মন্দা দেখা দিতে পারে৷ আরও বলে হয়েছে RTGS ডিসেম্বর ২০২০ থেকে যে কোনও সময় করা যাবে৷ সেপ্টেম্বর মাসে পিএমআই বেড়ে ৫৬.৯ শতাংশ হয়ে গিয়েছে, যা জানুয়ারি ২০১২-র পর সবচেয়ে বেশি৷ সরকারের তরফে এমএসএমই-কে দেওয়া ঋণে ২ শতাংশ হিসেবে যে সুদ দেওয়া হয়, তা ৩১ মার্চ ২০২১ পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে ৷ আশা করা হচ্ছে রবি ফসল ভাল হবে৷ মোটের ওপর দেশের আর্থিক পরিস্থিতির পুনরায় উন্নতি ঘটিয়ে দেশকে আগের জায়গায় নিয়ে আসার ওপর জোর দেওয়া হচ্ছে। ঋণনীতি কমিটির তিন বিদায়ী সদস্য চেতন ঘাটে, পামি দুয়া এবং রবীন্দ্র ঢোলাকিয়ার জায়গায় নতুন মুখ যথাক্রমে ইন্দিরা গান্ধী ইনস্টিটিউট অফ ডেভেলপমেন্ট রিসার্চের প্রফেসর অসীমা গোয়েল, ন্যাশনাল কাউন্সিল অফ অ্যাপ্লায়েড ইকনমিক রিসার্চের উপদেষ্টা শশাঙ্ক ভিড়ে এবং আমেদাবাদ আইআইএমের প্রফেসর জয়ন্ত আর ভার্মা এই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

Swarnali Goswami 09.10.2020

ফের স্বেচ্ছাবসর প্রকল্প (VRS) আনতে চলেছে দেশের বৃহত্তম ব্যাংক স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া। ইতিমধ্যে একটি খসড়া তৈরি করা হয়েছে, যা ব্যাংক কর্তাদের কাছে খুব শীঘ্রই পাঠিয়ে দেওয়া হবে। জানা গিয়েছে, এর জন্য সেই সমস্ত কর্মীরাই আবেদন করতে পারবেন, যাঁরা তাদের কেরিয়ার ও পারফরম্যান্সের শীর্ষে পৌঁছে গিয়েছেন কিংবা যাদের চাকরিতে নানা অসুবিধা হচ্ছে বা যাঁরা অন্য কোনও জীবিকায় যেতে চান। এছাড়াও এই ভিআরএস প্রকল্পের জন্য ঘোষণা করা কাট অফ ডেট পর্যন্ত ২৫ বছরের সার্ভিস পুরো হতে হবে বা ৫৫ বছরের বেশি বয়স হতে হবে। সংবাদসংস্থা পিটিআই সূত্রে খবর, স্টেট ব্যাংকের এই স্বেচ্ছাবসর স্কিমের নাম রাখা হয়েছে ‘Second Innings Tap VRS-2020’। তবে এখনও পর্যন্ত এই বিষয়ে কোনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি বলে ব্যাংক সূত্রে খবর।

