রাজ্য

জনমুখী বাজেট পেশ করলেন মুখ্যমন্ত্রী

শুক্রবার ২০২১–২২ অর্থবর্ষের বাজেট তথা ভোট অন অ্যাকাউন্ট পেশ করতে গিয়ে প্রথমেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়ে দিলেন, ‘‌আমাদের কল্যাণমূলক কর্মসূচি চলছে চলবে।’‌ উল্লেখ্য, অর্থমন্ত্রী অসুস্থ থাকায় আজ মুখ্যমন্ত্রী বাজেট পেশ করলেন। এই বাজেটে বিভিন্ন ক্ষেত্রে দরাজ হলেন মুখ্যমন্ত্রী। প্রায় ২ লক্ষ ৯৯ হাজার ৬৮৮ কোটি টাকার বরাদ্দের কথা ঘোষণা করেছেন তিনি। একাধিক নতুন প্রকল্পের কথাও ঘোষণা করেছেন তিনি। সামনেই বিধানসভা ভোট। স্বাভাবিকভাবে দ্বিতীয় তৃণমূল সরকারের এটা বিদায়ী বাজেট। যে কারণে এটি বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে। সে ক্ষেত্রে ভোটের বাধ্যবাধকতাই মুখ্যমন্ত্রীকে খরচে দরাজহস্ত হতে বাধ্য করল বলে মত পর্যবেক্ষক মহলের।
নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর স্মরণে কলকাতা পুলিশে নয়া ব্যাটেলিয়নের ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর। ‘মাতৃবন্দনা’ নামে নতুন প্রকল্প ঘোষণা।
স্বনির্ভর গোষ্ঠীগুলিকে ঋণদানের জন্য মাতৃ বন্দনা নামে নয়া প্রকল্পের ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী। আদিবাসী এবং তফসিলিদের জন্য দরাজ হলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বাজেটে তিনি ঘোষণা করলেন, আগামী ৫ বছরে রাজ্যের তফসিলি জাতি এবং উপজাতিদের জন্য ২০ লক্ষ পাকা বাড়ি তৈরি করবে রাজ্য সরকার। বাড়ি নির্মাণের পাশাপাশি তফসিলি জাতি, উপজাতিদের জন্য ১০০টি ইংরেজি মাধ্যম স্কুল, অলচিকি ভাষায় ৫০০টি স্কুল এবং নতুন দেড় হাজার শিক্ষক নিয়োগ করা হবে। জঙ্গলমহল এলাকায় জঙ্গল সুন্দরী নামের শিল্পনগরী তৈরি হবে। বাজেটে চা বাগানের শ্রমিকদের উন্নতিতে দেড়শো কোটি টাকা বরাদ্দ ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। রাজবংশী ভাষার ২০০টি বিদ্যালয়কে সরকারি অনুমোদন দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।
এদিন তিনি বাজেটে জানান, গ্রামে গ্রামে ৪৬ হাজার কিলোমিটার নতুন রাস্তা তৈরি করা হবে। ১০ হাজার কিলোমিটার রাস্তা সংস্কার করা হবে। অশোকনগরে গ্যাস উন্নয়ন প্রকল্প এবং অশোকনগর শিল্পনগরীতে পরিণত করা হবে। পূর্ব মেদিনীপুরে গভীর সমুদ্র বন্দর গড়ে তোলা হবে। রঘুনাথপুরে শিল্পনগরী তৈরি হবে। রুবি থেকে কালিকাপুর উড়ালপথ, উল্টোডাঙা থেকে পোস্তা বাজার উড়ালপথ, চিংড়িঘাটা থেকে নিউটাউন পর্যন্ত উড়ালপুল, পাইকপাড়া থেকে শিয়ালদহ পর্যন্ত উড়ালপথ নির্মাণ করা হবে। উড়ালপথ নির্মাণে ২,৫৭৫ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। যাত্রী পরিবহণে সব যানবাহনের ক্ষেত্রে ১ জানুয়ারি, ২০২১ থেকে ৩০ জুন, ২০২১ পর্যন্ত রোড ট্যাক্স সম্পূর্ণ মকুবের ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। পার্ক সার্কাসে স্কাইওয়াক নির্মাণের ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। এছাড়া তৈরী হবে পাইকপাড়া থেকে শিয়ালদহ পর্যন্ত উড়ালপুল। ইএম বাইপাস থেকে নিউটাউন পর্যন্ত উড়ালপুল। আমির আলি রোড থেকে গুরুসদয় দত্ত রোড পর্যন্ত উড়ালপুল। কোচবিহারে নতুন রাস্তা হবে বলেও বাজেটে ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী।
এছাড়াও পার্শ্ব শিক্ষকদের প্রতি বছর ৩ শতাংশ হারে বেতন বৃদ্ধির পাশাপাশি অবসরকালীন ৩ লক্ষ টাকার ঘোষণা করেন মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায়৷ এরই সঙ্গে তিনি পার্শ্ব শিক্ষকদের নতুন পদের কথা উল্লেখ করেন৷ নেপালি,হিন্দি,উর্দু, কামতাপুরী এবং কুড়মালি ভাষাতে রাজ্যে ১০০টি নতুন স্কুল তৈরির কথা এদিনের বাজেট ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে ফের খুলবে স্কুল, তাও প্রত্যেক বছরই দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রছাত্রীদের একটি করে ট্যাব দেওয়া হবে বলে এদিনের অর্থ বাজেটে ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। এই প্রকল্পকে “তরুণের স্বপ্ন স্কিম” বলে এদিনের বাজেটে ঘোষণা করেন মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায়। মাদ্রাসাকে সরাসরি আর্থিক সাহায্য প্রদানের প্রস্তাব বাজেটে। সরকারি অনুমোদিত কিন্তু আর্থিক সহায়তা পায় না, সেগুলিকে আর্থিক সহায়তা করা হবে। এ জন্য ৫০ কোটি টাকা বরাদ্দ করলেন মুখ্যমন্ত্রী।
‘দুয়ারে সরকার’ ও ‘পাড়ায় সমাধান’ কর্মসূচি দু’বার করে অনুষ্ঠিত হবে। প্রথমটি আগস্ট-সেপ্টেম্বর মাস ও দ্বিতীয়টি ডিসেম্বর-জানুয়ারি মাসে হবে, বাজেটে ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর। শুধু চলতি বছরের ৩০ জুন অবধি নয়। তার পরেও বিনামূল্যে রেশন মিলবে বাংলায়। একইসঙ্গে ‘‌মা’‌ নামে এক নতুন প্রকল্পের সূচনার কথা এদিন ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি জানান, রাজ্য জুড়ে তৈরি করা হবে ‘‌মা’‌ নামে কমন কিচেন। যেখান থেকে সামান্য কিছু অর্থ ব্যয় করে দু’‌বেলার খাবার পাবেন সমাজের দুঃস্থ মানুষজন। এছাড়া ভোটের আগে রাজ্যের প্রবীণ নাগরিক এবং বিধবাদের জন্য অন্তর্বর্তী বাজেটে বড় ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ মুখ্যমন্ত্রী এ দিন জানিয়েছেন, ৬০ বছরের ঊর্ধ্বে রাজ্যের সব বাসিন্দাই মাসিক পেনশন পাবেন৷ তিনি আরও জানিয়েছেন, ১৮ বছরের ঊর্ধ্বে প্রত্যেক বিধবাকে মাসিক ভাতা দেবে রাজ্য সরকার৷ সব ধর্ম, বর্ণের বিধবারাই এই সুবিধে পাবেন৷ এই দুই প্রকল্পের জন্য মোট ১০০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করার ঘোষণা করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷
বিধানসভা ভোটের দামামা বেজে গিয়েছে। স্বাভাবিকভাবে দ্বিতীয় তৃণমূল সরকারের এটাই শেষ বাজেট। সব মিলিয়ে এই বাজেট বিশেষভাবে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে। মূলত ‘অতিমারি-আমফান-কেন্দ্রীয় বঞ্চনা’-এই সবকিছুর বিরুদ্ধে দাঁড়িয়ে বাংলা যে ‘অপরাজিত’, সেই বার্তাই তুলে ধরা হল রাজ্য বাজেটে। ভোটের আগে রাজ্য সরকারের এ হেন বার্তা অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছে পর্যবেক্ষক মহলের একাংশ। বাজেট বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘১০ কোটি বঙ্গবাসীর ভাগ্যাকাশে আজ সত্যিই দুর্যোগের ঘনঘটা দেখছি না। বরং নতুন সৌভাগ্যরবির উদয় দেখছি। পূর্ব ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার নতুন ভরকেন্দ্র হিসেবে জেগে উঠেছে বাংলা। বিশ্ব মানচিত্রে বাংলাই হয়ে উঠেছে নতুন গন্তব্য।’

Swarnali Goswami 05.02.2021

শহরে ঠান্ডার অনুভূতি, নামতে পারে বৃষ্টি

বৃহস্পতিবার সকালে কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রার পারদ নামে ১৩ ডিগ্রিতে। বৃষ্টি হতে পারে খুব শিগগিরই। এমনই জানানো হয়েছে আবহাওয়া দফতরের তরফে। শুক্রবার আরও নামবে পারদ। হাওয়া অফিস জানাচ্ছে, আজ, বৃহস্পতিবার‌ থেকে শনিবার মেঘাছন্ন থাকবে কলকাতা–সহ দক্ষিণবঙ্গের বিস্তীর্ণ অঞ্চল।
আবহাওয়া সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার থেকেই দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন এলাকায় বিক্ষিপ্ত হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি বা বজ্রবিদ্যুৎ–সহ বৃষ্টি হতে পারে। মূলত পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, পশ্চিম মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম বর্ধমান–সহ পশ্চিমাঞ্চলের বিস্তীর্ণ এলাকায় বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। তার প্রভাবে ফের ৩১ জানুয়ারি থেকে জাঁকিয়ে শীত পড়বে দক্ষিণবঙ্গ জুড়ে। এদিকে, এদিন ছিল জানুয়ারি মাসের শীতলতম দিন। বৃহস্পতিবার সকালে কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রার পারদ নামে ১৩ ডিগ্রিতে। যা স্বাভাবিকের তুলনায় ১ ডিগ্রি কম। শুক্রবারও থাকবে ঠান্ডা। থাকবে হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশাও। শনিবার থেকে বাড়তে পারে তাপমাত্রা। আর ওই দিনই মূলত বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। আগামী দু’তিন দিন উত্তরবঙ্গে ঘন কুয়াশা থাকবে। ফলে দৃশ্যমানতা অনেকটাই কমবে। আবহাওয়া বিজ্ঞানীদের মতে, কখনও সাগর থেকে অতিরিক্ত পরিমাণে জলীয়বাষ্প ঢুকে যাচ্ছে। কখনও আবার পশ্চিমী ঝঞ্ঝার প্রভাব। ফলে আবহাওয়া পরিবর্তিত হচ্ছে।
ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথমার্ধে এমন শীতের মেজাজই বজায় থাকবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর। আকাশ পরিষ্কার হয়ে গেলে আর একদফা ঠান্ডা পড়বে। আলিপুর আবহাওয়া দফতর সূত্রে খবর, এখনই শীত বিদায়ের সম্ভাবনা নেই। উত্তুরে হাওয়ার দাপট রয়েছে। ধীরে ধীরে শীতের প্রভাবও কমবে।

Swarnali Goswami 28.01.2021

করোনা টিকার সম্ভাব্য পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার মোকাবিলা করতে তৈরী রাজ্য

সার্বিক টিকাকরণ বা ইমিউনাইজেশনে দেশের মধ্যে এক নম্বর স্থান পেয়েছে পশ্চিমবঙ্গ। কেন্দ্রের বর্তমান সরকারই এই সার্টিফিকেট দিয়েছে রাজ্যকে। সম্প্রতি প্রকাশিত ন্যাশনাল ফ্যামিলি হেলথ সার্ভে বা এনএফএইচএস-এর রিপোর্টে এই তথ্য উঠে এসেছে। আর মাত্র ক’দিন। তারপরেই শুরু হয়ে যাবে প্রথম পর্যায়ের করোনার টিকাকরণ। সেই সময় এই তথ্য যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ।
শুধু সার্বিক টিকাকরণই নয়, এই ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণেও রাজ্য রয়েছে প্রথম সারিতে। টিকাকরণের সময় বা পরপরই পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া বা ভ্যাকসিন অ্যাডভার্স এফেক্ট রিপোর্টিং (ভিএইআর) নথিভুক্ত করা এবং ভ্যাকসিন প্রাপকের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের দিক থেকেও পশ্চিমবঙ্গ রয়েছে দেশের মধ্যে প্রথম সারিতেই। এমনটাই জানা গেছে রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে। স্বাস্থ্য দফতরের এক আধিকারিক জানান, সার্বিক টিকাকরণের অন্তর্গত পোলিও, বিসিজি, এমসিভি, হেপাটাইটিভ বি প্রভৃতি টিকার ক্ষেত্রে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া সম্পর্কে রাজ্য সম্যক অবহিত। সেইমতো ব্যবস্থাও নেওয়া হয়। মোদি সরকারের এনএফএইচএস-৫ (২০১৯-২০) রিপোর্টে ১৪টি রাজ্যের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা নিয়ে রিপোর্ট কার্ড বা ফ্যাক্ট শিট প্রকাশ করা হয়েছে। কেরল, অন্ধ্রপ্রদেশ, কর্ণাটক, গুজরাত, মহারাষ্ট্র, তেলেঙ্গানা, বিহার, অসম প্রভৃতি সকলের থেকে এগিয়ে বাংলা।
স্বাস্থ্য অধিকর্তা অজয় চক্রবর্তী বলেন, সার্বিক টিকাকরণ ও টিকাকরণের পর পার্শ্ব প্রতিক্রয়া নিয়ন্ত্রণে পশ্চিমবঙ্গ দেশের মধ্যে প্রথম সারিতে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিনিধিরা এসে প্রশংসা করে গিয়েছেন। তাই করোনা টিকাকরণও এখানে নির্ঝঞ্ঝাটে মিটবে বলেই তাঁদের বিশ্বাস। তবে করোনা ভ্যাকসিন সম্পূর্ণ নতুন একটি বিষয়। তা দেওয়ার পর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া হলে কী কী হতে পারে, তা মোটেই পরীক্ষিত নয়। তাই যাবতীয় সাবধানতা নিচ্ছে রাজ্য। প্রতি জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিককে চিঠি পাঠিয়ে বলা হয়েছে, ভ্যাকসিন গ্রহণ কেন্দ্রে আপৎকালীন অ্যাড্রিনালিন ইঞ্জেকশন রাখতে। কারোর কোনও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা গেলে জরুরিভিত্তিতে তাকে সেই কেন্দ্রে উপস্থিত মেডিক্যাল অফিসার দেখবেন। প্রয়োজনে বড় হাসপাতালে পাঠানো হবে। সেখানে ভ্যাকসিনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া অনুযায়ী ব্য‌বস্থা নেওয়ার জন্য মেডিসিন, সার্জারি, গাইনি সহ বিভিন্ন বিশেষজ্ঞরা থাকছেন।

Swarnali Goswami 12.01.2021

এবারে হাসপাতাল। বিশ্বভারতীর নিজস্ব হাসপাতাল পিয়ারসন মেমোরিয়াল হাসপাতালের ওষুধে গরমিলের অঙ্ক ২০ লক্ষ টাকারও বেশি এমনটাই ধরা পড়ল CAG রিপোর্টে। বিশ্বভারতীর এই হাসপাতালে মূলত বিশ্বভারতীর কর্মী, অধ্যাপক, আধিকারিক এবং তাঁদের পরিবারের সদস্যরা ও ছাত্রছাত্রীরা চিকিৎসা পরিষেবা পেয়ে থাকে। এখানে ইনডোর এবং আউটডোর উভয় ধরণের চিকিৎসাই করানো হয়।
বিশ্বভারতীর একাংশের অভিযোগ, দীর্ঘদিন ধরে এই হাসপাতালে ওষুধ নিয়ে বেআইনি কারবার চলছে। সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই তদন্তে নেমে CAG জানায়, ২০ লক্ষ টাকারও বেশি দুর্নীতি হয়েছে ওষুধ নিয়ে। রিপোর্টে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, অন্তত চার বছর ধরে চলা এই দুর্নীতিতে মূলত অ্যাজিথ্রোমাইসিন এবং সেফিক্সিন ট্যাবলেটের ক্ষেত্রে কেলেঙ্কারি ঘটেছে। নিয়ম অনুসারে, ডাক্তারের প্রেসক্রিপশন অনুসারে কাউন্টারে যাঁরা থাকেন, তাঁরাই ওষুধ দেবেন। কিন্তু CAG’র রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে, ডাক্তারের প্রেসক্রিপশন ছাড়াই এই ওষুধ দেওয়া হয়েছে। গত চার বছরে এই রকম প্রেসক্রিপন ছাড়া ওষুধ বিক্রি হয়েছে প্রায় ২০ লক্ষ টাকারও বেশি মূল্যের। বিষয়টি সামনে আসতেই পাঁচজন ফার্মাসিস্টকে শোকজ করেছেন পিয়ারসন হাসপাতালের সিএমও অরিন্দম চট্টোপাধ্যায়। নিজস্ব তদন্ত কমিটিও গঠন করতে চলেছে বিশ্বভারতী। সেই কমিটি অভিযুক্তদের শাস্তির সুপারিশ করবে। সেই মতোই পরে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। একটি সূত্র মারফত জানা গেছে, যে অর্থক্ষতি হয়েছে, তা এই পাঁচজনের কাছ থেকে উদ্ধার করতে পারে বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ। অন্যথায় এঁদের সাসপেন্ড করা হতে পারে।
উল্লেখ্য, কিছুদিন আগেই অমর্ত্য সেনের বাড়ি প্রতীচী-র জমি নিয়ে ‘বহিরাগত’ বিতর্ক বিরাটাকার ধারণ করে। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী খোদ অমর্ত্য সেনকে চিঠি দিয়ে তাঁর পাশে থাকার বার্তা দেন। তার রেশ কাটতে না কাটতেই শতাধিক বছর আগে প্রতিষ্ঠিত ‘আলাপিনী মহিলা সমিতি’ কার্যত তুলে দেওয়ার চেষ্টার অভিযোগ ওঠে। বিশ্বভারতীর মহিলা প্রাক্তনী বা বিশ্বভারতীর অধ্যাপক কর্মীদের স্ত্রীরা আলাপিনী মহিলা সমিতির সদস্য। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ভাইঝি ইন্দিরা দেবী চৌধুরানী বিশ্বভারতীর উপাচার্য থাকাকালীন এই মহিলা সমিতিকে অধিবেশন কক্ষ হিসাবে ‘নতুন বাড়ি’টি দিয়েছিলেন। সেই ঘরই এত দিন ‘আলাপিনী’র সদস্যারা ব্যবহার করতেন। সমিতির অভিযোগ, সেই ঘর থেকে ‘আলাপিনী’কে উচ্ছেদ করার চেষ্টা শুরু হয়েছে। যদিও গোটা বিষয়টি নিয়ে বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ কোনও মন্তব্য করেনি।

Swarnali Goswami 04.01.2021

রাজ্য সরকারের তৈরী করা নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর ১২৫ তম জন্মজয়ন্তী কমিটির সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের ভার্চুয়াল বৈঠক হল সোমবার। ২৩ জানুয়ারি দিনটি ‘দেশনায়ক দিবস’ হিসাবে ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পাশাপাশি ওই দিনটি জাতীয় ছুটি ঘোষণার দাবিও ফের এক বার তুললেন তিনি। সোমবারের বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন নেতাজির পৌত্র সুগত বসু, নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ একাধিক বিশিষ্ট ব্যক্তি। হাজির ছিলেন বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যরাও।
সোমবারের বৈঠকে নেতাজির নামে ‘আজাদ হিন্দ বাহিনী’ মনুমেন্ট তৈরির প্রস্তাব দিয়েছেন মমতা। পাশাপাশি তাঁর নামে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় তৈরির প্রস্তাবও দিয়েছেন। নেতাজিকে রাজ্যবাসীর সামনে তুলে ধরতে তৃণমূল স্তর থেকে নানা পরিকল্পনাও করা হয়েছে। বৈঠকে উঠে এসেছে নেতাজির জন্মজয়ন্তী উদ্‌যাপন নিয়ে একগুচ্ছ পরিকল্পনার কথা। ২৩ জানুয়ারি ‘দেশনায়ক দিবস’ হিসেবে পালিত করার পরিকল্পনা করা হয়। বৈঠকে স্থির হয়েছে ২৩ জানুয়ারি বেলা ১২.১৫-তে রাজ্য জুড়ে সাইরেন বাজানো হবে। এছাড়াও ওই দিন বাড়ি বাড়ি শঙ্খধ্বনি এবং উলু দেওয়ার আবেদনও জানিয়েছেন মমতা। শ্যামবাজার থেকে রেড রোড পর্যন্ত মিছিল করার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে তৈরি হবে ‘আজাদ হিন্দ বাহিনী’ এমনটাই ভাবা হয়েছে। নেতাজির জীবন নিয়ে তৈরি হবে স্বল্প দৈর্ঘ্যের ছবি। রাজারহাটে নেতাজির নামে মনুমেন্ট তৈরী করা যেতে পারে এমন পরিকল্পনাও নেওয়া হয়েছে।
উল্লেখ্য, গত ২১ ডিসেম্বর নেজাতির জন্মজয়ন্তী উদ্‌যাপনে একটি উচ্চ পর্যায়ের কমিটি তৈরির কথা জানিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সে দিন কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে দেওয়া বিবৃতিতে বলা হয়, নেতাজির পরিবারের সদস্য, বিশেষজ্ঞ, ইতিহাসবিদ, লেখক এবং আজাদ হিন্দ ফৌজের সঙ্গে জড়িত থাকা ব্যক্তিরাও ওই কমিটিতে থাকবেন। এছাড়াও ওই দিন প্রধানমন্ত্রীর রাজ্যে আসার কথা। আজকের বৈঠকে উপস্থিত সদস্যরা নিজেদের মতামতও ব্যক্ত করেন।

Swarnali Goswami 04.01.2021

দেশে ইতিমধ্যেই ২২ জনের শরীরে মিলেছে ব্রিটেনের নতুন করোনা স্ট্রেন। আর কয়েকঘন্টা পরেই নতুন বছরের শুরু। বছর শেষে উদ্বেগ আরও বাড়িয়েছে ব্রিটেনের এই নতুন করোনা স্ট্রেন। এই পরিস্থিতিতে বর্ষবরণের আনন্দে সংক্রমণ রুখতে রীতিমতো আসরে নামল কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার। এবার স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিওর (SOP) তৈরি করে দিল স্বাস্থ্যমন্ত্রক। সমস্ত রাজ্যের স্বাস্থ্যসচিবকে সেই এসওপি পাঠানো হয়েছে। ক্রিসমাসে বিভিন্ন রাজ্যে যেভাবে পথে নেমেছিল মানুষ, বর্ষবরণে তা আরও বাড়তে পারে। সেই কারণেই আঁটোসাঁটো ভাবে পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে আসরে নামছে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার। কলকাতা হাইকোর্ট পশিচমবঙ্গ সরকারকে নির্দেশ দিয়েছে কোভিডের নিয়ম সঠিকভাবে মেনে চলা হচ্ছে কিনা তার উপর কড়া নজরদারি করতে। কোর্ট আরও বলেছে, নববর্ষ পালনে যেন কোনও জনসমাবেশ শহরে না হয়, সেদিকে নজর দিতে। উৎসবের মরশুমে কোভিডের সংক্রমণ এড়াতেই, পুনরায় এরকম নির্দেশিকা জারি করল রাজ্যের মুখ্য আদালত। মুম্বই, ব্যাঙ্গালোর এবং চেন্নাই-এর মতো দেশের বেশ কিছু শহরে ইতিমধ্যেই ৩১ ডিসেম্বর রাতে জারি করা হয়েছে কারফিউ।

Swarnali Goswami 30.12.2020

রাজ্য-রাজ্যপাল সংঘাত চরমে পৌঁছল। এতদিনে ‘বিজেপির এজেন্ট’ হিসেবে রাজ্যপালকে বারবার কটাক্ষ করলেও এবার রাজ্যপালের অপসারণের দাবিতে রাষ্ট্রপতির দ্বারস্থ হল তৃণমূল। সাংবিধানিক সীমারেখা লঙ্ঘন করছে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়৷ এই অভিযোগ তুলে রাষ্ট্রপতির কাছে রাজ্যপালকে সরিয়ে দেওয়ার দাবি জানিয়ে ৬ পাতার স্মারকলিপি জমা দিল রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল৷ বুধবার তৃণমূল ভবনে সাংবাদিক সম্মেলন থেকে সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায়, রামনাথ কোবিন্দের কাছে এই দাবির সমর্থনে স্মারকলিপি জমা দেওয়ার কথা জানান ৷ একইসঙ্গে চড়া সুরে ফের আক্রমণ শানান রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ের উদ্দেশ্যে। তিনি বলেন, ‘সংবিধান রক্ষার কথা বলে প্রথম দিন থেকেই রাজ্য সরকার, প্রশাসন-পুলিশের বিরুদ্ধে ভিত্তিহীন অভিযোগ এনে চলেছেন। তিনি যা করে চলেছেন, তা দেশের কোনও রাজ্যপাল করেননি।’
বুধবার সকালেই রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে সুর চড়িয়ে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় বলেন, ‘২১-এর নির্বাচনে তাণ্ডব হবে ৷ আমার প্রথমদিন থেকে চেষ্টা নির্বাচন যাতে সুষ্ঠু হয় ৷’ রাজ্যপালের এই মন্তব্য নিয়েই নতুন করে সরব তৃণমল কংগ্রেস ৷ রাজ্যপালের এই বক্তব্য নিয়ে প্রশ্ন তুলে সাংসদ সুখেন্দুশেখর বলেন, ‘উনি বলছেন নির্বাচন সুষ্ঠু যাতে হয় দেখব, উনি কে? এজন্য তো নির্বাচন কমিশন আছে। আরেকটি সাংবিধানিক সংস্থা ৷ ওনাকে কে ক্ষমতা দিয়েছে?’ ওই স্মারকলিপিতে স্বাক্ষর করেছেন সাংসদ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়, সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন, সাংসদ কাকলি ঘোষ দস্তিদার ও সাংসদ কল্যাণ বন্দোপাধ্যায়রা।

Swarnali Goswami 30.12.2020

উচ্চপ্রাথমিকের টেট খারিজ হয়ে গেল কলকাতা হাইকোর্টে৷ শুক্রবার বিচারপতি মৌসুমী ভট্টাচার্যের বেঞ্চ একটি রায়ে ২০১৬ সালের উচ্চ প্রাথমিকে সমস্ত নিয়োগ প্রক্রিয়া বাতিল করে দিল কলকাতা হাইকোর্ট। একই সঙ্গে আগামী দিনে কিভাবে এবং কত দিনের মধ্যে এই নিয়োগ প্রক্রিয়া শেষ করতে হবে সে ব্যাপারে নির্দিষ্ট গাইডলাইন তৈরি করে দিয়েছে উচ্চ আদালত। সম্পূর্ণ নিয়োগ ১০ মে ২০২১ সালের মধ্যে শেষ করার নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট ৷ করোনা আবহে ভার্চুয়াল প্রক্রিয়ায় জোর দিতে পারে কমিশন বলেও জানিয়েছে আদালত ৷ দ্রুত নতুন করে নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরুর নির্দেশ দিলেন বিচারপতি মৌসুমী ভট্টাচার্য ৷ প্যানেলে একাধিক দুর্নীতি রয়েছে বলে মত আদালতের। পরবর্তী নিয়োগের ক্ষেত্রে যেন শুধু মাত্র যোগ্যরাই বিবেচিত হয় তা নিশ্চিত করতে হবে বলে জানিয়েছে আদালত ৷

Swarnali Goswami 11.12.2020

বিধানসভায় ফের তৃণমূলই ফিরবে। আত্মবিশ্বাসী মমতা এমনই বললেন রানিগঞ্জের জনসভায়। এদিন তিনি ঘোষণা করেন, তৃণমূল সরকারই রাজ্যে ক্ষমতায় থাকবে৷ বিনামূল্যে রেশনও পাবেন রাজ্যের মানুষ৷ মুখ্যমন্ত্রী এ দিন বিজেপি-র বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন, রেল সহ বিভিন্ন রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাকে বিক্রি করার চক্রান্ত করছে কেন্দ্র৷ ইসিএল-কেও বিক্রি করার চেষ্টা চলছে বলে অভিযোগ করেন মুখ্যমন্ত্রী৷ তিনি জানান, প্রাণ থাকতে রেলের বেসরকারিকরণ করতে দেবেন না৷ মুখ্যমন্ত্রী এ দিন আরও অভিযোগ করেন, নির্বাচন এলেই ভোট পেতে মিথ্যে প্রতিশ্রুতি দেয় বিজেপি এবং কেন্দ্রীয় সরকার৷ তিনি বলেন, ‘আমি কে? কেউ না, আপনাদের মতো সাধারণ লোক৷ আমি দুটো খেতে পেলে আপনারাও পাবেন৷’ এ দিনও মুখ্যমন্ত্রী বার বার দাবি করেন, তিনি কৃষক আন্দোলনের পাশেই রয়েছেন৷ বিজেপি কৃষকদের খাবার কেড়ে নিচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন মুখ্যমন্ত্রী৷

Swarnali Goswami 08.12.2020

করোনা পরিস্থিতিতে ছাত্রছাত্রীদের স্বার্থের কথা মাথায় রেখে এই বছর (২০২০ শিক্ষাবর্ষে) ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত পড়ুয়াদের বিনা পরীক্ষায় বা মূল্যায়নে পাশ করানোর কথা জানানো হল মধ্যশিক্ষা পর্ষদের তরফে। সোমবার, ৭ ডিসেম্বর সমস্ত স্বীকৃত স্কুলের প্রধানদের জন্য একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে এমনটাই জানানো হল। তবে স্কুল খুললে এবং ফের স্বাভাবিক পঠনপাঠন চালু হলে সবার আগে পুরনো ক্লাসের সম্পূর্ণ সিলেবাস শিক্ষক-শিক্ষিকাদের রিভাইস করাতে হবে। তার পরে নতুন ক্লাসের সিলেবাস অনুসারে পঠনপাঠন শুরু হবে। এমনই বলা হয়েছে নির্দেশিকায়। আগামী বছর কবে মাধ্যমিক পরীক্ষা হবে সেই বিষয়ে বিজ্ঞপ্তিতে কিছু জানানো হয়নি। তবে পূর্ব ঘোষণা মত আগামী বছর যে সমস্ত ছাত্রছাত্রী মাধ্যমিক পরীক্ষা দেবে তাদের কোনও নির্বাচনী পরীক্ষা বা টেস্ট হবে না বিজ্ঞপ্তিতে সেই বিষয়টিও উল্লেখ করা হয়েছে। প্রয়োজনে স্কুলগুলি মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের জন্য মক টেস্টের আয়োজন করতে পারে বলে পর্ষদ জানিয়েছে। উল্লেখ্য, চলতি ডিসেম্বর মাসেই ২০২১ সালের মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের জন্য এনরোলমেন্ট ফর্ম বিলি শুরু করছে পর্ষদ। আগামী ১৬ ডিসেম্বর এবং ১৭ ডিসেম্বর- এই দু’দিন ফর্ম বিলি করা হবে। প্রতিটি স্কুল কর্তৃপক্ষ নির্দিষ্ট ক্যাম্প অফিস থেকে এই আবেদনপত্র (রেগুলার এবং সিসি উভয় পরীক্ষার্থীদের ক্ষেত্রেই) সংগ্রহ করতে পারবে।

Swarnali Goswami 07.12.2020

মেদিনীপুরে হাইভোল্টেজ সভা থেকে বিজেপিকে খোলা চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা ৷ টাকা ছড়িয়ে দেশে দল ভাঙছে, সরকার ভাঙছে বিজেপি ৷ বাংলাতেও একইপন্থা নিয়েছে তারা ৷ কিন্তু টাকা ছড়িয়ে ভাঙা যাবে না তৃণমূল বললেন এদিন তিনি। মমতা এদিনের সভা থেকে আরও বলেন, ‘বহিরাগতরা এসেছে, টাকা বিলোচ্ছে, কিন্তু কোনওভাবে কিনতে পারবে না তৃণমূল কংগ্রেসকে।’ তবে জনসভায় অধিকারী পরিবারের নামই তোলেননি নেত্রী। দল যে কারও অপেক্ষায় বসে নেই, সেটাও বুঝিয়ে দিয়েছেন তিনি।
শুভেন্দুর নাম না নিলেও মমতা বুঝিয়ে দেন, দীর্ঘ লড়াইয়ের পর তৃণমূল এখন বটবৃক্ষে পরিণত হয়েছে৷ ১৯৯৮ সালে দল প্রতিষ্ঠার পর কীভাবে লড়াই করতে হয়েছে, সেকথাও মনে করিয়ে দেন তৃণমূলনেত্রী৷ এদিনের জনসভায় তিনি বার্তা দিলেন, “বিজেপি দল ও বিজেপি দলের যারা বন্ধু, তাদের কাছে পরিষ্কার করে বলবো, আগুন নিয়ে খেলবেন না। আর যাকে পারেন জব্দ করতে পারেন করুন, তৃণমূল কংগ্রেসকে পারবেন না।” মমতার বার্তা, ‘‘বিজেপির কাছে সব আছে। কিন্তু তৃণমূলের মতো কর্মী নেই।’’
অপরদিকে সোমবার মেদিনীপুরের সভা থেকে তিনি জানালেন যে, কৃষকদের পাশে তিনি রয়েছেন৷ আগামিকাল অর্থাৎ মঙ্গলবার কৃষি আন্দোলনকে কেন্দ্র করে যে কৃষক সংগঠনগুলি ভারত বনধের ডাক দিয়েছে, তাদের পাশে রয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস৷ কৃষি আইন প্রত্যাহরের দাবি আগেই জানিয়েছিলেন মমতা৷ জিনিসের মূল্য় বৃদ্ধির জন্য কেন্দ্রীয় সরকারকে এদিনও একহাত নেন তিনি৷ কৃষি, বেসরকারিকরণ-সহ কেন্দ্রীয় সরকারের একাধিক নীতি নিয়ে সোমবার একের পর এক তোপ দেগেছেন তিনি। তৃণমূলনেত্রীর নিশানায় মুখ্যত বিজেপি থাকলেও, রাজ্যের আরও দুই বিরোধী দল সিপিএম এবং কংগ্রেসকে গেরুয়াশিবিরের মদতদাতা বলেও বিঁধেছেন তিনি আজকের জনসভায়।
মমতার আশ্বাস, পূর্ব মেদিনীপুরে তাজপুর বন্দর, বীরভূমে দেউচা-পাচামির মতো কয়লা প্রকল্পে বিপুল কর্মসংস্থান হবে। তার সুফল জঙ্গলমহলও পাবে বলে জানিয়েছেন মমতা। সোমবার মেদিনীপুর কলেজ মাঠে মমতার সভা ছিল কানায় কানায় পূর্ণ। এছাড়াও উল্লেখ্য, আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে জঙ্গলমহলে গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র হয়ে উঠতে পারেন ছত্রধর মাহাতো তা এদিনের জনসভায় ছত্রধরের উপস্থিতি আরও একবার মনে করিয়ে দিল।

Swarnali Goswami 07.12.2020

শিলিগুড়িতে বিজেপির উত্তরকন্যা অভিযানে তুলকালাম কান্ড ঘটল শিলিগুড়িতে। মৃত্যু হল এক বিজেপি কর্মীর। তিনবাত্তি মোড় ও জলপাইগুড়ি মোড় থেকে গেরুয়াশিবিরের দুই মিছিল বেরিয়েছিল উত্তরকন্যা অভিযানে। দুপুর একটা নাগাদ দুই মোড় থেকেই উত্তরকন্যার দিকে মিছিল এগোতে থাকে। ফুলবাড়ির মিছিলের নেতৃত্বে ছিলেন দিলীপ ঘোষ, সায়ন্তন বসু, জয়ন্ত রায়রা। দিলীপ ঘোষকে আটকে দেয় পুলিশ। মিছিলের শুরু থেকেই উত্তেজনা ছিল চরমে। মিছিল আটকাতে ব্যারিকেড করে রেখেছিল পুলিশ। কিন্তু সেই ব্যারিকেড ভেঙে এগোনোর চেষ্টা করে মিছিল। বাধা দেয় পুলিশ। ছোড়া হয় টিয়ার গ্যাসের সেল। এরই মাঝে এক বিজেপি কর্মীর আঘাত লেগেছে বলে জানা যায়।
গজলডোবার বাসিন্দা উলেন রায়(৫০) নাম ওই বিজেপি কর্মীর পেটের উপরের অংশে পেলেটের আঘাত রয়েছে বলে প্রাথমিক রিপোর্টে জানিয়েছেন চিকিৎসক। তবে ময়নাতদন্তেই মৃত্যুর কারণ স্পষ্ট হবে। যদিও পুলিশের গুলিতে কিংবা লাঠির আঘাতে ওই বিজেপি কর্মীর মৃত্যুর অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছে রাজ্য পুলিশ। এদিকে ওই কর্মীর ছবি দিয়ে পুলিশের রাবার বুলেটে মৃত্যু হয়েছে বলে ট্যুইট করেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক কৈলাস বিজয়বর্গীয়। অপরদিকে, দিলীপ ঘোষ দাবি করেছেন, পুলিশ ছাদ থেকে আন্দোলনকারীদের উদ্দেশে বোমা ছুড়েছে। ঘণ্টা তিনেক পুলিশের সঙ্গে বিজেপি কর্মী-সমর্থকদের ধস্তাধস্তি হয়।কাঁদানে গ্যাসের শেলে অসুস্থ হয়ে পড়েন কয়েকজন বিজেপি কর্মী। মহারাজা হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁদের। আগে থেকেই শহরের প্রায় সব কটি প্রবেশদ্বার বন্ধ করে দেয় পুলিশ। তিনবাত্তি মোড়ে জারি হয় ১৪৪ ধারা। কাঁদানে গ্যাস, জলকামান নিয়ে আগে থেকেই প্রস্তুত ছিল পুলিশ। ডুয়ার্স-তরাইয়ের বিভিন্ন রাস্তায় ছিল নাকা চেকিং।পুলিশের তরফে এদিন ঘোষণা করা হয়েছিল, ওই এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি হয়েছে। জমায়েতকে ছত্রভঙ্গ হওয়ার নির্দেশও দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু তাতে কর্ণপাত না করে এগিয়ে গিয়েছিল যুব মোর্চা। এরপরই বিক্ষোভকারীদের হটাতে প্রথমে টিয়ার গ্যাস ছোঁড়ে পুলিশ। পালটা ব্যারিকেড ভেঙে এগোনোর চেষ্টা করেন বিজেপি কর্মীরা। জলকামানও ছোড়া হয় পুলিশের তরফে। নৌকাঘাট মোড় থেকে পুলিশকে লক্ষ্য করে উড়ে আসে ইট, পাথর, কাচের বোতল। ফের পুলিশ কাঁদানে গ্যাসের শেল ছোড়ে। বিক্ষোভকারীদের হঠাতে লাঠি চালায় পুলিশ। কয়েকজনকে আটক করা হয়।
এই প্রসঙ্গে তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায়ের দাবি, ‘‘বিজেপি কর্মীরা অশান্তি সৃষ্টির চেষ্টা করেছেন। তবে সেই তুলনায় সংযম দেখিয়েছে শিলিগুড়ির পুলিশ।’’ পুলিশের তরফে ট্যুইট করে বলা হয়েছে, ‘আজকে শিলিগুড়িতে একটি রাজনৈতিক দলের কর্মসূচি ঘিরে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটে। তাঁরা সরকারি সম্পত্তিতে ভাঙচুর চালায়। পুলিশের তরফে কোনও গুলি-লাঠিচার্জ করা হয়নি।’ এদিকে কর্মী মৃত্যুর প্রতিবাদে মঙ্গলবার ১২ ঘণ্টার উত্তরবঙ্গ বনধের ডাক দিয়েছে বিজেপি।

Swarnali Goswami 07.12.2020

সমস্ত জল্পনায় জল ঢলে দিলেন শুভেন্দু। রামনগরের মেগা শো থেকেও নিজের অবস্থান স্পষ্ট না করে বরঞ্চ রাজনৈতিক ভবিষ্যৎ নিয়ে জল্পনা বাড়িয়ে বললেন, ‘আমি এখনও একটি দলের প্রাথমিক সদস্য৷ আমিও দল ছাড়িনি৷ মুখ্যমন্ত্রীও আমাকে তাড়াননি৷’ এদিন তিনি বলেন, ‘১৯৯৬ সাল থেকে আমি সমবায় আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত। পয়সার জন্য নয়, মানুষের কাজ করা আমার নেশা।’ উল্লেখ্য, সমবায় সপ্তাহ পালন উপলক্ষেই বৃহস্পতিবার পূর্ব মেদিনীপুরের রামনগরে আয়োজন করা হয়েছিল বিশাল জনসভার। শুভেন্দু দাবি করেন, এই সভা সমবায়ীদের মেগা শো৷ সংবাদমাধ্যম এই সভা নিয়ে অহেতুক হাইপ তৈরি করেছে৷ তিনি আরও বলেন, ‘আমি যে পদগুলিতে আছি, সব নির্বাচিত, মনোনীত নয়৷’ শুভেন্দুর কটাক্ষ, ‘এই মঞ্চে আমি রাজনৈতিক কথা বলব বলে মনে করেছিলেন অনেকে। তাঁদের ছড়ানো খবরের দায়িত্ব তাদেরই নিতে হবে। আমি নেব না।’
আপাতত জনসংযোগের উপরেই জোর দিচ্ছেন শুভেন্দু৷ তিনি এদিন সভায় বলেন, ‘হলদিয়ায় ছটপুজোর অনুষ্ঠানে যাব, ৫ হাজার হিন্দিভাষী ওখানে আছেন। নন্দকুমার থেকে পুরুলিয়া অবধি জগদ্ধাত্রী পুজোর উদ্বোধন করব। সবার সঙ্গে আমার আত্মিক পরিচয় রয়েছে।’

Swarnali Goswami 19.11.2020

২০২১ সালের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের কোনও টেস্ট পরীক্ষা দিতে হবে না। বুধবার রাজ্য মন্ত্রিসভার বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এদিন মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক ছাত্র-ছাত্রীদের টেস্ট পরীক্ষা নিয়ে বড় ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সংক্রমণের পরিপ্রেক্ষিতে আগামী ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত রাজ্যের সমস্ত স্কুল-কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে সরকার। আর ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত স্কুল বন্ধ থাকছে।
ফলে এবার টেস্ট পরীক্ষা হবে কি না, তা নিয়ে ধোঁয়াশা সৃষ্টি হয়েছিল। মূলত মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা কতটা সিলেবাসের উপর হবে তা এখনও চূড়ান্ত করতে পারিনি স্কুল শিক্ষা দফতর। সে ক্ষেত্রে সিলেবাস চূড়ান্ত করতে না পারলে টেস্ট পরীক্ষায় কার্যত নেওয়া যাবে না। আর তাই টেস্ট পরীক্ষা না নেওয়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেই মনে করছে শিক্ষকদের একাংশ। এবার আবার জল্পনা শুরু হয়েছে মাধ্যমিক-উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার যথাযথ সময় নিয়ে। যদিও মধ্যশিক্ষা পর্ষদ ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ কে ইতিমধ্যেই যাবতীয় প্রস্তুতি সেরে রাখতে বলা হয়েছে স্কুল শিক্ষা দফতরের তরফে। সামনে বিধানসভা ভোটের জন্য পরীক্ষার সময় নিয়ে সমস্যার সৃষ্টি হতে পারে। সেক্ষেত্রে একই সঙ্গে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা একদিন অন্তর নেওয়া, পরীক্ষা কেন্দ্রের সংখ্যা বৃদ্ধি এবং আলাদা আলাদা কেন্দ্রে একই দিনে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক নেওয়া যায় কি না, তা ভেবে দেখার জন্য স্টেট ফোরাম অফ হেডমাস্টারস্ অ্যান্ড হেডমিস্ট্রেসস্-এর তরফে শিক্ষা দফতরের কাছে আবেদন করা হয়েছে।

Swarnali Goswami 11.11.2020

অত্যাবশ্যকীয় পণ্যসামগ্রীর অগ্নিমূল্য নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে এই বিষয়ে সরাসরি চিঠি লিখলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা। সাধারণ মানুষের দুর্দশার কথা ভাবতে মোদীকে অনুরোধ জানান মুখ্যমন্ত্রী। বৃহস্পতিবার নবান্নে প্রশাসনিক পর্যালোচনা বৈঠকে তাঁর অভিযোগ, কেন্দ্র মূল্যবৃদ্ধি রোধে আইনি নিয়ন্ত্রণের যাবতীয় ক্ষমতা রাজ্যের থেকে কেড়ে নিজেরা হাত গুটিয়ে বসে আছে। নয়া কৃষি আইনে আর অত্যাবশ্যকীয় পণ্য নয় আলু–পেঁয়াজ ৷ ফলে আকাশছোঁয়া দাম হলেও তা নিয়ন্ত্রণে কোনও ক্ষমতা নেই রাজ্যের হাতে৷ তাঁর যুক্তি, হয় কেন্দ্র অত্যাবশ্যকীয় সামগ্রীর মূল্যবৃদ্ধি নিজেরা নিয়ন্ত্রণ করুক, নয়তো রাজ্যের হাতে পুরোনো আইনি ক্ষমতা ফিরিয়ে দিক। চিঠিতে তিনি উল্লেখ করেছেন, অনেক অসাধু ব্যবসায়ীরা বেশি করে আলু-পেঁয়াজ মজুত করে কৃত্রিমভাবে এই সব প্রয়োজনীয় জিনিসের অভাব তৈরি করছেন। কিন্তু রাজ্যের হাতে কোনও ক্ষমতাই এখন কেন্দ্র রাখেনি তা নিয়ন্ত্রণ করার। সোমবার সকালে শহরের বিভিন্ন বাজারে টাস্ক ফোর্স ও এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চ ঘুরে, আলু-পেঁয়াজের দোকানে দোকানে গিয়ে দাম নিয়ে হুঁশিয়ারি দিয়েছে কিন্তু তাতে তেমন লাভ হবে বলে মনে হয়না। পেঁয়াজের দাম নিয়ন্ত্রণে আনতে পদক্ষেপও করেছে নবান্ন। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে জারি হয়েছে সরকারি নির্দেশিকা। নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, পাইকারি ব্যবসায়ীরা ২৫ মেট্রিক টন এবং খুচরো ব্যবসায়ীরা ২ মেট্রিক টনের বেশি পেঁয়াজ মজুত করতে পারবেন না। ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এই নির্দেশ বলবৎ থাকবে। তবে উল্লেখনীয়ভাবে আলুর দাম কিছুটা নামতে শুরু করেছে বলে ব্যবসায়ীদের দাবি। পাইকারি বাজারে প্রতি কুইন্টালে আলুর দাম কমেছে ১০০ টাকা। কালীপুজোর পর আলুর দাম আরও নিয়ন্ত্রণে আসবে বলে দাবি হিমঘর মালিকদেরও।