Swarnali Goswami 07.09.2020

আবার দুঃসংবাদ। সূত্রের খবর, আর্থিক ক্ষতি কমাতে প্রায় ২৫ হাজার কর্মী ছাঁটাই করতে পারে বিশ্বের প্রথম সারির তথ্য প্রযুক্তি সংস্থা Accenture! এ রাজ্যের অনেকেই চাকরি করেন Accenture-এ। পুজোর আগে এমন খবরে তাঁদের কপালেও চিন্তার ভাঁজ। সংস্থার তরফে দাবি করা হয়েছে, আর্থিক মন্দার জেরে সংস্থা বাজার ক্রমশ নিম্নমুখী হচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়তে হচ্ছে সংস্থাকে। এ প্রসঙ্গে বলে রাখা যাক, Accenture-এর মোট কর্মী সংস্থা প্রায় ৫ লক্ষ, যার মধ্যে ২ লক্ষ কর্মীই ভারতীয়। এর পাশাপাশি করোনা পরিস্থিতিতে এ বছর নতুন কোনও নিয়োগ করা হবে না বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। অপর এক সংস্থা মার্কস অ্যান্ড স্পেনসারও জানিয়ে দিয়েছে আগামী তিন মাসে তারা ৭০০০ কর্মী ছাঁটাই করবে। স্টোর এবং ম্যানেজমেন্ট উভয় ক্ষেত্রেই কর্মী ছাঁটাই হবে বলে জানানো হয়েছে। কর্মী ছাঁটাইয়ের পাশাপাশি অনেকের অবসরও এগিয়ে আনা হবে বা স্বেচ্ছা অবসর নিতে বলা হবে বলে বিবৃতিতে তারা জানিয়েছে।

Swarnali Goswami 26.08.2020

বুধবার সংস্থার ৪৩তম এজিএমে তথা প্রথম ভার্চুয়াল সম্মেলনে যে বড় কিছু ঘোষণা করবেন চেয়ারম্যান মুকেশ আম্বানি তা একপ্রকার নিশ্চিত ছিল ৷ সভায় দেখা গেল একের পর এক বড় ঘোষণা করলেন মুকেশ আম্বানি৷ এদিন AGM থেকে গুগলের সঙ্গে চুক্তির বড় ঘোষণার কথা জানালেন রিলায়েন্স চেয়ারম্যান মুকেশ আম্বানি। তিনি জানান, Jio প্ল্যাটফর্মের ৭.৭% শেয়ার কিনতে চলেছে গুগল। জিও প্ল্যাটফর্মে ৩৩,৭৩৭ কোটি টাকা বিনিয়োগ করছে গুগল ৷ ৪.৩৬ লক্ষ কোটি টাকা দরে জিও প্ল্যাটফর্মের ইক্যুয়িটি শেয়ার কিনছে গুগল ৷ এতে করে Jio-তে বিনিয়োগের মোট অঙ্ক বেড়ে দাঁড়াল ১৫২,০০০ কোটিতে।

Swarnali Goswami 15.07.2020

রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ-এর ৪৩তম বার্ষিক সাধারণ সভায় ৫০০ জায়গার ১ লক্ষ বিনিয়োগকারী বৈঠকে ছিলেন৷ বুধবার রিলায়েন্সের প্রথম ভার্চুয়াল AGM একাধিক গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখলেন চেয়ারম্যান মুকেশ আম্বানি৷ তিনি জানান, জিও মিট RIL এর সাফল্য। এই মুহূর্তে জিও মিটের ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৫০ লক্ষ। RIL দেশের সবচেয়ে বড় রফতানি সংস্থা ৷ RIL এই মুহূর্তে ঋণমুক্ত কোম্পানি ৷ দেশের ইতিহাসে রাইটস ইস্যু এনেছে রিলায়েন্স ইন্ডিয়া লিমিটেড। এর পাশাপাশি এদিন রিলায়েন্সের কর্ণধার মুকেশ আম্বানি জানান, JIO-র 5G প্রযুক্তি তৈরি ৷ স্পেকট্রাম পেলেই আগামী বছরেই বাজারে সম্পূর্ণ দেশীয় প্রযুক্তিতে গঠিত 5G প্রযুক্তি নিয়ে আসতে তৈরি জিও ৷ গুগলের সঙ্গে মিলে ৪জি-৫জি স্মার্টফোন তৈরি করবে জিও যা অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমের উপর নির্ধারিত হবে৷ দেশ থেকে 2G নেটওয়ার্ক সরিয়ে দেশকে নতুন প্রযুক্তিতে উন্নীত করতে চায় জিও বলে জানান আম্বানি। এছাড়াও অনলাইন পড়োশানার জন্য জিও নিয়ে আসতে চলেছে নয়া প্ল্যাটফর্ম EMBIBE ৷ এই প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে বাড়িতে বসেই বিশ্বমানের শিক্ষা মিলবে৷ নতুন Jio TV+ এ এবার নেটফ্লিক্স, অ্যামাজন, প্রাইম ভিডিও, হটস্টার-সহ সমস্ত OTT চ্যানেল থাকবে ৷ এর লগ ইনের জন্য আলাদা আলাদা আইডি-পাসওয়ার্ডের দরকার নেই ৷ এজিএমে জিও গ্লাস লঞ্চ করল ৷ এখানে গ্লাসের ওজন মাত্র ৭৫ গ্রাম ৷ এটি একটি কেবলের সঙ্গে যুক্ত থাকবে ৷ এদিনের বার্ষিক সাধারণ সভায় মুকেশ আম্বানি জানান, RIL দেশের মধ্যে সবচেয়ে বেশি জিএসটি ও ভ্যাট দিয়ে থাকে যার মূল্য প্রায় ৬৯৩৭২ কোটি ৷ শুধ তাই নয়, গত বার RIL এল প্রায় ৮ হাজার কোটির বেশি আয়কর দিয়েছে ৷