Swarnali Goswami 09.11.2020

আগামী বিধানসভা ভোটে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে সমর্থন করবেন রাষ্ট্রদ্রোহীতার মামলায় ফেরার গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার নেতা বিমল গুরুং। উৎসবের মরশুমেই জোর ধাক্কা রাজ্যের গেরুয়া শিবিরে৷ ৩ বছর অজ্ঞাতবাসে থাকার পর বুধবার প্রকাশ্যে এসে সাংবাদিক সম্মেলন করে সরাসরি এনডিএ ছাড়ার ঘোষণা করলেন গোর্খা জনমুক্তি মোর্চা ‘সুপ্রিমো’৷ এখানেই শেষ নয়, আরও এক পা এগিয়ে গুরুং এও বলেন, ‘২০২১-এ তৃণমূলের সঙ্গে জোট বেঁধে লড়ব ৷ মমতাকেই ফের মুখ্যমন্ত্রী দেখতে চাই ৷’ গুরুং-এর বক্তব্য, ‘বাংলার শাসন দেখলাম, কেন্দ্রের শাসন দেখলাম। কেন্দ্রে প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী কোনও কথাই রাখেননি। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কিন্তু যতটুকু বলেছেন, করেছেন।’ সেই সূত্রেই ২০২৪-এর লোকসভা ভোটে যাঁরা গোর্খাল্যান্ড ইস্যু সমর্থন করবে, তাঁদের আবার সমর্থন করবেন বলে দাবি তাঁর। গুরুং-এর বিরুদ্ধে রয়েছে রাষ্ট্রদ্রোহিতার মামলা। রাজ্য পুলিশের কাছে তিনি বহুদিন ধরে মোস্ট ওয়ান্টেড। নাটকীয়ভাবে পঞ্চমীর সন্ধ্যায় সল্টলেকের গোর্খা ভবনের সামনে আচমকাই উদয় মোর্চা সভাপতি বিমল গুরুয়ের ৷ সঙ্গে গেরুয়া বসন পরিহিত এক ব্যক্তি। কিন্তু গোর্খা ভবনের ভিতরে ঢুকতে দেওয়া হয়নি তাঁকে। বিমলের আসার কিছুক্ষণ আগেই গোর্খা ভবনের গেটে তালা পড়ে যায়। এরপরই সন্ধ্যা সাড়ে ছটায় শহরের একটি হোটেলে প্রেস কনফারেন্স করে ‘বোমা’ ফাটালেন তিনি। বিমল গুরুঙ্গয়ের তৃণমূলকে সমর্থন ঘোষণা নতুন করে পারদ চড়াল পাহাড়ে।

Swarnali Goswami 21.10.2020

পুজো কমিটিগুলিকে রাজ্য সরকারের অনুদান দেওয়ার বিরুদ্ধে হাইকোর্টে যে মামলা করা হয়েছিল, সেই মামলার রায় ঘোষণা হল শুক্রবার। সেই রায়ে আদালতের তরফ থেকে স্পষ্ট বলা হয়েছে, কোনও পুজো কমিটি অনুদানের টাকা বিনোদনের জন্য খরচ করতে পারবে না। আদালত বলেছে, সরকারি টাকা বিনোদনে খরচ করা যায় না। টাকা খরচের পূর্ণাঙ্গ হিসেবও রাজ্য সরকারকে হলফনামা আকারে জমা দিতে নির্দেশ দিয়েছে আদালত। মামলার অন্তর্বর্তী নির্দেশ দেয় বিচারপতি সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায় এবং বিচারপতি অরিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডিভিশন বেঞ্চ। বলা হয়েছে ২৫ শতাংশ টাকা পুলিসের সঙ্গে জনগণের সম্পর্ক দৃঢ় করার জন্য ব্যবহার করা যেতে পারে, কিন্তু বাকি ৭৫ শতাংশ টাকা খরচ করতে হবে মাস্ক-স্যানিটাইজার কেনার জন্য। এ দিনের নির্দেশ নিয়ে যাতে কোনও ধোঁয়াশা না থাকে, তাই এটা বিস্তারিতভাবে লিফলেটে ছাপিয়ে পুজো কমিটিগুলিকে দেবে পুলিশ ৷ এই প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ হল কি না তা ডিজিপি হলফনামা দিয়ে আদালতে জানাবেন ৷ এর আগে ২০১৮ সালেও পুজো কমিটিগুলিকে অনুদান দেওয়া নিয়ে মামলা হয়। কলকাতা হাইকোর্ট হয়ে জল গড়ায় সুপ্রিম কোর্টে। সেই মামলার এখনও নিষ্পত্তি হয়নি। এ প্রসঙ্গে হাইকোর্ট এই দিন বলে, ‘এবারের মামলায় এমন নির্দেশ দেওয়া হবে যাতে বারবার অনুদান নিয়ে আদালতে টানাহ্যাঁচড়া না হয় ৷’ মামলার পরবর্তী শুনানি হবে পুজোর ছুটির পরে।

Swarnali Goswami 16.10.2020

পুজোর সময় বাংলায় আসছেন না অমিত শাহ। তাঁর বদলে উত্তরবঙ্গের শিলিগুড়িতে সাংগঠনিক বৈঠক করবেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা। এদিন এমনটাই জানিয়েছেন রাজ্য বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু। আগামী ১৭ অক্টোবর বাংলায় আসছেন বিজেপি প্রেসিডেন্ট জে পি নাড্ডা। সূত্রের খবর, পুজো মিটলে বাংলায় আসতে পারেন অমিত শাহ। কিন্তু পরিকল্পনা বদলাবে। আগের ব্লু প্রিন্টে অগ্রাধিকার পেয়েছিল উত্তর। কিন্তু পুজোর পরে এলে দক্ষিণবঙ্গকেই পাখির চোখ করবেন শাহ। তবে, কী কারণে পুজোর আগে তিনি আসছেন না, তা এখনও জানানো হয়নি। সূত্রের খবর, ভোটের মূল দায়িত্ব মুকুলকেই দিতে চাইছেন অমিত শাহ। তবে রাশ রাখবেন নিজের হাতেই। সূত্রের খবর, কলকাতায় একটি দুর্গাপূজারও আয়োজন করবে বিজেপি। সেখান থেকেই বোধনে নরেন্দ্র মোদির বক্তব্য লাইভ স্ট্রিমিং করানো হবে। যদিও রাজ্য বিজেপির তরফে সরাসরি ওই পুজোর সঙ্গে যুক্ত থাকার কথা না বলা হলেও অধুনা বিজেপি নেতা সব্যসাচী দত্ত ওই পুজোর নেপথ্যে রয়েছেন বলেই খবর।

Swarnali Goswami 14.10.2020

রাজ্যের স্বাস্থ্যসাথী প্রকল্পের আওতায় এল ভেলোর সিএমসি। অর্থাৎ স্বাস্থ্যসাথীর আওতায় থাকা যে কেউ এই প্রকল্পের সুবিধে পাবেন। সূত্রের খবর গত ৬ অক্টোবর থেকে এই প্রকল্পে নাম নথিভুক্ত করার কাজ চলছে। বর্তমানে ট্রেন-যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন থাকায় উপভোক্তারা যাবেন পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হলেই। তবে নাম নথিভুক্তকরণের কাজ চলবে এখন। শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে ভোগান্তিতে বহু বাঙালিই কলকাতার থেকে বেশি ভরসা করেন ভেলোরকে। সেই দিক চিন্তা করেই এই সিদ্ধান্ত। সূত্রের খবর রাজ্য শুধু ভেলোর নয়, রাজ্য গাঁটছড়া বাঁধতে চাইছে দিল্লি এমসের সঙ্গেও। চেষ্টা করা হচ্ছে সেখানেও স্বাস্থ্যসাথী আওতাভুক্তরা যাতে নিখরচায় চিকিৎসা করাতে পারেন ভবিষ্য়তে।

Swarnali Goswami 13.10.2020

এদিনের প্রশাসনিক বৈঠক থেকে জঙ্গলমহলের আদিবাসীদের জন্য বড় ঘোষণা করলেন মমতা। মুখ্যমন্ত্রী জানালেন, হাতির হানায় কেউ মারা গেলে সেই ব্যক্তির পরিবারের এক জনকে হোমগার্ডের চাকরি দেওয়া হবে। এদিনই হাতির হামলায় মৃত ওই জেলার একজনের পরিবারের সদস্যের হাতে চাকরির নিয়োগপত্রও তুলে দেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এছাড়াও এদিন ‘কর্ণগড় মন্দিরের সংস্কারের জন্য ১ কোটি টাকা ও খড়গপুর ইন্ডাস্ট্রিয়াল এস্টেটে ৫০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করেন তিনি। পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘‘কেন্দ্র যদি পশ্চিমবঙ্গে আয়ুষ্মান প্রকল্প রূপায়ন করতে চায়৷ তাতে আমার কোনও আপত্তি নেই ৷ তবে সেক্ষেত্রে প্রকল্পে কেন্দ্র ১০০% দিলে তবেই আপত্তি নেই মুখ্যমন্ত্রীর তাও উল্লেখ করেন তিনি। একইসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর এদিন ঘোষণা করলেন, তফশিলিদের কেউ ৬০ বছর হলেই পেনশন পাবেন। আজ, মঙ্গলবার খড়্গপুরের প্রশাসনিক বৈঠক শেষ করে ঝাড়গ্রামে যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী। আগামিকাল, ৭ তারিখ প্রশাসনিক বৈঠক শেষ করে ঝাড়গ্রামেই থাকবেন তিনি। ঝাড়গ্রাম থেকে কলকাতা রওনা দেবেন ৮ তারিখ বৃহস্পতিবার৷

Swarnali Goswami 06.10.2020

রাজ্যের তফশিলি জাতি-উপজাতির পড়ুয়াদের জন্য রাজ্য সরকারের তরফে লোনের ব্যবস্থার ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী। সোমবার কৃতি ছাত্রছাত্রীদের ভার্চুয়াল সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একথা জানান। সোমবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে স্পষ্ট করে বলে দিলেন তিনি নয়া শিক্ষানীতি মানেন না। তিনি বলেন, নতুন শিক্ষানীতিতে কেন্দ্র মেধাতালিকাকেই বাদ দিয়ে দিচ্ছে। এটা ঠিক নয়। তাঁর কথায়, ‘মেধাতালিকা যদি না থাকে, তাহলে কেউ নিজেদের ফলাফল নিয়ে গর্ববোধ করবে কীভাবে?
এর পাশাপাশি তিনি এও জানান, উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে যদি কোনও পড়ুয়ার কোনও সমস্যা হয়, তারা অবশ্যই যেন স্থানীয় প্রশাসনের সঙ্গে যোগাযোগ করে। তারা সব রকম সাহায্য পাবে। তিনি বলেন, ‘আমাদের রাজ্যের এসসি-এসটি ছেলেমেয়েরা পড়াশোনার জন্য ১০ লাখ টাকা এডুকেশন লোন নিতে পারবে। সেটাও খুব কম সুদে।’ সেইসঙ্গেই তিনি জানান, বাইরে পড়তে গেলে ২০ লাখ টাকা ঋণ পাবে ছাত্রছাত্রীরা।

Swarnali Goswami 05.10.2020

পূর্ব মেদিনীপুরে দীঘার কাছে দাদন পাত্রবাড়ে ২০০ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন সৌর উদ্যান প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করলেন বিদ্যুৎমন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়। এই প্রকল্পের মোট খরচ পড়বে ৭৫০ কোটি টাকা। যার মধ্যে জার্মানির কেএফডব্লিউ ব্যাংক ৬০০ কোটি টাকা ঋণ দিয়েছে। যা ১৫ বছরে নামমাত্র সুদের হারে পরিশোধ করতে হবে বলে জানান বিদ্যুৎমন্ত্রী। বাকি ১৫০ কোটি টাকা দিচ্ছে রাজ্য সরকার। প্রথম ৩ বছর জার্মানির ওই ব্যাংককে কোনও অর্থ দিতে হবে না। প্রকল্পটি পূর্ব ভারতের সবথেকে বড় সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্প হতে চলেছে বলেও দাবি করেন বিদ্যুৎ মন্ত্রী। প্রাথমিকভাবে ১২৫ মেগাওয়াট ক্ষমতা সম্পন্ন প্রকল্প গড়ে তোলা হবে,পরবর্তী সময়ে আরও ৭৫ মেগাওয়াট সংযুক্ত করা হবে। পরিবেশবান্ধব এই প্রকল্পের মাধ্যমে উৎপন্ন বিদ্যুৎ গ্রিডে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়। সেই জন্য মন্দারমণিতে পশ্চিমবঙ্গ বিদ্যুৎ সংবহন নিগমের উদ্যোগে একটি ১৩২ কেভি সাবস্টেশন তৈরি করা হচ্ছে। পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিদ্যুৎ বন্টন নিগমের অধীনে এই প্রকল্পটি গড়ে তোলা হচ্ছে।

Swarnali Goswami 30.09.2020

বুধবার উত্তরবঙ্গের দ্বিতীয় প্রশাসনিক বৈঠক থেকে মুখ্যমন্ত্রী অভিযোগ করলেন, ‘বাংলায় মানসিক সন্ত্রাস চালানো হচ্ছে। টাকা দিয়ে হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ খুলে ভুয়ো খবর ছড়ানো হচ্ছে। মানুষকে বিভ্রান্ত করছে। মিথ্যা কথা লিখে দাঙ্গা ছড়িয়ে দিচ্ছে।’ তিনি যে বিজেপি কেই নিশানা করছেন, তা তাঁর বলার ধরনেই প্রকাশ পেয়েছে। হোয়াটসঅ্যাপ বা সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে যে অশান্তি ছড়ানো হচ্ছে, তা রুখতে প্রশাসনিক কর্তাদেরও সতর্ক থাকতে বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘কোনও ভুয়ো খবর রটলে সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নিতে হবে। নইলে বড় ঘটনা ঘটে যেতে পারে। আইসি’রা খেয়াল রাখুন সবসময়।’ উল্লেখ্য, মঙ্গলবার সোশ্যাল মিডিয়ায় রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে অপপ্রচার এবং উস্কানি রুখতে ব্লক পিছু দু’জন করে কর্মী নিয়োগ করা উচিত বলে ভাবী মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে জানান মুখ্যমন্ত্রী। এছাড়াও মুখ্যমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন, সরকারি উন্নয়নকে প্রচারে আনার জন্য পরিকল্পনা তৈরি করতে।

Swarnali Goswami 30.09.2020

জেলাশাসক, মহকুমাশাসক এবং বিডিওদের নিয়ে উত্তরবঙ্গের প্রশাসনিক বৈঠকের প্রথম দিন উন্নয়নের ওপরেই জোর দিলেন মুখ্যমন্ত্রী। করোনা আবহে এই প্রথম শিলিগুড়িতে উত্তরবঙ্গের উন্নয়নে প্রশাসনিক বৈঠকে বসলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মমতা শেষবার শিলিগুড়ি এসেছিলেন জানুয়ারিতে। মঙ্গলবার তিনি বৈঠক করলেন মূলত জলপাইগুড়ি ও আলিপুরদুয়ারের জেলা প্রশাসনের কর্তাদের সঙ্গে। এছাড়াও ভার্চুয়াল বৈঠকে অন্যান্যরা যোগ দিয়েছিলেন। বুধবার বৈঠকে করবেন দার্জিলিং ও কালিম্পং জেলার প্রশাসনিক কর্তাদের সঙ্গে। এই প্রশাসনিক বৈঠকে যোগ দেওয়ার আগে সকলকেই র‍্যাপিড কোভিড টেস্ট করিয়ে রিপোর্ট নিয়ে আসতে হয়েছে। আগামীকালের বৈঠকে জিটিএ চেয়ারম্যান অনীত থাপা, মোর্চা নেতা বিনয় তামাং এবং জিটিএ কর্তারাও যোগ দেবেন। আগামী এপ্রিল-মে মাসে রাজ্যে বিধানসভা ভোট। সেই অর্থে হাতে মাত্র ছ’ মাস সময়। তাই মুখ্যমন্ত্রীর এ বারের উত্তরবঙ্গ সফর রাজনৈতিক ভাবে বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।
মুখ্যমন্ত্রী এদিন বলেন,পুজোর সময় করোনা নিয়ে বিশেষভাবে সতর্ক থাকতে হবে। তিনি বলেন, ‘কোভিড যোদ্ধাদের জন্য আমি গর্বিত। তাঁদের জন্যই উত্তরবঙ্গে কোভিড নিয়ন্ত্রণে আছে।’ তবে তিনি আফসোস করে বলেন, ‘উত্তরবঙ্গে প্রচুর কাজ হয়েছে। অথচ দাম পাইনি।’ যদিও উত্তরবঙ্গে উন্নয়নের কাজ যে তিনি চালিয়ে যাবেন, তা স্পষ্ট করে দেন মুখ্যমন্ত্রী। কৃষিবিল নিয়েও কেন্দ্রীয় সরকারকে বিঁধেছেন তিনি এদিন। এই বৈঠকগুলোয় শুধুমাত্র সরকারি প্রকল্পের অগ্রগতি ও গ্রামীণ কর্মসংস্থান নিয়েই আলোচনা করা হচ্ছে। আজ কেএলও জঙ্গিদের মূলস্রোতে ফেরানোর জন্য ১৯০কে হোমগার্ডের চাকরির নিয়োগপত্র দেওয়া হল। আগামী ১ তারিখ থেকে তাঁরা বিভিন্ন জেলার পুলিশ বিভাগে হোমগার্ড হিসেবে চাকরিতে জয়েন করবেন।

Swarnali Goswami 29.09.2020

পশ্চিমবঙ্গের নতুন মুখ্যসচিব পদে নিয়োজিত হলেন আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার সকালে ট্যুইট করে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজেই এই কথা জানিয়েছেন। বর্তমান মুখ্যসচিব রাজীব সিনহা আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর অবসর নিচ্ছেন। এছাড়া আরও রদবদল করা হয়েছে রাজ্য প্রশাসনে। সোমবার নবান্নের তরফে এই বিষয়ে একটি বিজ্ঞপ্তিও জারি করা হয়। সেখানে লেখা হয়, বর্তমান মুখ্যসচিব রাজীব সিনহা আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর অবসর নিচ্ছেন। তাঁর জায়গায় রাজ্যের মুখ্যসচিবের দায়িত্ব পাচ্ছেন বর্তমান স্বরাষ্ট্রসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। বর্তমান অর্থ দফতরের সচিব হরেকৃষ্ণ দ্বিবেদিকে রাজ্যের নতুন স্বরাষ্ট্রসচিব নিযুক্ত করা হল। অন্যদিকে অর্থ দফতরের সচিবের দায়িত্ব পেলেন মনোজ পন্থ। আগামী ১ অক্টোবর থেকে দায়িত্ব নেবেন তিনজন। রাজ্য প্রশাসনের এই রদবদলে অর্থ দফতরের সচিব এইচ কে দ্বিবেদি স্বরাষ্ট্রসচিবের দায়িত্বে এলেন। তাঁর জায়গায় অর্থ সচিব পদে এলেন মনোজ পন্থ।

Swarnali Goswami

বৃহস্পতিবার নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে পুজো কমিটির কর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। করোনা পরিস্থিতিতে পুজোর আয়োজন সুষ্ঠভাবে সম্পন্নের জন্য তিনি প্রত্যেক পুজো কমিটিকে ৫০ হাজার টাকা করে দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী ৷
তিনি বলেন, চলতি বছর মহামারী এবং করোনা রুখতে লকডাউনের কারণে প্রভাব পড়েছে মানুষের আয়ে ৷ সেজন্য এবছর তেমনভাবে বিজ্ঞাপনও তুলতে পাবেন না পুজো কমিটিগুলি ৷ তাই সেই কথা ভেবেই রাজ্যসরকারের তরফে এই অনুদান৷ এছাড়াও তিনি জানান, তিনি জানান, এ বছর বিদ্যুতের ক্ষেত্রে প্রতিটি পুজো কমিটি ৫০ শতাংশ ছাড় পাবে। CESC এবং রাজ্য বিদ্যুৎ বণ্টন সংস্থা- উভয়ই এই ছাড় দেবে। পাশাপাশি দমকম এবং পুরসভাগুলি পুজো কমিটি গুলির থেকে কোনও ফি নেবে না বলেও মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেছেন। এবছর দুর্গাপুজোর জন্য পুজো কমিটিগুলির থেকে কোনও ট্যাক্স নেবে না পুরসভা এবং পঞ্চায়েত৷ এমনকী পুজো কমিটিগুলিকে দমকলকেও কোনও ফি দিতে হবে না বলে জানিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷
এদিন পরিসংখ্যান দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘৩৪৮৩৭ টি পুজো রয়েছে রাজ্য পুলিশের অধীনে। ২৫০৯ টি পুজো রয়েছে কলকাতা পুলিশের অধীনে এবং ১৭০৬ মহিলা পরিচালিত পুজো রয়েছে। সকলকেই বলব, পুজো করুন। শুধু একটু সাবধানে থাকুন।’

Swarnali Goswami 24.09.2020

দুর্গাপুজোর সময় এরাজ্যে কোনও NET পরীক্ষা হবে না৷ দীনেশ ত্রিবেদীকে পরীক্ষা পিছিয়ে দেওয়ার কথা জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী রমেশ পোখরিয়াল৷ এ বছর করোনা মহামারীর কারণে বাকি পরীক্ষাগুলির মতোই পিছিয়ে যায় নেট পরীক্ষাও৷ শেষ জারি হওয়া পরীক্ষা সূচি অনুযায়ী ২১, ২২ ও ২৩ অক্টোবর অর্থাৎ দুর্গাপুজোর পঞ্চমী, ষষ্ঠী ও সপ্তমীতে নেট পরীক্ষা হওয়ার কথা ঘোষণা করে কেন্দ্র৷ পুজোর মধ্যে এমন গুরুত্বপূর্ণ পরীক্ষার দিন ফেলা নিয়ে সরব হয় রাজ্য৷ পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় UGC-NET 2020 পরীক্ষার সূচি পরিবর্তনের আর্জি নিয়ে NTA-এ কে চিঠি দেন৷ বিষয়টি নিয়ে ট্যুইট করে ক্ষোভ প্রকাশ করেন সাংসদ অভিষেক বন্দ্যেপাধ্যায়ও৷ আজ তৃণমূল সাংসদ দীনেশ ত্রিবেদী সোমবার দুর্গাপুজোর সময় রাজ্যে নেট পরীক্ষা না রাখার আর্জি নিয়ে কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী রমেশ পোখরিয়ালের সঙ্গে দেখা করেন। কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী তাঁকে আশ্বস্ত করেছেন পুজোর সময় নেট পরীক্ষা নেওয়া হবে না। একইসঙ্গে এও জানিয়েছেন পরীক্ষার পরিবর্তিত সূচি তৈরি করে তা পরে জানিয়ে দেবে ন্যাশনাল টেস্টিং এজেন্সি৷ তবে এ বিষয়ে এখনও সরকারিভাবে কিছু ঘোষণা করা হয়নি।

Swarnali Goswami 21.09.2020

মুখ্যমন্ত্রী মহালয়ার দিন প্রতিশ্রুতি দিলেন, দুর্গাপুজোর আনন্দ থেকে কোনও রাজ্যবাসী বঞ্চিত হবেন না। উল্লেখ্য, আজ বিশ্বকর্মা পুজো তথা মহালয়া একদিনে পড়েছে, সাধারণত এমনটা হয়না। অন্যান্যবার মহালয়ার ছয়দিন পরই পুজো চলে আসে, কিন্তু এবারে সেটা হচ্ছেনা। তবে পুজোর আমেজ এসে গেছে তাতে সন্দেহ নেই। কিন্তু এ বছর করোনা পরিস্থিতির কারণে আকাশে-বাতাসে যেন আনন্দের বদলে জায়গা করে নিয়েছে এক অজানা আতঙ্ক। তার সঙ্গে সামিল হয়েছিল এক ফেক হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজ। যার বিরুদ্ধে মুখ্যমন্ত্রী করা ভাষায় আক্রমণ করেছিলেন। তবে আজ এবারের দুর্গাপুজোর আনন্দ উদযাপন নিয়ে রীতিমতো প্রতিশ্রুতি দিলেন মুখ্যমন্ত্রী।

Swarnali Goswami 17.09.2020

পশ্চিমবঙ্গের করোনা হাসপাতালগুলিতে করোনা রোগীদের খাবারের রদবদল করা হল। জনপ্রতি খাবারের খরচও সরকারের তরফে ১৫০ টাকার জায়গায় বাড়িয়ে করা হল ১৭৫ টাকা। মঙ্গলবার এ বিষয়ে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে স্বাস্থ্য দফতর। শুধু তাই নয়, খাবারের মান ও পরিমাণও কত হবে, তাও নির্দিষ্ট করে দেওয়া হয়েছে। সেই কারণেই আগে যেখানে তিন বেলার খাবার অর্থাৎ ব্রেকফাস্ট, লাঞ্চ এবং ডিনারের ব্যবস্থা ছিল, সেখানে এখন থেকে সকালের চা এবং সন্ধ্যের টিফিনও যুক্ত হল করোনা রোগীদের খাবারের তালিকায়। খাবারের মেনু বেসরকারি হাসপাতালগুলির সঙ্গে টক্কর দেবে। কী নেই খাবারে? সকালে ব্রেকফাস্টে থাকছে চা এবং ২টো বিস্কুট। এরপর চলে আসবে ৪টে পাউরুটি, কলা, দুধ, ডিম। লাঞ্চে থাকছে ভাত, ডাল, সবজি, মাছ বা মাংস এবং দই। নিরামিষাশীদের জন্য থাকবে পনির বা সোয়াবিন অথবা মাশরুমের ব্যবস্থা। এতেই শেষ নয়, রাতের খাবারে থাকছে ভাত অথবা রুটি, ডাল, সবজি, মাছ বা মাংস। খাবারের তালিকার পাশাপাশি বেড়েছে পরিমানও। উল্লেখ্য, বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কথা বলে তবেই করোনা রোগীদের জন্যে নতুন করে খাবার বরাদ্দ করেছে রাজ্য সরকার।

Swarnali Goswami 15.09.2020

সোমবার মুখ্যমন্ত্রী নবান্নে ঘোষণা করেন, রাজ্যে দলিত সাহিত্য অ্যাকাডেমি গড়া হবে। নিম্নবর্গের জীবনযুদ্ধকে গ্রন্থিত করা এবং নিম্নবর্গের সাহিত্যকে একজায়গায় করার উদ্দেশ্যেই গড়ে তোলা হবে এই অ্যাকাডেমি। মুখ্যমন্ত্রী এই অ্যাকাডেমির দায়িত্ব দিতে চান মনোরঞ্জন ব্যাপারীকে। সম্প্রতি তিনি খবরে এসেছেন নিজের পেশা বদলানোর অনুরোধ মুখ্যমন্ত্রীকে জানিয়ে। ‘ইতিবৃত্তে চণ্ডাল জীবন’-এর মতো গ্রন্থের রচয়িতা মনোরঞ্জন ব্যাপারীর লেখনীকে সারা দেশ মান্যতা দিয়েছে। কিন্তু তার পরেও গত ২৩ বছরের গ্লানিময় জীবন থেকে অব্যহতি মেলেনি তাঁর। গত ২৪ অগাস্ট মনোরঞ্জনকে বদলি করা হয় আমতলার বিদ্যানগর পাবলিক লাইব্রেরিতে। ইতিমধ্যেই তিনি দায়িত্ব নিয়ে কাজ শুরু করে দিয়েছেন, তার মধ্যেই আরও গুরুদায়িত্ব। বাংলায় দলিক সাহিত্যের ধারা একই সঙ্গে সমৃদ্ধ এবং পুরনো। কিন্তু এতদিন সেই সাহিত্যকে আলাদা করে তুলে ধরার কোনও আয়োজন হয়নি। সূত্রের খবর এই ধারাকে বদলে দিতে চান মুখ্যমন্ত্রী। তিনি চান প্রান্তজনের কথা উঠে এসেছে যে সাহিত্যে, যে সাহিত্যের বিকাশ প্রান্তজনের কলমেই তা আরও আলোয় আসুক। আশা করা যায় মনোরঞ্জন ব্যাপারী এই দায়িত্ব যথেষ্ট গুরুত্ব সহকারে সম্পন্ন করবেন।

Swarnali Goswami 15.09.2020

শুক্রবার লকডাউনের দিন ভয়াবহ দুর্ঘটনা। দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল এক পুলিশ অফিসারের। বেহালার বাসিন্দা ওই অফিসারের পোস্টিং ছিল শিলিগুড়িতে। তাঁর পাশাপাশি মৃত্যু হয়েছে আরও দু জনের। দাঁড়িয়ে থাকা ১২ চাকার বালির লরির পিছনে ধাক্কা মারে একটি চার চাকার গাড়ি। ঘটনায় মৃত্যু হয় এক পুলিশ অফিসার সহ মোট তিনজনের। মৃত পুলিশ অফিসারের নাম দেবশ্রী চট্টোপাধ্যায়। তাঁর বাড়ি কলকাতার বেহালার পর্ণশ্রীতে। তিনি রাজ্য পুলিশের ১২ব্যাটেলিয়নের কম্যান্ডিং অফিসার ছিলেন। বাকি দু’জনের মধ্যে একজন হলেন দেবশ্রীর দেহরক্ষী ও একজন গাড়ির চালক। তাঁদের দু’জনের এখনও পরিচয় জানা যায়নি। কলকাতা পুলিশের প্রথম মহিলা ওসি ছিলেন দেবশ্রী চট্টোপাধ্যায়। ২০১০ সালে উত্তর বন্দর থানায় ওসি হন তিনি। শুক্রবার সকাল ৬টা ১০-এ কলকাতার দিকে যাওয়ার পথে নিয়ন্ত্রণ হারায় তাঁদের গাড়ি। দাদপুর থানার হোদলা ব্রিজের কাছে দাঁড়িয়ে থাকা একটি বালির লরির পিছনে সজোরে ধাক্কা মারে গাড়িটি। রাস্তায় কর্মরত সিভিক ও পুলিশকর্মীরা তিনজনকে উদ্ধার করে চুঁচুড়া সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। তাঁদের পরীক্ষা-নীরিক্ষা করে চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন। অফিসারের প্রয়াণে শোকপ্রকাশ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Swarnali Goswami 11.09.2020

২০২০ র দুর্গাপুজো প্রত্যেক পুজোকমিটির কাছে একটি চ্যালেঞ্জ। শহর এবং শহরতলির একাধিক বারোয়ারি পুজো কমিটিগুলি ইতিমধ্যে পুজোর আয়োজন শুরু করে দিয়েছে। কোভিডের থাবা বাঁচিয়ে কীভাবে উত্‍সবের আনন্দে মানুষকে সামিল করা যায় তা নিয়েই চিন্তায় রয়েছেন পুজো কমিটির কর্তারা। Forum For Durgotsab-এর দেওয়া তথ্য অনুযায়ী শুধুমাত্র কলকাতা শহরজুড়েই প্রায় সাড়ে তিন হাজার দুর্গাপুজো হয়ে থাকে। এর থেকে সরাসরি এবং ঘুরপথে রোজগার হয় কয়েক লাখ মানুষের। কমিটিগুলি জানেন, পুজো সম্পূর্ণ বাতিল করে দিলে আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়বেন অসংখ্য মানুষ। ফোরামের সহ সম্পাদক তুষার সাহা জানিয়েছেন, ‘রাজ্যের প্রত্যন্ত গ্রাম থেকে প্রতিমাশিল্পী, ঢাকী, ডেকরেটররা আসেন। দুর্গাপুজোর রোজগার থেকে অন্তত পাঁচ মাস সংসার চলে যায় তাঁদের। দুর্গাপুজো বন্ধ হলে এঁরা অথৈ জলে পড়বেন।’ কাজেই পুজো বাতিলের কোনও প্রশ্নই উঠছে না। তবে বেশ কিছু পুজো কমিটি সামাজিক দূরত্ব এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে বাদ দিতে পারে বাড়তি কিছু আয়োজন।

Swarnali Goswami 10.09.2020

বুধবার ক্যাবিনেট বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হল কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে এবার রাজ্যে ১০০টি ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প পার্ক গঠনের উদ্যোগ নেবে রাজ্য সরকার। বর্তমানে রাজ্যে ১৪টি রাজ্য সরকার অনুমোদিত শিল্প পার্ক রয়েছে। শুধুমাত্র পার্ক গড়ে তোলা নয়। এই পার্কে গড়ে ওঠা বিভিন্ন শিল্প উদ্যোগকে উৎসাহিত করবে রাজ্যই। বলা হয়েছে এই ধরনের পার্কে মূল রাস্তা থেকে প্রজেক্ট পর্যন্ত দেড় কিলোমিটার রাস্তা তৈরি করে দেবে রাজ্য সরকার। বিনামূল্যে পাওয়ার স্টেশনও তৈরি করে দেওয়া হবে রাজ্য সরকারের তরফে। আগামী পাঁচ বছরের জন্য নতুন হারে ইনসেন্টিভ চালু রাখার সিদ্ধান্ত নিল সরকার। ইনসেন্টিভ নিয়ে রাজ্য ক্যাবিনেট সিদ্ধান্ত নিয়েছে, ২০ একর থেকে ৩৯ একর পর্যন্ত ২ কোটি টাকা, ৪০ একর থেকে ৫৯ একর পর্যন্ত ৪ কোটি টাকা, ৬০ একর থেকে ৭৯ একর পর্যন্ত ৬ কোটি টাকা, ৮০ একর থেকে ১০০ একর পর্যন্ত ৮ কোটি টাকা ও ১০০ একরের ঊর্ধ্বে ১০ কোটি টাকা ইনসেন্টিভ দেবে। বুধবার রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় এক সাংবাদিক সম্মেলনে বলেন, ‘এই সব ক্ষেত্রে ইতিমধ্যেই ব্যাপক কর্মসংস্থান হয়েছে। আরও সংস্থান বাড়াতেই ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোগে উৎসাহিত করতে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য।’

Swarnali Goswami 09.09.2020

ব্যাংক কর্মীদের সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে শনি ও রবিবার করে ব্যাংক বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল রাজ্য সরকার। রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাওয়ায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। কিন্তু বৃহস্পতিবার রাজ্যের অর্থদফতরের তরফ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, আগের মতোই শনিবারও খোলা থাকবে রাজ্যের সমস্ত ব্যাংক। লকডাউন ঘোষণা হওয়ার পরই ব্যাংকের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে শনি ও রবি দু’দিন করেই ব্যাংক বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। জরুরি পরিষেবার জন্য ব্যাংক খোলা রাখতেই হত আবার ব্যাংকের কর্মচারীদের সুরক্ষার দিকটাও ভেবে দেখার প্রয়োজন ছিল। একইসঙ্গে গ্রাহক পরিষেবার সময়ও কমিয়ে দেওয়া হয়েছিল। তবে আনলক-৪ পর্ব শুরু হওয়ার পর এবার সেই সিদ্ধান্তে বদল ঘটল। আগের মতোই শনিবারও পরিষেবা পাবেন গ্রাহকরা।

Swarnali Goswami 04.09.2020

কলকাতা, বিদ্যাসাগর, রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয় সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজ পড়ুয়ারা ফাইনাল ইয়ারের পরীক্ষা বাড়িতে বসেই দিতে পারবেন। তার জন্য সময়ও পাওয়া যাবে ২৪ ঘণ্টা। সেই খাতাও দেখবেন নিজের কলেজের শিক্ষকরা। প্রশ্ন উঠছে এই পদ্ধতি নিয়ে। বাড়িতে বই দেখে বা অন্যের সাহায্য নিয়েও পড়ুয়ারা পরীক্ষা দিতে পারেন। সেক্ষেত্রে মূল্যায়ন সঠিক হবে কীভাবে? অন্য দিকে, রাজ্য সরকার ও বিশ্ববিদ্যালয়ের বক্তব্য করোনা পরিস্থিতিতে এ ছাড়া পরীক্ষা নেওয়ার কোনও উপায় নেই। রাজ্য চেয়েছিল আগের পরীক্ষার নম্বরের ভিত্তিতেই ফাইনাল পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হবে। কিন্তু পরীক্ষা ছাড়া ডিগ্রি দেওয়ার প্রস্তাব মানতে চায়নি ইউজিসি এবং তাতে সায় দেয় সুপ্রিম কোর্টও। ফাইনাল ইয়ারের পরীক্ষা সর্বোচ্চ আদালতের এই সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে ১ থেকে ১৮ অক্টোবরের মধ্যে নিতে হবে, পরীক্ষার রেজাল্ট বের হবে ৩১ অক্টোবর, এমনটাই ঘোষণা করেন রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী। শিক্ষামন্ত্রী এও জানান যে, এই বছর প্রশ্নপত্র বাড়িতেই পাঠিয়ে দেওয়া হবে। ছাত্রছাত্রীরা উত্তর লিখে অনলাইনে জমা করতে পারবেন। মেল বা হোয়াটসঅ্যাপ করে প্রশ্নপত্র পাঠানো হবে। পরীক্ষার্থীদের বলা হবে, মেল বা হোয়াটসঅ্যাপ করে খাতা জমা দিতে। যারা সেটা পারবে না তারা হার্ড কপিও দিতে পারবে|

Swarnali Goswami 02.09.2020

প্রায় শেষের মুখে সেবক থেকে রংপো রেললাইনের কাজ। এই পাহাড়ি পথে ট্রেন চালানোর জন্য ১৪টি রেল টানেল প্রায় প্রস্তুত বলে জানাচ্ছেন নর্থ-ইস্ট ফ্রন্টিয়ার রেলওয়ে কর্তারা। সিকিম যেতে হলে উত্তরবঙ্গ থেকে সড়কপথ বা আকাশপথই এখনও পর্যন্ত ভরসা। তবে শিগগিরই এর সুরাহা হতে চলেছে। ২০২২-এর ডিসেম্বরের মধ্যেই এই রেলপথের কাজ সম্পূর্ণ হয়ে যাবে বলে আশা করা হচ্ছে। লকডাউনের কারণে গত মার্চ মাস থেকে কাজ কিছুদিন বন্ধ ছিল। তবে তারপরই ফের জোরকদমে শুরু হয়ে যায় কাজ। নর্থ-ইস্ট ফ্রন্টিয়ার রেলওয়ের সিপিআরও শুভানন ছন্দা আশা করছেন ডেডলাইনের মধ্যেই কাজ সম্পূর্ণ হয়ে যাবে। লকডাউনের কারনে বেশ কিছুদিন কাজ বন্ধ ছিল। তারপর সামাজিক দূরত্ব বিধি মেনে অল্প সংখ্যক কর্মী নিয়ে কাজ শুরু হয়। এবারে ডাবল শিফটে কাজ শুরু করার কথা ভাবছে রেল বলে জানান তিনি। ২০০৮-০৯ এ এই রেল প্রকল্প অনুমোদন পায়। কিন্তু এখানকার আবহাওয়া জনিত সমস্যার কারণে কাজ প্রায় আটকেই ছিল। ৪৪.৯৬ কিলোমিটার দীর্ঘ এই রেলপথের ৪১.৫৫ কিমি পথ পশ্চিমবঙ্গে পড়বে, অবশিষ্ট অংশ পড়বে সিকিমে। এই প্রকল্পের জন্য খরচ পড়বে ৮,৯০০ কোটি টাকা।

Swarnali Goswami 02.09.2020

প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের প্রয়াণে আগামিকাল অর্থাত্‍ মঙ্গলবার সরকারি ছুটি ঘোষণা করল রাজ্য সরকার৷ মঙ্গলবার সমস্ত রাজ্য সরকারি অফিস, প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছেন রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তিনি জানান, যদি প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির শেষকৃত্য আগামিকাল না হয়ে অন্য কোনও দিন হয়, তা হলে সেই দিন পূর্ণদিবস ছুটি থাকবে৷’ ১ সেপ্টেম্বর পুলিশ দিবস ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ স্বরাষ্ট্র সচিব জানান, সেক্ষেত্রে পয়লা সেপ্টেম্বরের পরিবর্তে আগামী ৮ সেপ্টেম্বর পুলিশ দিবস উদযাপন করা হবে৷
প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের প্রয়াণে দেশে সাত দিনের রাষ্ট্রীয় শোক পালনের কথা ঘোষণা করল কেন্দ্র৷ নিয়ম অনুযায়ী প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির মৃত্যুতে পালিত হবে সাতদিনের রাষ্ট্রীয় শোক৷ সারা দেশে সমস্ত সরকারি দফতরে ও সরকারিভাবে উত্তোলিত জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত থাকবে৷ এই কয়েকদিন সমস্ত সরকারি বিনোদনমূলক অনুষ্ঠান বাতিল৷

Swarnali Goswami 31.08.2020

পুজোর আগেই হয়ে যাবে রাজ্যের স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের ফাইনাল পরীক্ষা। বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের সঙ্গে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে যে, ১ থেকে ১৮ অক্টোবরের মধ্যেই হবে ফাইনাল ইয়ারের পরীক্ষা। ফলপ্রকাশও হয়ে যাবে ৩১ অক্টোবরের মধ্যেই।
গত ২৮ অগস্ট সুপ্রিম কোর্ট জানিয়ে দেয়, ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যেই হবে কলেজের অন্তিম বর্ষের পরীক্ষা। রাজ্যগুলি অন্তিম বর্ষের পরীক্ষা ছাড়া কোনও ছাত্রছাত্রীকে উত্তীর্ণ করতে পারবে না। তবে রাজ্যগুলি চাইলে পরীক্ষা পিছিয়ে দিতে পারে। ছাত্রছাত্রীদের ভবিষ্যতের কথা ভেবেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। পরীক্ষা ছাড়া ছাত্রছাত্রীদের ডিগ্রি দেওয়া যায় না। এ দিন ভিডিয়ো কনফারেন্সিং-এর মাধ্যমে এই রায় দেন বিচারপতি অশোক ভূষণ, আর সুভাষ রেড্ডি ও এম আর শাহের বেঞ্চ। তবে সেপ্টেম্বর মাসে রাজ্যে কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে কোনও পরীক্ষা হবে না বলে সে দিনই জানিয়ে দেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেই মতোই আজ রাজ্যের তরফ থেকে জানিয়ে দেওয়া হল সেপ্টেম্বরে নয়, অক্টোবরে হবে ফাইনাল পরীক্ষা।

Swarnali Goswami 31.08.2020

বিশ্বভারতীর জনসংযোগ আধিকারিক অনির্বাণ সরকার শুক্রবার একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানালেন পৌষমেলা বন্ধ করার কোনও ইচ্ছা বিশ্বভারতীর নেই। উল্লেখ্য, কর্মসমিতির বৈঠকের বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ সিদ্ধান্ত নিয়েছিল, পৌষমেলা হবে না। পৌষমেলা করতে অপারগ বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ। এদিন বিশ্বভারতীর কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সভাকক্ষ থেকে কর্মী, আধিকারিক, অধ্যাপকদের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠক করেন উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী। বৈঠকে পৌষমেলা সংক্রান্ত বিষয়ে দীর্ঘ আলোচনা হয়। বৈঠক শেষে বিশ্বভারতী তরফে একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়। সেখানেই বলা হয় পর্যাপ্ত সহযোগিতা ও পরিকাঠামো পেলেই পৌষমেলা হবে। উল্লেখ্য, একটি খোলা চিঠিতে উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরকে ‘বহিরাগত’ বলে উল্লেখ করায় রীতিমতো বিতর্ক তৈরি হয়েছিল। এদিন প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, “এই বক্তব্যের জন্য অনেকে দুঃখ পেয়েছেন তার জন্য আমরা দুঃখিত ও মর্মাহত।” রাষ্ট্রপতি মনোনীত বিশ্বভারতীর কর্মসমিতির প্রাক্তন সদস্য সুশোভন বন্দ্যোপাধ্যায় বৈঠক থেকে বেরিয়ে বলেন, “উপাচার্য এদিনের বৈঠকে বলেছেন আমি যদি ব্যক্তিস্বার্থ নিয়ে কাজ করি, আপনারা জানতে পারেন তাহলে আমি বিশ্বভারতী ছেড়ে চলে যাব।”

Swarnali Goswami 28.08.2020

রাজ্যে বড়সড় লগ্নি করতে চলেছে মুকেশ আম্বানির সংস্থা জিও। উচ্চ গতি সম্পন্ন নেট পরিষেবা দিতে আন্তর্জাতিক মানের কেবল ল্যান্ডিং স্টেশন তৈরি করবে ওই সংস্থা। পশ্চিমবঙ্গের পর্যটনস্থল দিঘায় হবে ওই ল্যান্ডিং স্টেশন। নবান্ন সূত্রে খবর, দিঘায় তৈরি করা হবে Jio-র এই ডেটা হাব ও তার বিশাল কেবল ল্যান্ডিং স্টেশন। উল্লেখ্য, রাজ্যের শিল্প মানচিত্র নয়া দিক যুক্ত করতে আগামী কয়েক বছরে রাজ্যের বেশ কয়েকটি শহরকে ডেটা সেন্টার হিসাবে তৈরি করতে চায় সরকার। সেই সূত্র ধরেই কেবল ল্যান্ডিং স্টেশন তৈরিতে জিও -কে অনুমোদন দিল রাজ্য সরকার। এই প্রজেক্টে প্রায় হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে জিও। স্বাভাবিকভাবেই সেইসঙ্গে হবে বিপুল কর্মসংস্থানও। বুধবারই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘দিঘায় মুকেশ অম্বানির সংস্থাকে কেবল ল্যান্ডিং স্টেশন তৈরির ব্যাপারে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে।’ বুধবার নবান্ন থেকে আরও একটি সুখবর দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, ‘অনেকদিন ধরে আমরা তাজপুরে নতুন বন্দর তৈরি করার চেষ্টা করছি। তাজপুরে যে বন্দরটি হবে সেটা রাজ্য সরকার তৈরি করবে। রাজ্যের একার দ্বারা সম্ভব নয়। তাই টেন্ডার ডাকা হবে।’