Swarnali Goswami 15.07.2020

একের পর এক লগ্নিকারীদের টেনে নিজেদের রেকর্ড নিজেরাই ভাঙছে রিলায়েন্স জিও। তিন মাসেরও কম সময় জিও-তে এল ১২তম লগ্নি। এবারে ইন্টেল ঘোষণা করল জিও প্ল্যাটফর্মে বিনিয়োগের খবর। জিও প্ল্যাটফর্মের ০.৩৯ শতাংশ শেয়ার কিনতে চলেছে তারা ৷ মোট ১,৮৯৪.৫০ কোটি টাকা বিনিয়োগের ঘোষণা করল ইন্টেল৷ বাজার বিশেষজ্ঞরা একে বলছেন, ‘জিও অপারচুনিটি’। জিও-তে সাম্প্রতিক সময়ে যে বিশ্বখ্যাত সংস্থাগুলি বিনিয়োগ করেছে, তার মধ্যে রয়েছে ফেসবুক, সিলভার লেক পার্টনার্স, ভিস্তা ইক্যুইটি পার্টনার্স, জেনারেল অ্যাটলান্টিক, কেকেআর, সিলভার লেক, আবু ধাবি ইনভেস্টমেন্ট অথরিটি, এল ক্যাটারটন, পিআইএফ এবং ইন্টেল।

Swarnali Goswami 03.07.2020

বৃহস্পতিবার হাই ডেফিনেশন (HD) ভিডিও কনফারেন্সিং অ্যাপ লঞ্চ করল রিলায়েন্স Jio৷ ব্যক্তিগত ও পেশাগত ব্যবহারের জন্য ভিডিও কনফারেন্সিং অ্যাপ জিও মীট(JioMeet) রিলায়েন্স জিও-র আরও একটি যুগান্তকারী পদক্ষেপ৷ এই অ্যাপ-এ ১০০ জন একসঙ্গে ভিডিও কনফারেন্স করতে পারেন৷ এই হাই কোয়ালিটির এই অ্যাপটি Play Store ও App Store-এ ইতিমধ্যেই রয়েছে৷ গত ৩০ এপ্রিল দেশজুড়ে ভিডিও কলিং সার্ভিস লঞ্চের কথা ঘোষণা করে রিলায়েন্স৷ মার্চের শেষের দিকেই প্লে স্টোরে এই অ্যাপটি ১ লক্ষের বেশি ডাউনলোড করা হয়ে গিয়েছিল৷ মিটিং সিডিউল বা স্ক্রিন শেয়ারও করা যাবে৷ করোনা পরিস্থিতিতে বেশির কর্মীই বাড়ি থেকে কাজ করছেন৷ যাবতীয় অফিসিয়াল মিটিং সারতে হচ্ছে ভার্চুয়াল উপায়েই৷ এ হেন পরিস্থিতিতে Jio-র এই অ্যাপ নিঃসন্দেহে অত্যন্ত কার্যকরী ভূমিকা নেবে। গুগল ক্রোম ও মোজিলা ফায়ারফক্স থেকেও ব্যবহার করা যাবে JioMeet অ্যাপটি৷ অ্যান্ড্রয়েড ও iOS– সব ক্ষেত্রেই অ্যাপটি ফ্রি৷ কোনও টাকা লাগবে না৷