Swarnali Goswami 27.08.2020

করোনা ওয়ারিয়র যাঁরা সামনের সারিতে থেকে সব কিছু সামলাচ্ছেন অর্থাৎ সরকারি চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী, পুলিশকর্মীর মতো জনসেবক, তাঁদের জন্য সরকারি স্বাস্থ্য বিমার মেয়াদ বাড়ানোর নির্দেশ দিলেন মুখ্যমন্ত্রী৷ স্বাস্থ্য বীমার মেয়াদ ছিল সেপ্টেম্বর পর্যন্ত তা বাড়িয়ে নভেম্বর পর্যন্ত করার নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। করোনা যোদ্ধাদের জন্য দশ লক্ষ টাকার স্বাস্থ্যবিমা করিয়েছিল সরকার৷ করোনা পরিস্থিতির দিকে নজর রেখে এবার সেই বিমার মেয়াদই আরও দু’ মাস বাড়ানোর নির্দেশ দিলেন মুখ্যমন্ত্রী৷ মঙ্গলবার নবান্নে প্রশাসনিক বৈঠক থেকেই এই নির্দেশ দেন তিনি৷ সামনে উৎসবের মরশুম রয়েছে এবং বর্তমানেও যথেষ্ট উদ্বেগের মধ্যে রয়েছে করোনা পরিস্থিতি, সেকথা মাথায় রেখেই এই নির্দেশ দেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ পাশাপাশি করোনায় আক্রান্ত হয়ে সরকারি যে কর্মী, আধিকারিকদের মৃত্যু হয়েছে, তাঁরা ঠিকমতো বিমার ক্ষতিপূরণের টাকা পাচ্ছেন কিনা, তাও নিশ্চিত করার নির্দেশ দেন এদিন মুখ্যমন্ত্রী৷ তিনি এদিন বলেন, যাঁরা করোনা মোকাবিলায় সামনে থেকে লড়ছেন, তাঁরা সরকারের সম্পদ।

Swarnali Goswami 25.08.2020

কলকাতায় ফিরেই রাজনীতিতে ফের সক্রিয় হয়ে উঠছেন তথাগত রায়। রবিবার শহরে ফিরেছেন তিনি। সোমবারই রাজ্যে বিজেপি-র কেন্দ্রীয় পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয়র সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন তথাগত। বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়ও। কিন্তু দিলীপ ঘোষ ছিলেন না কেন বৈঠকে? জল্পনা শুরু হতেই তথাগত ট্যুইট করে জানিয়ে দেন বুধবারই দিলীপ ঘোষের সঙ্গে বৈঠক করবেন তিনি। সল্ট লেকে দিলীপ ঘোষের বাড়িতে গিয়ে দেখা করবেন তিনি জানান। প্রসঙ্গত, রবিবার কৈলাস বিজয়বর্গীয় জানিয়েছিলেন, ২০২১ -এর বিধানসভা ভোটে কাউকে মুখ্যমন্ত্রী ‘প্রোজেক্ট’ করে ভোটে লড়বে না BJP। তথাগত রায়ও সেকথাই জানালেন। এ বিষয়েও তিনি আজ ট্যুইট করেন। প্রসঙ্গত, কিছুদিনের মধ্যে দিল্লি গিয়ে BJP-র শীর্ষ নেতৃত্বের সঙ্গে তথাগত রায় দেখা করতে পারেন বলেও খবর।

Swarnali Goswami 25.08.2020

বাংলায় সাইকেল তৈরির কারখানা গড়ার কথা ভাবছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। যে সংস্থা এ রাজ্যে সাইকেল তৈরির কারখানা গড়বে, তাদেরই ‘সবুজ সাথী’ প্রকল্পের সাইকেলের বরাত দেওয়া হবে বলে সোমবার নবান্নে জানান মুখ্যমন্ত্রী। এদিন নবান্নের প্রশাসনিক বৈঠকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘সবুজ সাথী প্রকল্প নিয়ে আমার যথেষ্ট অভিযোগ আছে। গতবছরের টার্গেট দেওয়া এখনও প্রায় ২ লক্ষ সাইকেল দেওয়া হয়নি।’ তিনি আরও বলেন, ‘আমরা এ রাজ্যে সাইকেল কারখানা করতে চাই। আমাদের এখানে যখন এত বেশি সাইকেল দেওয়া হচ্ছে, তাহলে কেন এখানে সাইকেল কারখানা তৈরি হবে না? এতে তো আমাদের এখানে কর্মসংস্থানের সুযোগ বৃদ্ধি পেতে পারে। এই বিষয়টি দেখতে হবে।’ বাকি থাকা সাইকেল বিলির কাজ আগামী সেপ্টেম্বরের মধ্যে শেষ করার নির্দেশও দেন তিনি। স্কুল না খুললেও বাড়িতে গিয়ে সাইকেল দিতে হবে বলেন মুখ্যমন্ত্রী। উল্লেখ্য, বর্তমানে অন্য রাজ্য থেকে সাইকেলের বিভিন্ন যন্ত্রাংশ এনে তা জুড়ে সাইকেল তৈরি করে তুলে দেওয়া হয় ছাত্রছাত্রীদের হাতে। তবে এ রাজ্যে সাইকেল কারখানা তৈরি হলে বিষয়টি আর এখানেই সীমাবদ্ধ থাকবে না। সেইসঙ্গে কর্মসংস্থানের বেশ কিছু সুযোগ তৈরি হবে বলেও আশাবাদী অনেকে।

Swarnali Goswami 24.08.2020

পড়াশোনায় সে দারুণ ছিল। শান্তশিষ্ট স্বভাব। সেই আবদুল রজ্জাক গাজি ওরফে রাজাকেই গ্রেফতার করে গিয়েছে গুজরাত পুলিশের অ্যান্টি টেররিস্ট স্কোয়াড। তার বিরুদ্ধে আমেদাবাদে ২০০৬-র বিস্ফোরণে যুক্ত থাকার অভিযোগ রয়েছে। এখানেই শেষ নয়, তার বিরুদ্ধে জঙ্গি সংগঠন লস্কর-ই-তৈবার সঙ্গে যুক্ত থাকার প্রমাণও পেয়েছেন তদন্তকারীরা। জানা গিয়েছে, আবদুল রজ্জাকের বাড়ি বসিরহাটের দক্ষিণ বাগুণ্ডি গ্রামে। তদন্তকারীদের সূত্রে জানা গিয়েছে, যে আবু জুন্দলকে আবদুল রাজ্জাক বাংলাদেশে পালিয়ে যেতে সাহায্য করেছিল, সে বাংলাদেশ থেকে পাকিস্তানে পালিয়ে যায়। আর ২০০৮-এ মুম্বইয়ের ভয়ংকর জঙ্গি হামলায় জঙ্গিদের গুরুত্বপূর্ণ হ্যান্ডলার হিসেবে কাজ করে। বসিরহাট পুলিশ সূত্রের খবর, ‌বাংলাদেশ সীমান্ত এলাকায় গোরু পাচার ও লোকজনকে চোরাপথে সীমান্ত পার করানোর কাজে জড়িত হিসেবে ওই ব্যক্তির নাম এলাকার মানুষের একাংশ জানলেও তার জঙ্গি সংস্রবের কথা এতদিন জানা ছিল না। তদন্তকারীরা আরও জানিয়েছেন, ২০০৬-এর ফেব্রুয়ারিতে অহমদাবাদের কালুপুর রেল স্টেশনে পর পর যে বিস্ফোরণ হয়েছিল, সেই মামলাতেই গ্রেফতার করা হয়েছে রাজাকে। মোবাইলের টাওয়ারের সূত্র ধরে সোমবার গুজরাট এটিএসের পাঁচ সদস্যের একটি দল বসিরহাট পৌঁছয়। মঙ্গলবার দপুরে বসিরহাটের দণ্ডিরহাটে ওই দুষ্কৃতীকে ঘিরে ফেলেন তদন্তকারীরা। বিপদ বুঝে রাজা পালানোর চেষ্টা করতেই তাকে পুলিশ ধরে ফেলে|

Swarnali Goswami 21.08.2020

হঠাৎই মুকুল রায়ের প্রতি ‘সক্রিয়’ হয়ে উঠল কেন্দ্রীয় সরকারের এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট। সাতদিনের মধ্যে তাঁকে একাধিক নথি জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে ইডি। রাজনৈতিক মহলের মতে, বিজেপিতে ক্রমেই কোনঠাসা হয়ে উঠেছেন মুকুল। দিলীপ ঘোষের সঙ্গে তাঁর সংঘাতও নতুন নয়। তাঁর উপর এখন থেকে চাপ তৈরি করতে চাইছে বিজেপি। সেই সূত্রেই ইডির এই তৎপরতা বলে অনুমান অনেকের। তদন্তকারী সংস্থা সূত্রে খবর, আগামী সাত দিনের মধ্যে মুকুল রায়কে তাঁর ব্যাঙ্ক স্টেটমেন্ট-সহ বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ নথি জমা দিতে বলা হয়েছে। মুকুল রায়ের ঘনিষ্ঠমহল সূত্রে খবর, প্রকাশ্যে কিছু না বললেও বিষয়টি নিয়ে যথেষ্ট ক্ষুব্ধ মুকুল। আসন্ন নির্বাচনের মধ্যে ইডি-র এ হেন কার্যকারিতায় অবশ্যই অন্য কিছুর আঁচ পাচ্ছে রাজনৈতিক মহল।

Swarnali Goswami 21.08.2020

গুঞ্জন কী সত্যি হতে চলেছে? পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারি কর্মচারী ফেডারেশনের সাংগঠনিক কাঠামো গত বছরই ঢেলে সাজানো হয়েছিল। যদিও দিব্যেন্দু রায়, সৌম্য ঘোষ এবং তপন গড়াইকে সংগঠনের আহ্বায়ক করা হয়েছিল, একটা কোর কমিটিও গড়ে দেওয়া হয়েছিল। তবে সংগঠনের মেন্টর পদে বসিয়ে সামগ্রিক দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল নন্দীগ্রামের বিধায়ক তথা রাজ্যের পরিবহণ, সেচ ও জলসম্পদ মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারীকে। কিন্তু বছর ঘুরতে না ঘুরতেই সেই কাঠামো ভেঙে দিল তৃণমূল। ফেডারেশনের সর্বোচ্চ স্তরে ঢালাও রদবদল করে দেওয়া হল। এবং সেই রদবদলেই শুভেন্দু অধিকারীর নীরব প্রস্থান ঘটে গেল ফেডারেশনের মাথা থেকে। নবগঠিত কমিটির প্রথম বৈঠকে শুভেন্দুর গরহাজিরা নিয়ে প্রথমে গুঞ্জন শুরু হয়। তার পরে রাজ্য মন্ত্রিসভার একটা বৈঠকেও শুভেন্দুকে দেখা না যাওয়ায় সে গুঞ্জন আরও বাড়ে। এবারে এই ঘটনা সেই গুঞ্জনকেই আরও ইন্ধন যোগাল। দলের রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সী এবং মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায় সোমবার তৃণমূল ভবনে বৈঠকে বসেন কর্মচারী ফেডারেশনের নেতাদের নিয়ে। সে বৈঠকে দলের চেয়ারপার্সন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ফোনে ভাষণ দেন। সোমবারের যে বৈঠকে ফেডারেশনে রদবদল ঘটল, সেই বৈঠকে কিন্তু শুভেন্দু অধিকারী উপস্থিত ছিলেন না। ফেডারেশনের দায়িত্ব যিনি পেলেন, সেই দিব্যেন্দু রায় মুখে কুলুপ এঁটেছেন শুভেন্দুর বিষয়ে। নতুন দায়িত্ব পেয়ে তিনি উচ্ছ্বসিত। সংগঠনে কাউকে ব্রাত্য হতে দেবেন না, সকলকে সঙ্গে নিয়ে কাজ করবেন— এ কথা বার বার বলছেন দিব্যেন্দু। কিন্তু শুভেন্দুর ব্যাপারে প্রশ্ন রয়েই গেল|

Swarnali Goswami 19.08.2020

পুলিশদের সাহসিকতাকে সম্মান জানাতে ১ সেপ্টেম্বর দিনটিকে এবার থেকে পুলিশ দিবস হিসেবে পালনের কথা ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার বিকেলে নবান্নের সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ব্রিটেনের স্কটল্যান্ড ইয়ার্ডসের সঙ্গে তুলনা করা হতো কললকাতা পুলিশকে। এখন তার থেকেও ভাল কাজ করছে কলকাতা পুলিশ। তিনি আরও বলেন, পশ্চিমবাংলার পুলিশ ‘ওয়ান অফ দ্য বেস্ট’। মুখ্যমন্ত্রী এদিন জানান, ইতিমধ্যেই বহু পুলিশকর্মী করোনায় আক্রান্ত, মারাও গেছেন ১৮ জন। তার পরেও তাঁরা লড়াই করে যাচ্ছেন মানুষের জন্য। পুলিশের সংক্রমণ ঠেকাতে নতুন ব্যারাক তৈরি করা হবে দূরত্ব বিধি মেনেই, ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। আইনশৃঙ্খলা রক্ষার পাশাপাশি নানা মানবিক ও সামাজিক কাজ করেছে পুলিশ। তার পরেও যা কিছু হচ্ছে পুলিশকে কাঠগড়ায় তোলা হচ্ছে। যেটা ঠিক নয়। এর পাশাপাশি মমতা ঘোষণা করেন, রাজ্য পুলিশের মহিলাদের পদোন্নতির সুযোগ বাড়ানো হবে। পুরুষদের পাশাপাশি মহিলা পুলিশরাও সমানাধিকার পাবেন এবার থেকে। এছাড়াও আজ উদ্বোধন করা হল কলকাতা পুলিশের “নিরাময়” অ্যাপ। পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা উদ্বোধন করলেন এই ডিজিটাল সিম্পটম চেকারের। ‘‘নিরাময়’’ আসলে অভয় দেবে ফ্রন্ট লাইন ওয়ারিয়রদের। এখানে থাকছে আলাদা করে একটা টেলি ডেস্ক। প্রত্যেক থানার মাধ্যমে লালবাজারে অবস্থিত সেই টেলি ডেস্ক খোঁজ রাখবে সকলের। এই টেলি ডেস্ক থেকে যা আদপে একটি ডিজিটাল মাধ্যম। সহজ কথায় বলতে গেলে একটি পোর্টাল। বিভাগীয় আধিকারিকদের বলা হয়েছে, এই বিষয়ে খুঁটিনাটি সমস্ত তথ্য সংগ্রহ করতে। প্রয়োজনে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে।

Swarnali Goswami 17.08.2020

স্বাধীনতা দিবসের দিন বৃষ্টির পূর্বাভাস দিল আবহাওয়া দফতর। নিম্নচাপের প্রভাবে দক্ষিণবঙ্গে বাড়বে বৃষ্টি, বইবে ঝোড়ো হাওয়া। উপকূলের দুই জেলায় ৫০ কিলোমিটার গতিবেগে ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে। মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যেতে নিষেধ করা হয়েছে। দিঘা, মন্দারমণি ও সাগরদ্বীপের সমুদ্রসৈকতে সর্তকতা জারি করা হয়েছে। ওড়িশা উপকূল ও গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের উপর নিম্নচাপের অবস্থান। দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে অভিমুখ এই নিম্নচাপের। আগামী ২৪ ঘণ্টায় এই নিম্নচাপ আরও শক্তি সঞ্চয় করবে। অভিমুখ অনুযায়ী এই নিম্নচাপ অন্ধ্রপ্রদেশ উপকূলের দিকে এগিয়ে যাওয়ার কথা। আগামী ২৪ ঘণ্টায় দু-এক পশলা ভারী বৃষ্টি হবে দক্ষিণ ২৪ পরগনা, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম এই চার জেলাতে। দু-এক পশলা ভারী বৃষ্টি হতে পারে কলকাতা-সহ উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান,হাওড়া এবং হুগলি জেলাতে। শনিবার ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম, পুরুলিয়া এবং বাঁকুড়া জেলাতে। রবিবার থেকে উত্তরবঙ্গের উপরের দিকের জেলাগুলিতে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। রবি ও সোমবার দু-এক পশলা ভারী বৃষ্টি হতে পারে দার্জিলিং, আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার, জলপাইগুড়ি, কালিম্পং।

Swarnali Goswami 14.08.2020

শুক্রবার প্রকাশিত হল রাজ্যে জয়েন্টের ফলাফল। এবারের মেধাতালিকায় যাঁরা স্থান করে নিয়েছেন, তাঁদের মধ্যে বেশিরভাগই দিল্লি বোর্ডের। মাত্র একজন রাজ্য বোর্ডের স্থান পেয়েছেন এবারের মেধা তালিকায়। যাঁরা পরীক্ষা দিয়েছিলেন, এমন পড়ুয়াদের ৯৯ শতাংশ র‌্যাঙ্ক পেয়েছেন। এবছর আবেদনকারীর সংখ্যা ছিল ৮৮,৮০০ জন। এর মধ্যে পরীক্ষায় বসেছিলেন ৭৩,১১৯ জন। জয়েন্ট পরীক্ষায় র‌্যাঙ্ক পেয়েছেন ৭২,২৯৮ জন পড়ুয়া। তবে এবারে জয়েন্ট পরীক্ষায় রাজ্যের উচ্চমাধ্যমিক বোর্ডের ৩৬,৪৮৫ জন পড়ুয়া সফল হয়েছেন। এছাড়া সিবিএসই বোর্ডের ২২,২৭০ জন পড়ুয়া এবারে জয়েন্টের পরীক্ষায় সাফল্য অর্জন করেছেন। সাফল্য অর্জন করেছেন আইএসই বোর্ডের ২২২৬ জন পড়ুয়া ও অন্যান্য বোর্ডের ১১,৩১৭ জন পড়ুয়া। এইবছর আরও অনেক কিছুর মতোই জয়েন্টের কাউন্সেলিংয়েও পড়েছে অতিমারির প্রভাব। গোটা প্রক্রিয়ায় পুরোটাই হবে অনলাইনে। এমনকি কলেজে রিপোর্টিংও। যে সমস্ত পড়ুয়ারা এবছর র‌্যাঙ্ক পেয়েছেন, তাঁদের কাউন্সেলিংয়ের ক্ষেত্রে রেজিস্ট্রেশন ফি দিতে হবে না। জয়েন্ট বোর্ডের পক্ষ থেকে যে সমস্ত কমন সার্ভিস সেন্টার করা হয়েছে সেগুলিই ছাত্ররা ব্যবহার করতে পারবেন।

Swarnali Goswami 07.08.2020

সাইবার ক্রাইমের সহযোগিতা নিতে চলেছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। মধ্যশিক্ষা পর্ষদের তরফে এবার একাধিক ওয়েবসাইট মারফত ছাত্রছাত্রীদের কাছে ফলাফল জানানোর প্রক্রিয়া হয়। এবছর পর্ষদের তরফে ছাত্রছাত্রীদের কাছে অনলাইন মারফত ফলাফল জানানোর জন্য একদিকে যেমন বিষয়ভিত্তিক নম্বর দেওয়া হয়েছিল তেমনি মোট নম্বর দেওয়া হয়। পর্ষদের তরফে ছাত্র-ছাত্রীদের সেই রেজাল্টের প্রিন্ট আউট নেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়। কিন্তু অরিজিনাল মার্কশিট হাতে পেতেই অবাক কান্ড! পর্ষদের ওয়েবসাইটে পাওয়া নম্বরের প্রিন্ট আউটের সঙ্গে মিলছেনা হাতে পাওয়া মার্কশিটের নম্বর। পর্ষদের কাছে এই অভিযোগ আসার পর যে যে ছাত্র-ছাত্রীদের অভিভাবকদের কাছ থেকে অভিযোগ এসেছে পর্ষদের তরফে নির্দিষ্টভাবে সেই রেজাল্টগুলি খোঁজার চেষ্টা হয়। দেখা যায়, আসল মার্কশিটের নম্বরের ডেটাবেস পর্ষদের কাছে রয়েছে। তাহলে ওয়েবসাইটে পাওয়া নম্বরের প্রিন্টআউট কোত্থেকে এল? কোথায়ই বা গেল?