Swarnali Goswami 02.07.2020

জিম্বাবোয়ে সরকার দেশের মুদ্রার পতন রুখতে মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে সমস্ত ধরনের আর্থিক লেনদেন স্থগিত করে দিল। এ ছাড়া স্থানীয় স্টক এক্সচেঞ্জে বেচাকেনাও বন্ধ রাখতে বলা হয়েছে। দক্ষিণ আফ্রিকার এই দেশটিতে মুদ্রাস্ফীতি বেড়ে ৭৮৬ শতাংশে এসে ঠেকেছে। ভেঙে পড়েছে মুদ্রা ব্যবস্থা। চলতি বছরে সে দেশের অর্থনীতি ১০ শতাংশ পর্যন্ত সংকুচিত হতে পারে বলে ভবিষ্যৎবাণী করেছে বিশ্বব্যাংক। ২ দিন আগেই অর্থনীতিকে চাঙ্গা করতে কড়া পদক্ষেপ করা হবে বলে ঘোষণা করেছিলেন প্রেসিডেন্ট এমারসন নানদাগুয়া। তাঁর অভিযোগ, চলতি অর্থনৈতিক সংকট মোকাবিলায় সরকার যে পদক্ষেপ করছে তা অগ্রাহ্য করে এখনও ‘অসাধু কাজকর্ম’ চলছে। কথা মতোই মোবাইল ফোন প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে আর্থিক লেনদেন এবং শেয়ারবাজার বন্ধ রাখার কথা ঘোষণা করল সরকার।

কলকাতায় সোনার দাম বাড়তে বাড়তে ৫০ হাজারের দোরগোড়ায় পৌঁছে গিয়েছে। বুধবার সন্ধ্যায় শহরের বাজারে ১০ গ্রাম খাঁটি সোনার দাম দাঁড়িয়েছে ৪৯ হাজার ২৭০ টাকা। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশ বেড়ে চলায় নিরাপদ লগ্নি হিসেবে সোনার চাহিদা ঊর্ধ্বমুখী। এই পরিস্থিতিতে লগ্নিকারীরা আরও বেশি করে সোনা কেনার উপরে ঝুঁকছেন। বুধবার মাল্টি-কমোডিটি এক্সচেঞ্জে (MCX) সোনার সূচক ০.০৪ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। এশিয়ার বাজারেও এদিন সোনার দাম বেড়েছে। ভারতের ঘরোয়া বাজারে প্রয়োজনীয় সোনার অধিকাংশ বিদেশ থেকে আমদানি করতে হয়। যার ফলে গত কয়েক মাস থেকে গয়নার চাহিদা একেবারে তলানিতে এসে ঠেকলেও এই দুই জোড়া প্রভাবে ভারতের বাজারে সোনার দাম বেড়েই চলেছে। এ দিন রুপোর দামও বেড়ছে। প্রতি কিলো রুপোর দাম বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪৮ হাজার ৫০৫ টাকা। WBBMJA-র তথ্য অনুসারে, বুধবার সন্ধ্যায় সর্বশেষ পাওয়া তথ্য অনুসারে কলকাতায় প্রতি ১০ গ্রাম খাঁটি সোনার (২৪ ক্যারেট) বাজার মূল্য বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪৯ হাজার ২৭০ টাকা। একইভাবে প্রতি ১০ গ্রাম গিনি সোনার (২২ ক্যারেট) দাম বেড়ে হয়েছে ৪৬ হাজার ৭৪০ টাকা। আর এদিন হলমার্ক গয়নার সোনার (২২ ক্যারেট) প্রতি ১০ গ্রামের দাম ৪৭ হাজার ৪৪০ টাকা। কলকাতার বাজারে রুপোর দর বেড়েছে। এদিন ১ কিলোগ্রাম ওজনের রুপোর বারের দাম বেড়ে ৪৯ হাজার ১৮০ টাকা হয়েছে।

Swarnali Goswami 24.06.2020

পতঞ্জলিকে নিয়ে কড়া অবস্থান নিল কেন্দ্র। বাবা রামদেবের সংস্থা ‘পতঞ্জলি’ ঘোষণা করে মঙ্গলবারই তাঁরা বাজারে আনতে চলেছে করোনার আয়ুর্বেদিক ওষুধ। সারা পৃথিবীর বিজ্ঞানীরা পাঁচ মাস ধরে চেষ্টা চালাচ্ছেন করোনার প্রতিষেধক তৈরির। কিন্তু এখনও পর্যন্ত ১০০% নিশ্চিয়তা নিয়ে কোনও ওষুধ বা প্রতিষেধক বাজারে আসেনি। এ হেন পরিস্থিতিতে রামদেবের এই ঘোষণায় রীতিমতো চাঞ্চল্য পড়ে গেছে চারদিকে। কাজেই কেন্দ্রের আয়ুষ মন্ত্রকের তরফে বিবৃতি জারি করে বলা হয়েছে, পতঞ্জলির কাছে ওষুধ ও তার কম্পোজিশন নিয়ে সমস্ত তথ্য চেয়ে পাঠানো হয়েছে। জানানো হয়েছে, সরকারি পরীক্ষা ছাড়া এভাবে ওষুধের বিজ্ঞাপন ড্রাগস ও ম্যাজিক রেমেডিস অ্যাক্ট, ১৯৫৪-এর আওতায় পড়বে। বিবৃতিতে আয়ুষ মন্ত্রক জানিয়েছে, ‘সংবাদমাধ্যম থেকে মন্ত্রক জানতে পেরেছে কোভিডের জন্য পতঞ্জলির ওষুধের কথা। তাঁদের কাছে সমস্ত তথ্য চাওয়া হয়েছে। সরকারের পরীক্ষার আগে এ বিষয়ে সমস্ত বিজ্ঞাপন বন্ধ রাখতে হবে।’
দিন কয়েক আগে বাবা রামদেব জানিয়েছিলেন, অশ্বগন্ধা, গিলোই ও তুলসি সমৃদ্ধ করোনিল খেলে করোনায় আক্রান্ত রোগী ১০০ শতাংশ সুস্থ হয়ে উঠবেন। রামদেব মঙ্গলবার সেই ওষুধ সামনে এনে বলেন, ‘করোনিল ও শ্বাসারি’ নামে ওই ওষুধটি দেশের ২৮০ জন করোনা রোগীর মধ্যে প্রয়োগ করে দেখা হয়েছে। তাঁদের ওষুধের গুণাগুণ নিয়ে বলতে গিয়ে সংস্থার ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও সিইও বালাকৃষ্ণ জানিয়েছিলেন, তাঁদের ওষুধে ৫-১৪ দিনের মধ্যে সুস্থ হয়ে উঠেছেন করোনা রোগীরা। মাত্র ৫৪৫ টাকা দামের ওই ওষুধ আর এক সপ্তাহের মধ্যেই সারা দেশে পাওয়া যাবে বলে জানানো হয়েছিল পতঞ্জলির তরফে।