         ছাত্র-ছাত্রীরা কিভাবে ওয়েবসাইটে পাওয়া রেজাল্ট থেকে বিভ্রান্ত হচ্ছেন বা কারা কিভাবে সেই নম্বর বদলে ফেলেছেন তারই তদন্তের জন্য এবার সাইবার ক্রাইমের সহযোগিতা চাইছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ।

Swarnali Goswami 06.08.2020

প্রয়াত বর্ষীয়ান সিপিআইএম নেতা এবং সিপিআইএম সেন্ট্রাল কমিটির সদস্য শ্যামল চক্রবর্তী৷ বৃহস্পতিবার দুপুরে পিয়ারলেস হাসপাতালে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। ৩০ জুলাই বাইপাসের বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হন। ১ অগাস্ট থেকে ছিলেন ভেন্টিলেশনে। সম্প্রতি অসুস্থ বোধ করায় চিকিৎসকের পরামর্শে তাঁর করোনা পরীক্ষা করানো হয়। রিপোর্ট পজিটিভ আসে। রবিবার রাতে তাঁর অবস্থার  বেশ কিছুটা অবনতি হয়। ভেন্টিলেটর সাপোর্ট দিতে হয় বর্ষীয়ান নেতাকে। যদিও সোমবার তাঁর শারীরিক অবস্থার সামান্য উন্নতি হয়েছিল বলে জানা গিয়েছিল। বুধবার দুপুরের পর থেকেই অবস্থার অবনতি থাকে সিটু নেতার। ছাত্র আন্দোলন করার সময়ে দীর্ঘদিন জেলও খেটেছিলেন এই বাম নেতা। ‘পুলিশি অত্যাচারে’ মেরুদণ্ডে আঘাত ছিল গুরুতর। শেষমেশ আজ জীবনযুদ্ধ থেমে গেল ষাটের দশকের ছাত্র আন্দোলনের নেতার। গতকাল শ্যামলবাবুর মেয়ে তথা অভিনেত্রী ঊষসী চক্রবর্তীকে ফোন করে বর্ষীয়ান বাম নেতার খোঁজ খবর জানতে চান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার দুপুর ১.৫০-এ শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন এই বর্ষীয়ান নেতা ৷  শ্যামল চক্রবর্তীর প্রয়াণে শোকস্তব্ধ রাজনৈতিক মহল৷

Swarnali Goswami 06.08.2020

কলকাতা পুরসভার অধীন এলাকায় বুধবার চালু হল নতুন নিয়ম। হাসপাতালে যাওয়ার পর যদি কোনও কোভিড রোগীকে সেই হাসপাতাল ভরতি নিতে না পারে, তাহলে রোগীর পরিজনদের আর চিন্তিত হওয়ার দরকার নেই। অন্য হাসপাতালে রেফার করলে শয্যা বুক করে দিতে হবে সংশ্লিষ্ট হাসপাতালকেই। ‘রেফারেল কোড’ ব্যবহার করে এই নিয়ম পালন করা হবে। তবে শুধুমাত্র করোনা আক্রান্তের ক্ষেত্রেই এই নিয়ম প্রযোজ্য হবে। রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিব তথা কলকাতা পুরসভার দায়িত্বে থাকা নোডাল অফিসার আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় এদিন তা জানান। অনেক সময়ই কোভিড হাসপাতালগুলিতে গিয়ে বেড পাচ্ছে না রোগীর পরিবার। ঘণ্টার পর ঘণ্টা ঘুরেও বেড পাওয়া যাচ্ছে না। আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়, পুরসভার প্রশাসনিক মণ্ডলীর সদস্য অতীন ঘোষ, চিকিৎসক অভিজিৎ চৌধুরী, কলকাতা পুরসভার কমিশনার বিনোদ কুমার, আইএমএ-র রাজ্য সম্পাদক শান্তনু সেন প্রমুখ একটি বৈঠক করে এই সিদ্ধান্তে উপনীত হন।

Swarnali Goswami 05.08.2020

করোনায় আক্রান্ত প্রাক্তন সিপিএম সাংসদ তথা সিপিএমের পলিটব্যুরো সদস্য মহম্মদ সেলিম। জানা গিয়েছে, বিগত কয়েকদিন ধরেই শারীরিক অসুস্থতায় ভুগছিলেন সেলিম। তাঁর জ্বর, শ্বাসকষ্ট ও পেটখারাপের সমস্যা রয়েছে। বাইপাসের ধারে একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন তিনি। অপরদিকে বর্ষীয়ান সিপিআইএম নেতা শ‍্যামল চক্রবর্তীকে রবিবার রাত থেকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়েছে। উল্লেখ্য, সম্প্রতি একের পর এক সিপিএম নেতা করোনা আক্রান্ত হচ্ছেন। মারণ ভাইরাস থাবা বসিয়েছিল বাম চিকিৎসক নেতা ফুয়াদ হালিমের শরীরেও। তবে, বেশ কয়েকদিন লড়াই চালিয়ে শেষমেশ রবিবার ছাড়া পান তিনি।

Swarnali Goswami 03.08.2020

বৃহস্পতিবার নয়াদিল্লিতে ৬৬তম স্কচ সামিটে স্কচ ফাউন্ডেশনের তরফে বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পকে পুরস্কৃত করা হয়। ‘গণ অভিযোগ নিরসনে’র জন্যে আমাদের রাজ্য পেল শ্রেষ্ঠ পুরস্কার। গত বছর ডিজিটাল মাধ্যমে সরকারের কাছে গণ-অভিযোগ ব্যবস্থার সূচনা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেই অভিযোগ সমাধানের ক্ষেত্রেই সারা দেশের মধ্যে শীর্ষ স্থান দখল করল বাংলা। একটি প্ল্যাটিনাম, তিনটি সোনা ও ১০টি রূপোর পদকের মধ্যে সমস্ত রাজ্য ও তাদের দফতরকে ছাপিয়ে মমতা সরকারের জন অভিযোগ সেল পেল প্ল্যাটিনাম পদক। জানা গিয়েছে, ওই সেল চালু হওয়ার পর এখনও পর্যন্ত ৮ লক্ষ ১৬ হাজার অভিযোগ জমা পড়েছে। অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ হল, সেই অভিযোগের ৯৫ শতাংশেরই মীমাংসা করা গিয়েছে।

Swarnali Goswami 31.07.2020

অনলাইনে ক্লাস নেওয়ার পদ্ধতি, করোনা পরবর্তী পরিস্থিতিতে স্কুল খুললে ক্লাসরুমে নয়া পদ্ধতিতে ক্লাস নেওয়া প্রভৃতির পাঠ দিতে এবার ভার্চুয়ালি শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ দিতে শুরু করল রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর। অনলাইনে ক্লাস নেওয়া হলেও তার জন্য প্রশিক্ষণের দরকার শিক্ষক-শিক্ষিকাদের আর তাই এই পদক্ষেপ জানিয়েছে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর। মধ্যশিক্ষা পর্ষদ, সিলেবাস কমিটি এবং সর্বশিক্ষা মিশনের উদ্যোগে চলতি সপ্তাহ থেকেই ভার্চুয়ালি প্রশিক্ষণ দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে রাজ্যের শিক্ষক-শিক্ষিকাদের। প্রাথমিকভাবে নবম ও দশম শ্রেণির ছাত্র-ছাত্রীদের কিভাবে ক্লাস নেওয়া উচিত তারই প্রশিক্ষণ দেওয়া শুরু হয়েছে। অনলাইনে ক্লাস নেওয়ার জন্য কি কি বিষয়কে মাথায় রেখে চলতে হবে তার জন্যই এবার শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ ভার্চুয়ালি দেওয়া শুরু করল রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর। শুধু তাই নয় এর পাশাপাশি ভার্চুয়ালি শিক্ষকদের জানানো হচ্ছে ক্লাস নেওয়ার ক্ষেত্রে কোন কোন অধ্যায় বা বিষয়কে অগ্রাধিকার দিতে হবে শিক্ষক-শিক্ষিকাদের। প্রত্যেকটি জেলা থেকে চারজন করে শিক্ষককে নিয়ে এই প্রশিক্ষণের পর্ব চলছে। প্রত্যেকটি বিষয়ের এবং প্রত্যেকটি মাধ্যমেরই শিক্ষক শিক্ষিকাদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। প্রশিক্ষণের পর ওই চার জন প্রশিক্ষিত শিক্ষক শিক্ষিকা জেলার বাকি শিক্ষক শিক্ষিকাদের প্রশিক্ষণ দেবেন। পাশাপাশি খুব শীঘ্রই টেলিফোন মারফত ক্লাস নেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হতে চলেছে বলে স্কুল শিক্ষা দফতর সূত্রে খবর।

Swarnali Goswami 31.07.2020

লকডাউনের কারণে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর ২৩ জুন, রথযাত্রার দিন ভক্তদের জন্যে দরজা খুলেছিল তারাপীঠ মন্দির। তবে মন্দিরে ঢুকতে একাধিক বিধিনিষেধ মানতে হচ্ছিল ভক্তকূলকে। কিন্তু করোনার থাবা পড়েছে তারাপীঠ মন্দিরের আশেপাশের অঞ্চলেও। তাই সাধারণ মানুষের জীবনের কথা ভেবেই আবার মন্দির বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হল। আগামী ১ অগস্ট থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্যে বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে তারাপীঠের মন্দির।
মন্দিরের দরজা খুলে দেওয়া হলেও ভক্তদের জন্যে কিছু কঠোর নিয়ম চালু করা হয়েছিল। মন্দির চত্বরেই খোলা হয়েছিল মেডিকেল ক্যাম্পও। কিন্তু তাতেও করোনার সংক্রমণ রোখা যায়নি এলাকার, তাই আপাতত মন্দির বন্ধ রাখাই শ্রেয় বলে মনে করেছেন কর্তৃপক্ষ। তবে, মন্দির বন্ধ থাকলেও রীতি অনুযায়ী মা তারার পুজো ও ভোগ নিবেদন করবেন সেবাইতরা।

Swarnali Goswami 30.07.2020

আজ বিকেল ৫টায় নাসার মঙ্গলযান পারসিভের‍্যান্স পাড়ি দিচ্ছে মঙ্গলগ্রহে। বৃহস্পতিবার আর্টেমিস প্রোগ্রামের প্রথম ধাপ সম্পন্ন হবে। রোভার পারসিভের‍্যান্স পাড়ি দেবে মঙ্গল গ্রহে। এই মিশনে মোট ৩টি ল্যান্ডিং সাইট চিহ্নিত করা হয়েছে। জেজেরো ক্রেটার, এন ই সারটিস এবং কলম্বিয়া হিলস। রোভার মিশনে উন্নত অ্যানালাইজারের মাধ্যমে নানা তথ্য বিশ্লেষণ করা হবে। যথারীতি উত্তেজনা তুঙ্গে। এই উত্তেজনায় সামিল এক বাঙালিও। শ্রীরামপুরের বাসিন্দা শৌনক দাস। গুগল গাইড হিসেবে যার পরিচয় রয়েছে। সেই শৌনকের নাম যুক্ত আছে এই মার্স মিশনের সাথে। শ্রীরামপুরের বাসিন্দা শৌনক দাস। গুগল গাইড হিসেবে যার পরিচয় রয়েছে। সেই শৌনকের নাম যুক্ত আছে এই মার্স মিশনের সাথে। সারা পৃথিবী থেকে মোট ১০৯৩২২৯৫ জনের নাম বাছাই করা হয়। এদের সকলের নাম একটা মাইক্রো চিপে করে রকেটের মাধ্যমে মঙ্গল গ্রহে পাঠানো হবে। সেই চিপে রয়েছে শৌনকের নাম। ইতিমধ্যেই শৌনকের কাছে নাসা’র তরফ থেকে বোর্ডিং পাস পাঠানো হয়েছে। সেখানে স্ট্যাটাসে লিখে দেওয়া আছে ‘নাও বোর্ডিং’। বৃহস্পতিবার ভারতীয় সময় বিকেল ৫’টায় মঙ্গল গ্রহের উদ্দেশ্যে রওনা দিচ্ছে নাসার এই মঙ্গলযান। ২০২১ সালের ১৮ ফ্রেব্রুয়ারি সেটি মঙ্গল গ্রহে গিয়ে পৌছবে। কিছু পাথর ও মাটি সংগ্রহ করে পৃথিবীতে পাঠানোর কথা তার।

Swarnali Goswami 30.07.2020

সপ্তাহে দু’দিন করে সম্পূর্ণ লকডাউনের আজ বুধবার ছিল তৃতীয় দিন। যদিও এ সপ্তাহে একদিনই সম্পূর্ণ লকডাউন রাখা হয়েছে। তবে আজও শহর সহ গোটা রাজ্যে শুনশান ছিল রাস্তাঘাট। জুলাই মাসের শেষ লকডাউন পুরদস্তুর সফল করতে তৎপর পুলিশ-প্রশাসনও।
সকাল থেকে কলকাতা-সহ জেলায় জেলায় চলেছে পুলিশের কড়া নজরদারি। ব্যারিকেড তৈরি করে চলেছে যান নিয়ন্ত্রণ। পরীক্ষা করা হয়েছে প্রয়োজনীয় নথিও। বিনা প্রয়োজনে কেউ বের হলে ফেরত পাঠানো হয়েছে। দেওয়া হয়েছে করোনা-বিধি মেনে চলার পরামর্শ। এ দিন বাজার-দোকানও সম্পূর্ণ বন্ধ রয়েছে। বন্ধ রয়েছে গণপরিবহণ ব্যবস্থাও। বেশিরভাগ মানুষও এ দিন ঘরের বাইরে বেরোননি। করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় আগামী গোটা অগস্ট মাস সপ্তাহে দু দিন লকডাউনের পথেই অবিচল থাকছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Swarnali Goswami 29.07.2020

পূর্ব ঘোষণা মতো, অগস্ট মাসে লকডাউন হওয়ার কথা ছিল ২ ও ৫ অগস্ট, ৮ ও ৯ অগস্ট, ১৬ ও ১৭ অগস্ট, ২২ ও ২৩ অগস্ট এবং ২৯ ও ৩০ অগস্ট। কিন্তু রাতেই ট্যুইট করে রাজ্য স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক জানাল, ধার্মিক অনুষ্ঠানের কথা মাথায় রেখে, সাধারণ মানুষের ভাবাবেগের বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়ে ২ ও ৯ অগস্ট হচ্ছে না লকডাউন। বাকি দিনগুলি অপরিবর্তীত থাকছে। তাহলে সেপ্টেম্বরের ৫ তারিখ, শিক্ষক দিবসের দিন থেকে থেকে পুজো পর্যন্ত নিয়ম মেনে একদিন অন্তর স্কুল কলেজ খোলার কথা বিবেচনা করা হবে। কিন্তু সে বিষয় নির্ভর করবে করোনার পরিস্থিতির উপর।

Swarnali Goswami 28.07.2020

মুম্বই, কলকাতা, নয়ডায় আইসিএমআর-এর টেস্টিং ল্যাবরেটরির ভার্চুয়াল উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে ওই ল্যাবের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। দেশে প্রতিদিন ১০ লক্ষ টেস্ট করতে চায় কেন্দ্রীয় সরকার সেই কারণেই এই ল্যাবের উদ্বোধন।
এরপরই জাতির উদ্দেশে ভাষণে মোদী বলেন, ‘ভারত আজ যা করে দেখাচ্ছে, গোটা বিশ্ব তাজ্জব হয়ে গিয়েছে।’ আগামী উত্‍সবের মরশুমে দেশবাসীকে ভাইরাস যাতে ছড়িয়ে না পড়ে, সে বিষয়ে সতর্ক ও সচেতন থাকতে হবে৷ মোদি বলেন, ‘আমাদের বিজ্ঞানীরা দ্রুত ভ্যাকসিন তৈরির জন্য কাজ করছেন৷ কিন্তু যতদিন না ওষুধ বা ভ্যাকসিন না আসে, ততদিন ৬ ফুট দূরত্ব, মাস্ক ও হাত পরিচ্ছন্ন রাখতে হবে৷’ শুধু তাই নয়, এদিন প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘দেশে ১৩০০ ল্যাবে করোনা টেস্ট হচ্ছে। আগে যেখানে দেশে একটাও পিপিই তৈরি হত না, সেখানে বিশ্বের মধ্যে দ্বিতীয় পিপিই কিট তৈরির দেশ হয়ে উঠেছে ভারত। প্রতিদিন দৈনিক আড়াই লক্ষ N95 মাস্ক তৈরি হচ্ছে দেশে।’
আইসিএমআর-এর ল্যাবের ভার্চুয়াল উদ্বোধনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ছাড়াও ছিলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ধন, উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ ও মহারাষ্ট্র মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে।

Swarnali Goswami 27.07.2020

খড়গপুর আইআইটি -র গবেষকরা এমন একটি ছোট যন্ত্র আবিষ্কার করেছেন যার মাধ্যমে মাত্র ১ ঘণ্টায় টেস্টের রিপোর্ট জানা যাবে। খড়গপুর IIT-র গবেষকদের আবিষ্কার করা ছোট্ট এই করোনা টেস্ট যন্ত্রটি খুবই সস্তার। সমস্ত কিছু ধরে করোনার টেস্টের জন্য ৪০০ টাকারও কম খরচ পড়বে, যা বর্তমানে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের খরচের তুলনায় দশ ভাগের এক ভাগ। এর ফল জানা যাবে স্মার্টফোনে অ্যাপের মাধ্যমে। প্রতি ক্ষেত্রেই রিপোর্ট সম্পূর্ণ সঠিক আসবে বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞানীরা। এটি ব্যবহার করা হলে আগামী দিনে ল্যাব বা RT-PCR মেশিনের প্রয়োজন ফুরোবে। ফলে বিশ্বজুড়ে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়া যাবে পরিষেবা। বর্তমানে করোনা টেস্টের জন্য ল্যাবরেটরি এবং RT-PCR মেশিনের প্রয়োজন হয়, যা যথেষ্ট খরচসাপেক্ষ। স্কুল অফ বায়োসায়েন্সের ডক্টর অরিন্দম মণ্ডল এবং মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক সুমন চক্রবর্তী উক্ত করোনা টেস্ট যন্ত্রটি আবিষ্কার করেছেন। তাঁদের আবিষ্কার করা এই যন্ত্র প্রসঙ্গে ডক্টর মণ্ডল বলেছেন, ‘ছোট্ট এই যন্ত্রটি শুধু কোভিড-১৯ নয়, এর মাধ্যমে অন্য ধরনের RNA ভাইরাসও শনাক্ত করা সম্ভব। একই জেনেরিক পদ্ধতি অনুসরণ করে এই সমস্ত টেস্ট করা সম্ভব হবে। বিজ্ঞানীদের দাবি ‘আগামী দিনে যদি কোনও ভাইরাসের সংক্রমণ মহামারীর আকার নেয়, তখনও এই যন্ত্র সমানভাবে তার কার্যকারিতার স্বাক্ষর রাখতে পারবে।’

Swarnali Goswami 25.07.2020

দেশের বিভিন্ন ধাম ও তীর্থস্থান থেকে মাটি ও জল পৌঁছবে অযোধ্যায় আগামী ৫ আগস্টের মধ্যে। আগামী ৫ অগাস্ট অযোধ্যায় রাম মন্দিরের শিলন্যাস হওয়ার কথা৷ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সেই ভূমি পুজোয় উপস্থিত থাকার কথা৷ বাংলার নদিয়ার নবদ্বীপ ধাম অন্যতম একটি তীর্থস্থান। নবদ্বীপ ধামের মায়াপুরের রামচন্দ্রপুরে গঙ্গার ধারে যজ্ঞ করে মাটি ও জল অযোধ্যার উদ্দেশ্যে পাঠানো হল শুক্রবার। এছাড়াও এ দিন কল্যাণীর রথতলার কৃষ্ণ জিউ মন্দিরে নবদ্বীপ থেকে নিয়ে আসা মাটি ও জল রেখে পূজিত হয়। এই মন্দির থেকেও মাটি ও জল যাবে অযোধ্যায়। এর মাধ্যমে বাংলার মাটি ও জল গেল অযোধ্যার রামমন্দির নির্মাণে।

Swarnali Goswami 24.07.2020

আগামী ১৫ অগাস্টের মধ্যে দৈনিক টেস্ট-এর সংখ্যা ২৫ হাজারে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে৷ করোনা নিয়ে ভয় পাওয়ার কিছু নেই বলে একুশে জুলাইয়ের ভার্চুয়াল সভা থেকে ফের রাজ্যবাসীকে অভয় দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘করোনার বিরুদ্ধে ভাল করতে গেলে টেস্টিং, চেকিং এবং ট্রেসিং-এ জোর দিতে হবে৷ আগামী দিন ওষুধ বেরবে, ট্রায়াল চলছে৷ আমরা আশা করি ভাল হয়ে যাবে৷ কোভিডের জন্য এখানে ১৮ হাজার বেডের ব্যবস্থা রয়েছে৷ ১১ হাজার কোভিড হাসপাতালে এবং ৭ হাজার সেফ হোমে৷ ৩১ অগাস্টের মধ্যে এটাই ২৩ হাজার ৫০০ করা হবে৷’ করোনা প্রসঙ্গে এ’দিন মুখ্যমন্ত্রী বলেন, রাজ্যে দৈনিক টেস্ট-এর সংখ্যা বাড়ানো হচ্ছে৷ ফলে আরও বেশি করে সংক্রমিতের খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে।

Swarnali Goswami 21.07.2020

রাজ্যের প্রায় সাড়ে ৫ লাখ যুবক-যুবতী তৃণমূল যুবশক্তির সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন। ফেসবুক লাইভে এমনটাই জানালেন সাংসদ তথা তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। এ বছর ভার্চুয়াল সভার মাধ্যমেই ২১ জুলাই সমাবেশ পালন করা হবে বলে জানা গেছে তৃণমূল সূত্রে।
ডিজিটাল সমাবেশেও যাতে বিন্দুমাত্র ত্রুটি না থাকে, তা নিশ্চিত করতেই ইতিমধ্যেই সক্রিয় তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। যুব শক্তি কর্মসূচির দ্বিতীয় পর্যায়ে যুবশক্তির সদস্য-সাফল্যের কথা জানিয়ে তাদের কর্মসূচির কথাও আজ মনে করিয়ে দেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। কোভিড পরিস্থিতিতে গোটা রাজ্যে সাধারণ মানুষের কাছে ‘জনপরিষেবা’ পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে যুব সদস্যদের ১০টি করে পরিবারের দায়িত্ব নিতে বলেছেন যুব তৃণমূল সভাপতি। বিভিন্ন রকম নাগরিক পরিষেবা যথা শিক্ষা, স্বাস্থ্য সহ অন্যান্য পরিষেবা পেতে কার কী সমস্যা হচ্ছে, সে দিকে নজর রাখবেন তাঁরা। সমস্যার গুরুত্ব বুঝে নিয়ে দল, পঞ্চায়েত, পুরসভা এবং প্রশাসনের সঙ্গে যোগাযোগ করে সমাধান করার চেষ্টাও করবেন। করোনা আবহে প্রয়োজনে ওই পরিবারগুলির জন্য নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস এনে দেওয়ার কাজও করতে হবে যুব কর্মীদের। যুব কর্মীদের উদ্দেশে সভাপতি বলেন, যুব সম্প্রদায়ই পারে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে।’

Swarnali Goswami 18.07.2020

নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বুধবার ঘোষণা করেন, করোনায় কোনও কোভিড যোদ্ধার মৃত্যু হলে তাঁর পরিবারের একজনকে রাজ্য সরকারি চাকরি দেওয়া হবে। সেইসঙ্গে পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হবে ১০ লক্ষ টাকা আর্থিক সাহায্য। করোনা যোদ্ধাদের পরিবারের কথা ভাবার পাশাপাশি করোনা যোদ্ধাদের সম্মানে দেওয়া হবে মানপত্র ও মেডেল দেওয়া হবে। মন্ত্রিসভার বৈঠকে বিষয়গুলি স্থির হয়েছে। এদিন জেলাশাসকদের সঙ্গে ভিডিয়ো বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী। ডাক্তার ও পুলিশের মধ্যে এদিন বিতরণ করা হয় মেডেল ও মানপত্র। সেইসঙ্গে রাজ্যের ১লক্ষ ২৫হাজার হেক্টর জমিতে সেচের জন্য ১৫০০ কোটি টাকা ক্ষুদ্র সেচ প্রকল্পও মন্ত্রিসভা অনুমোদন করেছে। মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘সামনে পুজো আসছে। পুজো তো করতে হবে। কিন্তু এই সময় নোংরা রাজনীতি করবেন না। এটা সবার লড়াই। সবাই মিলে লড়তে হবে।’ সংক্রমণ ঠেকাতে উত্তরবঙ্গের পাঁচ শহরেও আজ, বুধবার থেকে পুরোপুরি লকডাউন চালু হয়েছে। এই শহরগুলি হল, জলপাইগুড়ি, কোচবিহার, শিলিগুড়ি, রায়গঞ্জ ও মালদহ। কিন্তু এই পাঁচ শহরে কতদিন লকডাউন থাকবে, তার স্পষ্ট উল্লেখ নেই লকডাউনের বিজ্ঞপ্তিতে। পাশাপাশি, কলকাতা ও সংলগ্ন তিন জেলার (হাওড়া ও দুই ২৪ পরগনা) বৃহত্তর কনটেনমেন্ট এলাকাগুলিতেও কঠোর ভাবে লকডাউন কার্যকরের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Swarnali Goswami 15.07.2020