Swarnali Goswami 23.06.2020

গ্লেনমার্ক ফার্মাসিউটিক্যাল লিমিটেড (Glenmark Pharmaceuticals Ltd) ড্রাগস কনট্রোলার জেনারেল অফ ইন্ডিয়ার অনুমতি পেল আগামীদিনে অ্যান্টি ভাইরাল ওষুধ ফ্যাভিপিরেভার (favipiravir) বিক্রি করার। এটি ব্যবহার করা যাবে করোনা রোগীদের চিকিত্‍সায়। তবে যাঁদের অবস্থা গুরুতর, তাঁদের ক্ষেত্রে এই ওষুধ ব্যবহার করা যাবে না। শুধুমাত্র যাঁদের শরীরে সামান্য করোনা লক্ষণ রয়েছে তাঁদেরই এই ওষুধ দেওয়া যাবে বলে জানা গিয়েছে। জাপানের বিখ্যাত ওষুধ প্রস্তুতকারক সংস্থা Fujifilm Holdings Corp Avigan ব্র্যন্ড নামে এই ওষুধ তৈরি করে। তারা জানিয়েছেন করোনা চিকিত্‍সায় favipiravir ঠিক কতটা উপকারী হতে পারে তা জানতে জুলাইয়ের শেষ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে। স্টক এক্সচেঞ্জকে দেওয়া বিবৃতিতে Glenmark জানিয়েছে, ‘ভারতে favipiravir ওষুধ FabiFlu নামে বাজারে ছাড়ার পরিকল্পনা রয়েছে আমাদের। ইভ্যালুয়েশন অফ ডেটার ভিত্তিতে এই ওষুধ ছাড়পত্র পেয়েছে।’ সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে অবাধে এই ওষুধের ব্যবহার করা যাবে না। একই সঙ্গে জানানো হয়েছে কোনও রোগীর উপর এই ওষুধ প্রয়োগ করার আগে তাঁর থেকে লিখিত অনুমতি নিতে হবে। শুধুমাত্র ভারতেই নয়, বিশ্বের আরও বহু দেশে করোনা চিকিত্‍সায় এই ওষুধ কতটা কার্যকর হতে পারে তা নিয়ে চলছে গবেষণা।

Swarnali Goswami 20.06.2020

৮ সপ্তাহে জিও-তে ১১তম লগ্নি এল বৃহস্পতিবার। এবার জিও তে বিনিয়োগের কথা ঘোষণা করেছে সৌদি আরবের সংস্থা PIF ৷ জিও প্ল্যাটফর্মের ২.৩২ শতাংশ শেয়ার কিনছে এই সংস্থা ৷ মোট ১১,৩৬৭ কোটি টাকা ঢালতে চলেছে পিআইএফ ৷ এরই পাশাপাশি জিও-র জন্য রয়েছে আরও একটি দারুণ খবর৷ নিজেদের টার্গেট (২০২১-এর মার্চ) বা নির্ধারিত সময়ের অনেক আগেই রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজকে সম্পূর্ণ ঋণমুক্ত ঘোষণা করতে সফল হল চেয়ারম্যান মুকেশ আম্বানি ৷ যার অধিকাংশটাই সম্ভব হল জিও-র দৌলতেই ৷ পাশাপাশি রাইটস ইস্যু তো রয়েছেই ৷ সবমিলিয়ে অনেক আগেই নিজেদের লক্ষ্যপূরণে সফল হয়ে গেল এই সংস্থা ৷ মাত্র ৫৮ দিনের মধ্যেই ১৬৮,৮১৮ কোটি টাকা নিজেদের ঘরে তুলতে সক্ষম জিও ৷ এর মধ্যে শুধুমাত্র জিও-র ১১টি মেগা ডিল থেকেই এসেছে ১১৫,৬৯৩.৯৫ কোটি টাকা ৷ রাইটস ইস্যু থেকে এসেছে ৫৩,১২৪.২০ কোটি টাকা ৷
লকডাউনের মধ্যে একের পর এক চমক দেখিয়েছে রিলায়েন্স জিও ৷ আনলক শুরু হতেও জিও ম্যাজিক অব্যাহত। অধিকাংশ সংস্থাই যখন ব্যবসায় কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে, তখন দেশের সবচেয়ে সম্ভাবনাময় ব্র্যান্ড হিসেবে বিশ্ববাজারে উঠে আসছে এই সংস্থা। ফেসবুক-সহ মোট ১১টি সংস্থার সঙ্গে মেগা ডিল সেরে ফেলল রিলায়েন্স জিও ৷

Swarnali Goswami 19.06.2020

সর্বভারতীয় বণিক সংগঠন (Confederation of All India Traders) দেশের তারকাদের এবং খেলোয়াড়দের কাছে চিনা সামগ্রীর বিজ্ঞাপনে কাজ বন্ধ করার আর্জি জানাল। ৭ কোটি ব্যবসায়ীর এই সংগঠন চিনা মাল বয়কটের ডাক দিয়েছে ইতিমধ্যেই৷ “ভারতীয় সম্মান হামারা অভিমান” এই স্লোগানের মাধ্যমে চলছে প্রচার কর্মসূচী৷ ভারতের বাজার ছেয়ে গিয়েছে চিনের তৈরি সামগ্রীতে৷ মেড ইন চায়না-র(Made In China) মাল দামে কম, তাই তার প্রতি ঝুঁকছেন অনেকে৷ ভারতের বাজার ছেয়ে গিয়েছে চিনের তৈরি সামগ্রীতে৷ মেড ইন চায়না-র মাল দামে কম, তাই তার প্রতি ঝুঁকছেন প্রায় সবাই। ২০২১ ডিসেম্বরের মধ্যে ১ লক্ষ কোটি টাকার চিনা মাল আমদানি থামাতে বণিক সংগঠনের দাবি জোরালো করা হচ্ছে৷ এতেই তারা পাশে পেতে চাইছেন দেশের সমস্ত সাধারণ মানুষ ও তারকাদেরও৷

Swarnali Goswami 18.06.2020

রিলায়েন্স জিও-তে আরও বিনিয়োগের সিদ্ধান্ত নিল সিলভার লেক এবং তার সহকারী বিনিয়োগকারীরা৷ এ দিন রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড এবং জিও প্ল্যাটফর্মস লিমিটেড-এর পক্ষ থেকে এই ঘোষণা করা হয়েছে৷ এর ফলে জিও-তে সিলভার লেক-এর অংশীদারিত্বের পরিমাণ বেড়ে হল ২.০৮ শতাংশ৷ গত ৬ সপ্তাহেরও কম সময়ে তথ্যপ্রযুক্তি ক্ষেত্রে বিশ্বের অগ্রণী বিনিয়োগকারীরা ৯২,২০২.১৫ কোটি টাকা লগ্নি করল জিও-তে৷ এই তালিকায় রয়েছে ফেসবুক (৪৩,৫৭৩.৬২ কোটি টাকা), সিলভার লেক পার্টনার্স (৫৬৫৫.৭৫ কোটি টাকা), ভিস্তা ইক্যুইটি পার্টনার্স (১১,৩৬৭ কোটি টাকা), জেনারেল অ্যাটলান্টিক (৬৫৯৮.৩৮ কোটি টাকা), কেকেআর (১১,৩৬৭ কোটি টাকা), মুবাদালা (৯০৯৩ কোটি টাকা) এবং সিলভার লেক (৪৫৪৫.৮০ কোটি টাকা)-র মতো সংস্থার বিনিয়োগ৷

Swarnali Goswami 06.06.2020

২৯ মে শেষ হওয়া সপ্তাহে ভারতে সঞ্চিত বিদেশি মুদ্রার পরিমাণ বেড়েছে ৩৪৩ কোটি ডলার। অর্থাৎ বৃদ্ধির পরিমাণ প্রায় ২৬ হাজার কোটি টাকা। এখন ভারতের সঞ্চিত বিদেশি মুদ্রার মোট পরিমাণ ৪৯৩৪৮ কোটি ডলার। অর্থাৎ চার লক্ষ কোটি টাকার বেশি। তার আগের সপ্তাহে বিদেশি মুদ্রার পরিমাণ বেড়েছিল ৩০০ কোটি ডলার। কোভিড ১৯ অতিমহামারীর ফলে দেশের অর্থনীতিতে যে ধাক্কা আসছে, তা সামলাতে এই বিদেশি মুদ্রার ভাণ্ডার অনেকাংশে সাহায্য করবে বলে অর্থনীতিবিদদের ধারণা।