রাজ্যের কনটেইনমেন্ট জোনগুলিতে নতুন করে লকডাউন শুরু করেছে রাজ্য সরকার। কলকাতা-সহ রাজ্যের বেশ কয়েকটি কন্টেইনমেন্ট জোনগুলিতে লকডাউন বাড়ল ১৯ জুলাই পর্যন্ত ৷ আগামিকাল, বুধবার থেকে উত্তরবঙ্গের ৫ শহরে কড়া লকডাউন ৷ লকডাউন বাড়ানো হল জলপাইগুড়ি, মালদহ, কোচবিহার, রায়গঞ্জ এবং শিলিগুড়ির কন্টেইনমেন্ট জোনগুলিতেও ৷ মঙ্গলবার সংশ্লিষ্ট জেলাশাসকদের কাছে চিঠি দিয়ে এ কথা জানিয়ে দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রসচিব ৷ কলকাতা এবং উত্তরবঙ্গের ৫টি করোনা হটস্পটের উপর বিশেষভাবে নজর রাখা হচ্ছে ৷ উল্লেখ্য, রাজ্যের কনটেইনমেন্ট জোনগুলিতে লকডাউন করেও বাঁধ দেওয়া যাচ্ছে না করোনা সংক্রমণ। আগে কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে কিছুটা এলাকা বাফার জোন হিসেবে থাকত, সেখানে কনটেইনমেন্ট জোনের মতো কড়াকড়ি থাকত না। কিন্তু নয়া লকডাউনে বাফার জোনকেও নয়া কনটেইনমেন্ট জোনের মধ্যে ধরা হয়েছে। কনটেইনমেন্ট জোনগুলিতে আপাতত সরকারি-বেসরকারি সব অফিস, জরুরি ছাড়া সব ধরনের কার্যকলাপ, ধর্মস্থান, পরিবহণ এবং শিল্প-বিপণন-ব্যবসার কাজকর্ম বন্ধ রয়েছে। ওষুধ, মুদিখানা, দুধের মতো অত্যাবশ্যকীয় পণ্যের দোকান ছাড়া বন্ধ রয়েছে যাবতীয় দোকানপাটও। কনটেইনমেন্ট জোন ছেড়ে বেরোনো কিংবা জোনে ঢোকার ক্ষেত্রে সকলের গতিবিধি নিয়ন্ত্রণ করা হচ্ছে। থাকছে বিশেষ নজরদারি। তবে ১৯ জুলাই-এর পরেও লকডাউনের মেয়াদ বাড়ানো হবে কী না, তা পরিস্থিতি বিচার করেই সিদ্ধান্ত নেবে রাজ্য ৷

Swarnali Goswami 14.07.2020

করোনা পরিস্থিতি নিয়ে যখন উদ্বেগ গোটা দেশে, তখন পশ্চিমবঙ্গে করোনা পরিস্থিতি আশঙ্কাজনক নয় বলেই দাবি করল রাজ্যের স্বরাষ্ট্র দফতর৷ একটি গ্রাফ পোস্ট করেছে স্বরাষ্ট্র দফতর৷ তাতে দেখা যাচ্ছে, গত ১৫ এপ্রিল থেকে ১২ জুলাই পর্যন্ত গোটা দেশে করোনা আক্রান্ত যে হারে বেড়েছে, তার চেয়ে অনেক কম হারে বেড়েছে পশ্চিমবঙ্গে৷ এর পাশাপাশি মঙ্গলবার স্বরাষ্ট্র দফতর একটি গ্রাফ ট্যুইট করে৷ তাতে দেখা যাচ্ছে, শতাংশের হিসেবে গোটা দেশের তুলনায় পশ্চিমবঙ্গে করোনা আক্রান্ত ধারাবাহিক ভাবে কম৷ ৩০ এপ্রিল গোটা দেশের মোট করোনা আক্রান্তের নিরিখে পশ্চিমবঙ্গে ৩.১৪ শতাংশ৷ এবং ১২ জুলাইয়েও গোটা দেশের মোট করোনা আক্রান্তের নিরিখে বাংলায় আক্রান্ত শতকরা ৩.৪২ শতাংশ৷

লকডাউনের সময় পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়ে তাঁর কাজ নানা স্তরে প্রশংসিত হয়েছিল। ডানকুনিতে যে পরিযায়ী শ্রমিকরা আসছিলেন, অত্যন্ত মানবিকতার সঙ্গে তাঁদের বাড়ি পৌঁছনো-খাওয়াদাওয়ার ব্যবস্থা করেছিলেন তিনি। এরপরই করোনায় আক্রান্ত হন তিনি। কিন্তু করোনা আক্রান্ত হয়ে তাঁরই আর বাড়ি ফেরা হল না ৷ মাত্র ৩৮ বছর বয়সেই নিভে গেল জীবনদীপ ৷ প্রয়াত হলেন চন্দননগরের ডেপুটি ম্যাজিস্ট্রেট দেবদত্তা রায় ৷ তাঁর মৃত্যুর খবরে শোকের ছায়া নেমে আসে চন্দননগরের মহকুমা শাসকের দফতরে ৷ তরুণী WBCS আধিকারিকের মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও৷ মৃত WBCS আধিকারিক দেবদত্তা রায়ের পরিবারকে সমবেদনা জানিয়ে চিঠি পাঠিয়েছেন মমতা৷ দিন কয়েক ধরেই জ্বরে ভুগছিলেন চন্দননগরের ডেপুটি ম্যাজিস্ট্রেট ৷ করোনা টেস্টের রিপোর্ট পজিটিভ আসার পর বাড়িতেই হোম আইসোলেশনে ছিলেন তিনি ৷ রবিবার অবস্থার অবনতি হওয়ায় শ্রীরামপুরের শ্রমজীবী হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে ৷ কিন্তু শেষ রক্ষা হল না৷ হাসপাতাল সূত্রে খবর, মাত্র ৩৮ বছর বয়সী দেবদত্তাকে যখন হাসপাতালে ভরতি করা হয়, তখন তাঁর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা খুব কমে এসেছিল। সংক্রমণের মাত্রাও মারাত্মক বেড়ে গিয়েছিল। সোমবার সকালে মৃত্যু হয় তাঁর ৷

Swarnali Goswami 13.07.2020

করোনা আক্রান্ত রাজ্য ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী লক্ষ্মীরতন শুক্লার স্ত্রী। লক্ষ্মীর স্ত্রী স্মিতা সান্যাল শুক্লা রাজ্য সরকারের স্বাস্থ্য দফতরের উচ্চপদস্থ আধিকারিক। স্ত্রী স্মিতার করোনা পজিটিভ হওয়ার খবর লক্ষ্মী নিজেই জানিয়েছেন। করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় চার মাস ধরে কাজ করছেন স্মিতা। সমস্ত দায়িত্ব পালন করেছেন। তবে দিন কয়েক ধরে শরীর খারাপ হওয়ায় লালারসের নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠান হয়েছিল। ১০ জুলাই শুক্রবার রিপোর্ট পজিটিভ আসে। তবে জ্বর থাকলে আর তেমন কোনও উপসর্গ নেই। সুরক্ষার স্বার্থে সব নিয়ম মেনে আমরা পরিবারের বাকি সদস্যরা হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছে বলে জানিয়েছেন লক্ষ্মীরতন শুক্লা। তাঁর বাবা, তিনি এবং তাঁর দুই ছেলে রবিবার কোভিড-১৯ পরীক্ষা করবেন বলে জানিয়েছেন তিনি। করোনা পরিস্থিতি সামলাতে রাস্তায় নেমে কাজ করতে দেখা গিয়েছিল লক্ষ্মীরতন শুক্লাকেও। মাস্ক বিলি থেকে শুরু করে গরিব মানুষদের রোজ খাওয়ার ব্যবস্থা করেছেন লক্ষ্মী। নিজের অ্যাকাডেমির ক্রিকেটারদের মানসিক ও শারীরিকভাবে চাঙ্গা রাখতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে অনুশীলনও শুরু করেছিলেন।

Swarnali Goswami 11.07.2020

দক্ষিণবঙ্গের ৪টি জেলার মত শিলিগুড়িতেও আগামীকাল থেকে শুরু হচ্ছে কন্টেইনমেন্ট জোনে লকডাউন। উত্তরোত্তর করোনার সংক্ৰমণ নিয়ে শিলিগুড়িতে বুধবার টাস্ক ফোর্সের একটি বৈঠক হয়। সেখানেই সব দিক পর্যালোচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, আগামীকাল বিকেল ৫ টা থেকে শিলিগুড়ি পুরনিগম এলাকার ৯ টি ওয়ার্ড পুরোপুরি লকডাউন করার। দার্জিলিংয়ের জেলাশাসক এস পুন্নমবালাম জানিয়েছেন, আগামীকাল থেকে শিলিগুড়ি পুরনিগমের দার্জিলিং জেলার অন্তর্গত ২, ৪, ৫, ২৮ ও ৪৬ নম্বর ওয়ার্ডে পুরোপুরি লকডাউন শুরু হচ্ছে। এছাড়াও শিলিগুড়ি পুরনিগমের জলপাইগুড়ি জেলার অন্তর্গত ৩৭, ৩৮, ৩৯ এবং ৪৩ নম্বর ওয়ার্ডেও লকডাউন শুরু হচ্ছে বলে প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে। শিলিগুড়ি পুরনিগমের বেশ কিছু ওয়ার্ডে সংক্রমণের হার যেভাবে প্রতিদিন বাড়ছে তাতে আতঙ্কিত সেইসব এলাকার মানুষ। পুরনিগমের যেসব ওয়ার্ডে সংক্রমণের হার বেশি সেইসব এলাকাতে পুরোপুরি লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রশাসন।

Swarnali Goswami 08.07.2020

দীর্ঘ লকডাউনের জেরে মার খাচ্ছে পাহাড়ের পর্যটন ব্যবসা। তাই আনলক পর্বে ফের পর্যটকদের জন্যে দরজা খুলে দিয়েছিল দার্জিলিং। কিন্তু গোটা রাজ্যের কনটেইনমেন্ট জোনগুলিতে আবারও যখন শুরু হচ্ছে লকডাউন, তখন আবার ফের পর্যটক যাওয়ায় নিষেধাজ্ঞা জারি করল জিটিএ। জানিয়ে দেওয়া হল, আগামী ৩১ জুলাই পর্যন্ত পাহাড়ে যেতে পারবেন না কোনও পর্যটক।
বৃহস্পতিবার থেকে পাহাড়ে পর্যটন ফের বন্ধ করা হচ্ছে। ৩১ জুলাইয়ের পর পরিস্থিতি করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। বুধবার জিটিএ-র তরফে অনীত থাপা জানান, আর্থিক ক্ষতি সবার হচ্ছে। কিন্তু এমন একটা সময় এখন, যখন এই ক্ষতি মেনে নিতে হবে। উল্লেখ্য, রাজ্যের সমস্ত হোটেল খোলার নিয়ম চালু হওয়ার পরই বারবার বৈঠকে বসেছিলেন দার্জিলিং জেলা প্রশাসন ও জিটিএ কর্তারা। সঙ্গে ছিলেন হোটেল মালিকরাও। বারংবার বৈঠকে বসে পর্যটকদের জন্যে স্বাস্থ্যবিধি সুনির্দিষ্ট করা হয়। দার্জিলিংয়ে যাওয়ার বিভিন্ন এন্ট্রি পয়েন্টে চেকিং করা, হোটেলগুলির জন্যে সুনির্দিষ্ট স্বাস্থ্যবিধি তৈরি করা হয়। কিন্তু সেই নিয়ম বেশিদিন টিকল না। ফের দার্জিলিংয়ে বন্ধ হল পর্যটন।

Swarnali Goswami 08.07.2020

শিলিগুড়ি জেলা হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত হয়ে সঞ্জীব মাহাতো নাম এক শিক্ষকের মৃত্যু হয় সোমবার রাতে। সঞ্জীব মাহাতো খড়িবাড়ির রামজনম প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক ছিলেন। ৪৫ নম্বর ওয়ার্ডের প্রধাননগরের চম্পাসারি সংলগ্ন এলাকার বাসিন্দা সঞ্জীব মাহাতো করোনার উপসর্গ নিয়ে ৩ জুলাই থেকে জেলা হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। তাঁর হার্টের সমস্যা ছিল। প্রথমে তাঁকে জেনারেল ওয়ার্ডে রাখা হয়েছিল। পরে ক্রিটিক্যাল কেয়ার ইউনিটে ভর্তি করা হয়। শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় এরপর তাঁকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়। সঞ্জীববাবুর মৃত্যুর খবর শুনে তাঁর স্ত্রী সীমা মাহাতো বেলা ১১টা সাড়ে ১১টা নাগাদ দুই কন্যা সন্তানকে নিয়ে আচমকা বাড়ি থেকে বেরিয়ে যান। দুই কন্যা সন্তানের একজনের বয়স চার বছর, অন্যজনের দুই বছর। সূত্রের খবর, ওই মহিলা এনজেপি স্টেশনের ফুট ওভারব্রিজ থেকে দুই কন্যা সহ ঝাঁপ দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। ঘটনায় তিনজনই গুরুতর জখম হন। তাঁদের উদ্ধার করে প্রথমে মাটিগাড়ার বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাঁদের উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। এই বিষয়ে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী শিলিগুড়িতে ফোন করেন। পুরো বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়ে দেখা হচ্ছে বলে খবর।

Swarnali Goswami 07.07.2020

করোনা আবহে এবার অনলাইনেই মাধ্যমিকের ফলাফল প্রকাশে গুরুত্ব দিচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। ফলাফল প্রকাশ কিভাবে করা যায় তা নিয়ে সোমবার মধ্যশিক্ষা পর্ষদের সভাপতি রাজ্যের বেশ কয়েকটি শিক্ষক সংগঠন ও প্রধান শিক্ষকদের মতামত নেন। সেখানে স্থির হয় অনলাইনে ছাত্রছাত্রীরা মাধ্যমিকের ফলাফল ও বিষয়ভিত্তিক নম্বর জেনে নিতে পারবেন। যদিও প্রত্যেক বছর এই ঠিক এই পদ্ধতিতেই মাধ্যমিকের ফলাফল প্রকাশ হয় কিন্তু তার সঙ্গে মার্কশিট ও সার্টিফিকেট ওইদিনই পেয়ে যান ছাত্রছাত্রীরা। কিন্তু এবছর কিভাবে স্কুলে ছাত্রছাত্রীরা আসবেন সেটা নিয়েই চিন্তার বিষয় ছিল পর্ষদের কাছে। সে ক্ষেত্রে বিভিন্ন স্কুলে স্কুলে যেভাবে অভিভাবক-অভিভাবিকাদের মিড ডে মিলের মাধ্যমে চাল-আলু দেওয়া হচ্ছে এক্ষেত্রেও সেই একই পদ্ধতি অনুসরণ করা হতে পারে বলেই সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। এছাড়াও আই সি এস ই ও সি বি এস ই এর ফল প্রকাশ কিভাবে হবে সে বিষয়েও নজর রাখছে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর বলে জানা গিয়েছে।
অপরদিকে উচ্চশিক্ষায় বাধ্যতামূলক ফাইনাল সেমেস্টার ৷ উচ্চশিক্ষায় বার্ষিক পরীক্ষা নেওয়ার অনুমতি দিল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক৷ কেন্দ্রীয় উচ্চশিক্ষা সচিবকে চিঠি দিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক জানিয়েছে, বার্ষিক পরীক্ষা শেষ করা বাধ্যতামূলক৷ UGC-র নির্দেশিকা মেনেই বার্ষিক পরীক্ষা হবে৷ সেই সঙ্গে কেন্দ্রের নির্দেশিত করোনা স্বাস্থ্যবিধিও মানতে হবে৷ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফে মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রকের লেখা এই চিঠির পরিপ্রেক্ষিতে এ রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলির পরীক্ষার ভবিষ্যত কী হবে তা নিয়ে আবারও সংশয় তৈরি হল। তবে ইউজিসির পরীক্ষা সংক্রান্ত বৈঠকে পরীক্ষা নেওয়ার ক্ষেত্রে কিছু পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে । সূত্রের খবর, সেখানে ঠিক হয় বিশ্ববিদ্যালয় ও ইনস্টিটিউশনগুলিকে ৩১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে পরীক্ষা প্রক্রিয়া শেষ করতে হবে। এই সংক্রান্ত শীঘ্রই বিজ্ঞপ্তি জারি করবে ইউজিসি।

Swarnali Goswami 06.07.2020

রাজ্যের স্কুল সিলেবাসে আসছে কিছু পরিবর্তন। সেই পরিবর্তনের মধ্যে সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য হল, এবার সিলেবাসে যোগ হচ্ছে ‘করোনাভাইরাস’। শিক্ষা দফতর সূত্রে খবর, প্রথম থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত রাজ্যের পড়ুয়াদের সিলেবাসে সংযুক্ত করা হয়েছে নোভেল করোনাভাইরাস। জানা গিয়েছে, আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকেই সিলেবাসের অন্তর্ভূক্ত হচ্ছে এই বিষয়টি। মধ্যশিক্ষা পর্ষদ ও শিক্ষা দফতরের সঙ্গে এ বিষয়ে বৈঠক হয়েছে সিলেবাস কমিটির। সেখানেই ঠিক হয়েছে, করোনার উৎপত্তি থেকে প্রভাব, উপসর্গ থেকে সুরক্ষাবিধি প্রতিটি বিষয়ের উল্লেখ করা হবে। এর জন্যে চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বলে সিলেবাসের তথ্য নিশ্চিত করা হবে। বইয়ের শেষ দিকে কয়েক পাতা নতুন করে যুক্ত করা হবে। যেখানে বিষয় হবে ‘করোনাভাইরাস’। সিলেবাস নতুন করে কম-বেশি করার চিন্তভাবনা করছে সিলেবাস কমিটি। তবে, নতুন সিলেবাস বহরে ছোট হলেও তাতে করোনা থাকবে বলেই মনে করা হচ্ছে।

Swarnali Goswami 29.06.2020

নির্মলাকেই পাল্টা ‘মিথ্যেবাদী’ আখ্যা দিলেন অমিত। পরিসংখ্যান দিয়ে পাল্টা আক্রমণে নামলেন রাজ্যের অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র। উল্লেখ্য, রবিবার বাংলার বিরুদ্ধে আমফান থেকে করোনা, পরিযায়ী শ্রমিক ইস্যু থেকে আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্পে যোগদান না করা, নানা ইস্যুতে মন্তব্য করেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সিতারামন। আক্রমণ করেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেও। তথ্য তুলে ধরে রাজ্যের অর্থমন্ত্রীর দাবি, গত ২৩ জুন সন্ধ্যায় সমস্ত জেলা ও ব্লক স্তরের পরিযায়ী সংক্রান্ত সব তথ্য কেন্দ্রকে দেওয়া হয়েছে । একই সঙ্গে রাজনৈতিক উদ্দেশ্য নিয়ে বাংলাকে এই প্রকল্প থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে বলেও এদিন অভিযোগ করেন অমিত মিত্র। অমিত মিত্র বলেন, ‘রাজ্যের স্বাস্থ্যসাথী আয়ুষ্মান ভারতেরও আগে থেকে চলে। কেন্দ্র রাজ্যকে নকল করে এই স্কিম চালু করেছে।’ রাজ্যের স্কিম কেন্দ্রের স্কিমের চেয়ে অনেক বেশি কার্যকরী বলেও এদিন ইঙ্গিত করেন অমিত।

Swarnali Goswami 29.06.2020

খুব সাধারণ এক টেস্ট কিট আসতে চলেছে রাজ্যের খোলা বাজারে। মুখের ভিতর থেকে বের করা কয়েক ফোঁটা লালারস। অথবা নাসিকানিঃসৃত সর্দি-শ্লেষ্মার সামান্য একটু। ব্যস। বাড়িতে বসে খালি চোখে বোঝা যাবে, মানুষটি নোভেল করোনায় আক্রান্ত, নাকি মামুলি ইনফ্লুয়েঞ্জার শিকার। দেশের শীর্ষ স্বাস্থ্য সংস্থা আইসিএমআরের অনুমোদনপ্রাপ্ত এই ‘ম্যাজিক কিটের’ পোশাকি নাম ‘কোভিড-১৯ অ্যান্টিজেন টেস্ট কিট’।
আটটি দেশীয় সংস্থা এই কিটের উৎপাদন ও বিপণনের ছাড়পত্র পেয়েছে। সরকারের নির্ধারিত গুণমান বজায় রাখলে ওই সংস্থাগুলিকে কিট বিক্রির অনুমতি দেবে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। যদিও চাবিকাঠি থাকবে স্বাস্থ্য দপ্তরের হাতে। মূলত উপসর্গহীন বা মৃদু উপসর্গের করোনা ভাইরাস (Corona virus) চিহ্নিত করতে এই কিট কার্যকর হবে। কয়েকটি উৎপাদিত কিটের গুণগত মান যাচাইয়ের পর্ব শুরু হয়েছে। সম্প্রতি এমন দশ হাজার কিট কিনেছে স্বাস্থ্যদপ্তর। পরীক্ষামূলকভাবে সেগুলো ব্যবহার হবে। নতুন কিটের মান বজায় রাখতে ব্যবহারের আগে গাইডলাইন মেনে অন্তত মাইনাস ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় সংরক্ষণ করতে হবে। কোথায় কত অ্যান্টিজেন কিট (antigen kit) বিক্রি হবে, আইসিএমআর (ICMR) -এর গাইডলাইন মেনে তারও যাবতীয় তথ্য মজুত থাকবে স্বাস্থ্য দপ্তরে। এর জন্য তৈরি হবে নির্দিষ্ট মোবাইল অ্যাপ। সেখানেই সব তথ্য জমা হবে। বিক্রি না হওয়া কিটের হিসেব রাখা হবে। অ্যান্টিজেন টেস্ট কিট থেকে সংক্রমণ ছড়ানোর সম্ভাবনা কম। কারণ, পরীক্ষার জন্য রোগীকে ল্যাবরেটরিতে নিয়ে যাওয়ার দরকার নেই। পরীক্ষার পর বিধি মেনে কিট নষ্ট করাও তুলনায় সহজ।
স্বাস্থ্য দপ্তরের খবর, আইসিএমআরের গাইডলাইন মেনে শুরুতে সব মেডিক্যাল কলেজ ও সরকারি হাসপাতালে এগুলি পাঠানো হবে। এরপর কনটেনমেন্ট জোন বা করোনা-চিহ্নিত এলাকায় ব্যবহার হবে। বস্তুত তখনই স্পষ্ট হবে, কিটের গুণগত মান বা উপযোগিতা কতটা।

Swarnali Goswami 29.06.2020

কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ফাইনাল সেমিস্টার বাতিল করল রাজ্য। শনিবার নির্দেশিকা দিয়ে জানিয়ে দিল রাজ্যের উচ্চ শিক্ষা দফতর। এ দিন বিশ্ববিদ্যাগুলিলয়কে স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের জন্য ফাইনাল সেমিস্টার পরীক্ষার ক্ষেত্রে এমনই অ্যাডভাইজারি পাঠানো হয়েছে। বলা হয়েছে ফাইনাল সেমিস্টারের পরীক্ষা অনলাইন বা অফলাইনে নেওয়া যাবে না। তার বদলে বিগত সেমিস্টারগুলির মধ্যে সংশ্লিষ্ট পড়ুয়া যে সেমিস্টারে সবথেকে বেশি নম্বর পেয়েছে, তার থেকে ৮০ শতাংশ এবং ফাইনাল সেমিস্টারের ইন্টার্নাল অ্যাসেসমেন্ট থেকে বাকি ২০ শতাংশ পাবে পড়ুয়ারা। বিশ্ববিদ্যালয়গুলিকে ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর স্তরের ফলাফল প্রকাশ করতে হবে। পরবর্তী শিক্ষাবর্ষ শুরু হবে করোনাভাইরাস পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার পর।