Swarnali Goswami 05.06.2020

করোনাভাইরাস সংক্রমণের জেরে ২০১৯-২০ আর্থিক বছরের শেষ ত্রৈমাসিকে বড়সড় ধাক্কা খেল ভারতের আর্থিক বৃদ্ধিতে। শেষ ত্রৈমাসিকে জিডিপির হার পৌঁছেছে ৩.‌১ শতাংশে। এর ফলে এই অর্থবর্ষে আর্থিক বৃদ্ধির হার দাঁড়াল ৪.‌২ শতাংশ। শুক্রবার কেন্দ্রীয় সরকারের অধীন জাতীয় পরিসংখ্যাণ দফতরের (NSO) তরফে এই তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে। উল্লেখ্য, গত ২০১৮-১৯ আর্থিক বছরের এই সময়ে ৫.৭ শতাংশ হারে দেশের জিডিপি বৃদ্ধি পেয়েছিল। তবে পৃথিবী জুড়ে প্রায় সমস্ত দেশের অর্থনৈতিক বৃদ্ধির হার অনেকটাই কমে গিয়েছে। সেই তুলনায় ভারতের অর্থনীতি শক্তিশালী অবস্থানে আছে বলেই মনে করছেন অনেকে।

Swarnali Goswami 29.05.2020

লকডাউনে ছাড় পাওয়ার পরই শোরুম, দোকান খুলতে শুরু করেছেন গয়না ব্যবসায়ীরা। ইতিমধ্যেই গ্রিন জোনগুলিতে তাদের শোরুম খোলার কথা ঘোষণা করেছে সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস এবং তনিশক। তবে, ব্যবসা শুরু করলেও মাত্র ২০-২৫ শতাংশ বিক্রির মুখ দেখছে তারা। অল ইন্ডিয়া জেম অ্যান্ড জুয়েলারি ডোমেস্টিক কাউন্সিলের চেয়ারম্যান অনন্ত পদ্মনাভনের কথায়, ‘কিছু রাজ্যে গয়না বিক্রেতারা স্থানীয় প্রশাসনের অনুমতি নিয়ে গত এক সপ্তাহ ধরে দোকান খোলা শুরু করেছেন। পশ্চিমবঙ্গ, ওড়িশা, অসম এবং কর্নাটকের গ্রিন এবং অরেঞ্জ জোনগুলিতে বন্ধ শোরুম ফের খোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস। গোটা দেশে দফায় দফায় তাদের ৩২৮টি শোরুম খোলার কথা ঘোষণা করেছে টাটা গোষ্ঠীর গয়না বিক্রয়কারী শাখা তনিশক।

Swarnali Goswami 11.05.2020

এ বার জিও-র ১ শতাংশ শেয়ার কিনে নিচ্ছে আমেরিকার অন্যতম বড় প্রাইভেট ইক্যুইটি সংস্থা সিলভার লেক পার্টনারস। সোমবার সকালে রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের তরফে এক বিবৃতিতে দিয়ে এ কথা জানানো হয়েছে। ওই বিবৃতিতে বলা হয়েছে, জিও-র ইক্যুইটি ভ্যালু ৪.৯০ লক্ষ কোটি টাকা ধরে নিয়ে এই বিনিয়োগ করেছে সিলভার লেক পার্টনার্স। এর আগে ফেসবুক ২২ এপ্রিল রিলায়েন্সে বিনিয়োগ করেছে। তার পর ইক্যুইটি মূল্যে সাড়ে ১২ শতাংশ প্রিমিয়াম যুক্ত হয়েছে।