Swarnali Goswami 27.06.2020

বাতিল হয়ে গেল উচ্চমাধ্যমিকের বাকি পরীক্ষা। শুক্রবার শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানিয়ে দিলেন, উচ্চ মাধ্যমিকের বাকি তিনদিনের পরীক্ষা আর হবে না। শুধু তাই নয়, ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে উচ্চমাধ্যমিকের রেজাল্টও প্রকাশ করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। শিক্ষামন্ত্রী জানিয়েছেন, সর্বোচ্চ নম্বর ধরে কীভাবে প্রকাশ করা সম্ভব, তা নিয়ে তৈরি হচ্ছে নতুন বিধি। পরে সে বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে। এর আগে পরীক্ষা পিছিয়ে ২, ৬ ও ৮ জুলাই উচ্চমাধ্যমিকের বাকি থাকা পরীক্ষাগুলির দিন ধার্য হয়েছিল। কিন্তু স্কুল-কলেজ বন্ধ রাখার কথা আগেই জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল সরকারের তরফে। সেক্ষেত্রে পরীক্ষা নিলে পড়ুয়াদের মধ্যে সংক্রমণ ছড়ানোর যথেষ্ট সম্ভাবনা রয়েছে। সেই কথা ভেবেই এবার পরীক্ষা বাতিলের পথে হাঁটল পশ্চিমবঙ্গ সরকারও।

Swarnali Goswami 26.06.2020

স্বনির্ভর গোষ্ঠীর মাধ্যমে মাস্ক তৈরি করে রাজ্যের মধ্যে সেরার শিরোপা পেল হুগলি জেলা। জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, রাজ্যের অন্যান্য জেলা মিলিয়ে গ্রামীণ এলাকায় আনন্দধারা স্বনির্ভর গোষ্ঠীকে কাজে লাগিয়ে ৪০ লক্ষ ৭৩ হাজার ৩৭৪টি মাস্ক তৈরি করেছে। তার মধ্যে হুগলি জেলা একাই ১০ লক্ষ ৩০ হাজার ৪৫৭টি মাস্ক (অর্থাৎ মোট সংখ্যার এক-চতুর্থাংশ) তৈরি করে লক্ষ্যমাত্রা ছাপিয়ে সেরার তকমা পেয়ে গেছে। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে হাওড়া। তাদের উৎপাদিত মাস্কের সংখ্যা ৪ লক্ষ ৫৯ হাজার। তৃতীয় স্থানে রয়েছে মালদা। এপ্রিল মাসের প্রথম সপ্তাহে লকডাউনের সময় জেলা প্রশাসনের কর্তাব্যক্তি ও স্বাস্থ্য দপ্তরের আধিকারিকদের নিয়ে উচ্চপর্যায়ের ভিডিয়ো কনফারেন্স করেন জেলাশাসক ওয়াই রত্নাকর রাও। প্রশাসন জানিয়েছে, জেলায় গ্রামীণ এলাকায় আনন্দধারা স্বনির্ভর গোষ্ঠীর অধীনে প্রায় ৪০ হাজার স্বনির্ভর গোষ্ঠী রয়েছে। প্রত্যেক স্বনির্ভর গোষ্ঠীকে পরিকল্পনামাফিক কাজে লাগানোয় কয়েক মাসের মধ্যেই ১০ লক্ষ ছাপিয়ে যায় তৈরি হওয়া মাস্কের সংখ্যা।

Swarnali Goswami 25.06.2020

মঙ্গলবার শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় সাংবাদিক বৈঠকে জানিয়ে দিলেন ৩১ জুলাই পর্যন্ত রাজ্যের সমস্ত স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকবে। প্রশাসনিক কাজকর্ম চলবে কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে। এ দিন তিনি জানিয়েছেন, ৩০ জুনের পরিবর্তে ৩১ জুলাই পর্যন্ত সমস্ত স্কুল- কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়গুলি বন্ধ রাখা হচ্ছে। জুলাই মাসের ২,৬,৮ তারিখে উচ্চমাধ্যমিকের বাকি পরীক্ষা হবে। এদিকে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ ১৫ জুলাইকে পাখির চোখ করে ফলপ্রকাশের তোড়জোড় শুরু করেছে। মাধ্যমিকের ফল প্রকাশ কবে হবে তা এখনও নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না। অপরদিকে করোনার ভয়ে উচ্চ মাধ্যমিকের বাকি তিনদিনের পরীক্ষা ও শিক্ষাবর্ষ পিছিয়ে দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন শিক্ষাবিদরা। এ প্রসঙ্গে শিক্ষামন্ত্রীর মন্তব্য, ‘সর্বভারতীয় প্রেক্ষাপটের দিকে নজর রাখছি।’ ৩১ জুলাই পর্যন্ত স্কুলছুটির বিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন শিক্ষাসচিব।

Swarnali Goswami 23.06.2020

করোনা নিয়ে আলোচনা করতে বুধবার সর্বদল বৈঠক ডাকলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ বুধবার নবান্নের সভাঘরে করোনা স্বাস্থ্যবিধি মেনেই বৈঠক হবে৷ বিরোধী দলনেতা আব্দুল মান্নান, বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ ও বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসুকে ফোন করে সর্বদল বৈঠকে আমন্ত্রণ জানান মুখ্যমন্ত্রী৷ সোমবার সাংবাদিক বৈঠক করে সর্বদল বৈঠকের কথা জানিয়েছেন, স্বরাষ্ট্রসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। স্বরাষ্ট্র সচিব বলেন, ‘যেহেতু করোনা পরিস্থিতিতে এখন বিধানসভা বন্ধ, তাই বিধানসভার প্রতিনিধিত্ব আছে এমন দলগুলিকে আমন্ত্রণ করা হবে। সভাপতিত্ব করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।’ এই নিয়ে করোনা সংক্রমণ ইস্যুতে দ্বিতীয় বার সর্বদল বৈঠক ডাকলেন মুখ্যমন্ত্রী।

Swarnali Goswami 22.06.2020

রাজ্যে প্রকাশিত হল করোনা রোগীদের খাবারের তালিকা। রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর রীতিমতো বিজ্ঞপ্তি দিয়ে করোনা আক্রান্ত রোগীদের, যাঁরা সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন তাঁদের সারাদিনের খাবারের বরাদ্দের সম্পূর্ণ তালিকা প্রকাশ করল।
মাথাপিছু প্রতিদিন ১৫০ টাকার খাবার পাবেন সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করোনা আক্রান্ত রোগীরা। সরকারি বিজ্ঞপ্তিতে পরিষ্কার করে বলা হয়েছে, সকালে কী কী খাবার কত পরিমাণ দিতে হবে। দুপুরের খাবারে ভাত কত গ্রাম চালের থাকবে, ডাল কত গ্রাম থাকবে, মাছ বা মাংসের ওজন কত গ্রাম হবে। সেইসঙ্গে দুপুরে সবজি এবং দই-ও দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে নির্দেশিকায়। একইভাবে বলা হয়েছে, রাতে রুটি অথবা ভাত, রোগী যেটা পছন্দ করবেন, তাই দেওয়া হবে। তার সঙ্গে মরশুমি সবজি, ১০০ গ্রাম মাছ বা মুরগির মাংস। এককথায় সরকারি করোনা হাসপাতালে আরও উন্নতমানের খাবার দেওয়ার নির্দেশ সরকারের।
ব্রেকফাস্ট : ৪টি রুটি, ১টি করে ডিম, কলা,২৫০ মিলি দুধ।
লাঞ্চ : ১০০ গ্রাম সরু চালের ভাত , ডাল ৫০ গ্রাম, সবজি, ৮০-৯০ গ্রাম মাছ বা মাংস এবং দই।
ডিনার : ভাত বা রুটি, ডাল, সব্জি, ১০০ গ্রাম মাছ বা মুরগির মাংস।

Swarnali Goswami 19.06.2020

করোনা মোকাবিলায় যাদের অবদান সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সেই কোভিড যোদ্ধা চিকিৎসকদের জন্য একগুচ্ছ ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ৷ বুধবার নবান্ন থেকে মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা কোভিড রোগীর চিকিৎসা করবেন যেসব ডাক্তারি পড়ুয়ারা, তারা পরীক্ষায় ১০ শতাংশ অতিরিক্ত নম্বর পাবেন ৷
এছাড়াও এখন থেকে ডিফিকাল্ট এরিয়া ইনসেন্টিভস-এর আওতায় কোভিডকে আনা হলো। উল্লেখ্য, পাহাড় বা দুর্গম এলাকায় গেলে সরকারি কর্মীরা বিশেষ ডিফিকাল্ট এরিয়া ইনসেন্টিভস পান। এবার এই ডিফিকাল্ট এরিয়া লিস্টে কোভিড হাসপাতালকে আনা হল। এখানে কাজ করলে জুনিয়র ডাক্তারও এই ইনসেন্টিভস পাবেন।
মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী পোস্ট গ্র্যাজুয়েট করছেন যে ডাক্তারি পড়ুয়ারা তারা যদি সেই সব ‘ডিফিকাল্ট এরিয়া’ অর্থাৎ কোভিড হাসপাতালে স্বেচ্ছায় কাজ করতে চান, তাহলে তাঁরা ১০০ নম্বরের পরীক্ষায় ১০ নম্বর এই কাজের জন্য পাবেন৷ সে ক্ষেত্রে কাজের নিরিখে এই সব ডাক্তারি ছাত্র ও জুনিয়র ডাক্তারদের “কোভিড ওয়ারিয়র্স ” সার্টিফিকেট দেবে রাজ্য সরকার।

Swarnali Goswami 17.06.2020

দাসপুরের ২ নম্বর ব্লকে নিশ্চিন্তপুর গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় শনিবার সকালে তাসের ঘরের মতো হুড়মুড় করে ভেঙে পড়ল একটি চারতলা বাড়ি। স্থানীয়দের দাবি, খাল সংস্কারের কাজ ঠিকমতো না হওয়াতেই এই বিপত্তি। তবে, হতাহতের কোনও খবর পাওয়া যায়নি। সূত্রের খবর, ওই বাড়িটিতে কেউ বসবাস করত না। গুদামঘর হিসাবে ভাড়া দিয়েছিলেন ওই বাড়ির মালিক। অবৈধভাবে শিলাবতী নদীর খাল দখল করে পঞ্চায়েতের অনুমতি ছাড়াই বাড়ির মালিক বাড়ি তৈরি করেছিলেন বলে অভিযোগ উঠেছে। খাল দখল করে অবৈধ বাড়ি নির্মাণ করার অভিযোগে মালিকের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে।

Swarnali Goswami 13.06.2020

বৃহস্পতিবার সাংবাদিক বৈঠক করে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ঘোষণা করেন, মিড ডে মিলের সঙ্গে এবার থেকে মাস্ক ও সাবান দেওয়া হবে পড়ুয়া ও পরিবারের জন্যে। তাঁর সাফ কথা, ‘এমন বিপর্যয় কোনও সরকারের সামনে আসেনি। তাই এই সময় রাজনীতি করা উচিত নয়।’ উল্লেখ্য, মিড-ডে মিলের সামগ্রী হিসাবে পড়ুয়া-পিছু ৩ কেজি করে চাল ও আলু সংগ্রহ করতে শুধুমাত্র অভিভাবকরাই যাতে নির্দিষ্ট দিনে স্কুলে আসেন, সে জন্য এলাকায়-এলাকায় মাইকে প্রচারও করে প্রশাসন। দূরত্ব বজায় রেখে, মাস্ক ও স্যানিটাইজার ব্যবহার করেই অভিভাবকদের স্কুলে ঢোকা-বেরোনোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে। কিন্তু মিড ডে প্রাপ্ত পড়ুয়াদের অনেকের পরিবারেরই ক্ষমতা নেই করোনাভাইরাস প্রতিরোধ করতে মাস্ক বা সাবান কেনার। সেই কথা মাথায় রেখেই মানবিক উদ্যোগ নিল পশ্চিমবঙ্গ সরকার।

Swarnali Goswami 11.06.2020

দক্ষিণ ২৪ পরগনার কুলতলির ভুবনেশ্বরী গ্রামের একজন বাসিন্দা সাদাসিধে একজন গৃহবধূ। আমফানের দৌলতে নেই রাজ্যের দুনিয়ায় একমাত্র শিক্ষার আলো দিয়ে যাচ্ছেন গ্রামের নিপাট গৃহবধূ অসীমা ভান্ডারি। কিছুটা অক্ষত নিজের মাটির বাড়ির একাংশেই নিজের সন্তানদের পাশাপাশি গ্রামের ছোট ছোট পড়ুয়াদের নিয়ে শুরু করেছেন পাঠশালা । নিজের পড়ার ইচ্ছে থাকলেও এগোতে পারেননি বেশিদূর। তাই পড়াশুনোর মর্ম বোঝেন। অসীমা ভান্ডারি পড়ুয়াদের কাছে গ্রামের কাকিমা। সকাল সন্ধ্যে দু-বেলা কাকিমার কাছে পড়াশোনা করে বেজায় খুশি পড়ুয়ারা। খুশি অভিভাবকরাও। সমস্ত প্রতিকূলতাকে দূরে সরিয়ে রেখে সকাল সন্ধ্যে চলছে অসীমার পাঠশালা। পেট ভরুক বা না ভরুক নিয়ম করে লম্ফ জ্বালাতে তেল জোগাড় করে চলছে অসীমার শিক্ষাদান। নিজের স্বপ্নভঙ্গ হওয়া স্বপ্নকে ফের নতুন প্রজন্মের মাধ্যমে এখন বাস্তবায়িত করার স্বপ্ন দেখছেন অসীমা ভান্ডারি।

Swarnali Goswami 11.06.2020

তৃণমূল নেতা তথা উত্তর ২৪ পরগনার আরটিও(RTO) বোর্ডের সদস্য গোপাল শেঠ কিন্তু কথা রাখলেন। করোনার যে কী প্রভাব, তা অনেক মানুষই বুঝতে পারছেন না। বুঝতে পারছিলেন না মুড়িঘাটার বাসিন্দারাও। তাই অন্য সময়ের মতোই বাজারে ভিড় জমাচ্ছিলেন তাঁরাও। এই খবর কানে যেতেই নড়েচড়ে বসেন গোপাল শেঠ। আদিবাসী পরিবারগুলির জন্য খাদ্যদ্রব্য নিয়ে হাজির হন সকলের বাড়িতে। সকলকে বোঝান, কেন ঘরে থাকা জরুরি এই সময়। সেইসঙ্গেই জানিয়ে দেন, নিজেদের এলাকাকে করোনামুক্ত রাখতে পারলে সব মহিলারা পাবেন শাড়ি। কিন্তু যদি গ্রামের একজনের শরীরেও করোনা ভাইরাস পাওয়া যায়, তাহলেই শাড়ি পাওয়া যাবেনা-এই ছিল শর্ত। সেই খবর দ্য কনভেয়রে প্রকাশিতও হয়েছিল। নিজের কথা রাখতে বুধবার পারুই জেলে পাড়ার মহিলাদের হাতে শাড়ি তুলে দিলেন গোপালবাবু। এদিন যাঁরা শাড়ি পেলেন, প্রত্যেকেই হাসিমুখে বাড়ির পথ ধরলেও জানিয়ে গেলেন, যতদিন সম্ভব করোনাকে এলাকা থেকে দূরেই রাখতে চান তাঁরা।

Swarnali Goswami 10.06.2020

লকডাউনে পরিবেশে দূষণ কম হওয়ায় মাস খানেক আগেই রায়গঞ্জ কুলিক পাখিরালয়ে হাজির পরিযায়ী পাখিরা। বিভিন্ন জায়গা থেকে উড়ে এসে পরিযায়ী পাখিরা বর্তমানে ডেরা জমিয়েছে রায়গঞ্জ শহরের কুলিক নদীর ধারে কুলিক পাখিরালয়ে। মূলত জুন মাসের শেষ সপ্তাহ কিংবা জুলাই মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে ওপেন বিল স্টক, ইগ্রেট, নাইট হেরন, করমোরেন্ট – এই চার প্রজাতির পরিযায়ী পাখিদের আগমন ঘটে রায়গঞ্জের কুলিক পক্ষীনিবাসে। কিন্তু এ বছর মে মাসের শেষ সপ্তাহেই আগমন শুরু হয়ে গিয়েছে এইসব পরিযায়ী পাখিদের। পাখিদের জন্য এ বার কুলিকের ভেতরে এবং বাইরে বেশ কিছু জলাশয়ে মাছ ছাড়া হয়েছে। অনুকূল পরিবেশের কারণে গতবারে চাইতে এ বারে পক্ষীনিবাসে পরিযায়ি পাখির সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন বনাধিকারিক সোমনাথ সরকার।

Swarnali Goswami 10.06.2020

সরকারি অফিসে শিফটিং ব্যবস্থা চালু হল। মুখ্যমন্ত্রী বুধবার নবান্নে ঘোষণা করলেন এখন থেকে প্রথম শিফট শুরু হবে সকাল সাড়ে ৯টায়। এই শিফট চলে দুপুর আড়াটে পর্যন্ত। পরের সিফট শুরু হবে দুপুর সাড়ে ১২টায়। চলবে বিকেল সাড়ে ৫টা পর্যন্ত। তিনি জানালেন, বাসে ভিড়ের চাপ কমাতে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।এখন আনলক ওয়ানে এমনিতেই সরকারি কর্মীদের একদিন অন্তর একদিন অফিস যেতে হচ্ছে। এবার কাজের সময়ও কমে গেল। অফিসে থাকতে হবে মাত্র ৫ ঘণ্টা। বেসরকারি অফিসে ওয়ার্ক ফ্রম হোমেরই পক্ষপাতী তিনি। মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণার পরেই বিজ্ঞপ্তি জারি করে নবান্ন জানিয়ে দেয়, এবার থেকে এই শিফট মেনেই তৈরি করা হবে কর্মীদের রোস্টার। তবে যে সব অফিসাররা অফিসের গাড়িতে যাতায়াত করেন তাঁদের জন্য কোনও শিফট ভাগ থাকবে না।

Swarnali Goswami 10.06.2020

করোনা-লকডাউন আবহে চাকরি হারানো বা নতুন চাকরি খুঁজছেন এমন IT-ব্যক্তিদের জন্য এবার বিশেষ ওয়েবসাইট চালু করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। টুইট-পোস্টের মাধ্যমে নতুন এই কর্মভূমি ওয়েবসাইটের লিংক (https://karmabhumi.nltr.org/) সবার সঙ্গে শেয়ার করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। করোনাভাইরাস মোকাবিলায় লকডাউন জারির জেরে ব্যাপক মন্দার সামনে দেশের অর্থনীতি। কিছু সংস্থা বেতন হ্রাসের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। বহু সংস্থা আবার কর্মী ছাঁটাইয়ের রাস্তায় হেঁটেছে। এমন পরিস্থিতিতে রাজ্য সরকারের এই বিশেষ উদ্যোগ। প্রসঙ্গত, চাকরি প্রার্থী ও নিয়োগে আগ্রহী সংস্থার মধ্যে সমন্বয় ঘটাবে এই কর্মভূমি ওয়েবসাইট।

Swarnali Goswami 09.06.2020

আমফানে ক্ষয়ক্ষতির পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে আসছে কেন্দ্রীয় দল। সেই দলের সামনে প্রায় ৮০ হাজার কোটি টাকার ক্ষতির হিসেব তুলে ধরতে চলেছে নবান্না। শনিবার ওই দলের নবান্নে আসার কথা। বৈঠক হবে মুখ্য সচিব রাজীব সিনহার সঙ্গে। সেই বৈঠকেই এই ক্ষতির হিসেব তুলে ধরা হবে বলে নবান্ন সূত্রে খবর। ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় দল রাজ্যে এসে দুই ২৪ পরগনা ঘুরে দেখেন। শুক্রবার উত্তর ঘূর্ণিঝড় আমফান বিধ্বস্ত এলাকার কোথাও সড়কপথে, কোথাও আবার জলপথে পরিদর্শন করেন কেন্দ্রীয় দলের সদস্যরা।

Swarnali Goswami 05.06.2020

আগামী ৯ জুন রাজ্যে প্রথম ভার্চুয়াল জন সমাবেশ করবে সর্বভারতীয় বিজেপি। তাতে প্রধান বক্তা দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এবং রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ। দিলীপবাবুর কথায়, “করোনা মোকাবিলায় বিশ্বকে পথ দেখাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। নতুন পরিস্থিতিতে ভার্চুয়াল জন সমাবেশ কী করে সম্ভব তাও এ বার দেশকে দেখাবে বিজেপি।” ওয়েবেক্স মিট’ অ্যাপের মাধ্যমে হবে এই জনসভা। দিল্লিতে কেন্দ্রীয় অফিসে থাকবে একটি মঞ্চ আর কলকাতায় রাজ্য সদর দফতরে থাকবে একটি মঞ্চ। দুই মঞ্চে থাকবেন দুই বক্তা অমিত শাহ এবং দিলীপ ঘোষ। এই অ্যাপের মাধ্যমে এক সঙ্গে এক হাজার মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ করা যায়। রাজ্য বিজেপি ইতিমধ্যেই সেই হাজার জন নেতা কর্মী বেছে ফেলেছে। তাঁরা সরাসরি ওই সভায় যোগ দেবেন। একই সঙ্গে বিজেপির সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করা হবে সমাবেশ। ফেসবুক, ইউটিউবের মাধ্যমে লক্ষ লক্ষ কর্মী, সমর্থক, সাধারণ মানুষ অংশ নিতে পারবেন এই সমাবেশ।

Swarnali Goswami 05.06.2020

আনলক-ওয়ান শুরু হতেই ধাপে ধাপে পর্যটন কেন্দ্রের দরজা খোলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হল। আপাতত রাজ্যের পাঁচটি সরকারি পর্যটন আবাস খুলে দেওয়া হচ্ছে। আগামী ৮ জুন থেকে এগুলির বুকিং শুরু হয়ে যাবে। সেদিন থেকে পর্যটকরাও থাকতে পারবেন।
জঙ্গলের সবুজের মধ্যে ডুয়ার্সের টিলাবাড়ির ‘‌তিলোত্তমা’‌ আর লাল মাটির দেশ বীরভূমের ‘‌রাঙাবিতান’ খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। থাকার সুযোগ মিলবে বিষ্ণুপুর, মাইথন ও ডায়মন্ডহারবারের ‘সাগরিকা’তেও। পর্যটনমন্ত্রী গৌতম দেব সাংবাদিক বৈঠক করে বলেন, ‘‌‘করোনাকে সঙ্গে নিয়েই আমাদের চলতে হবে। তাই অন্যান্য সব কিছুর মতোই পর্যটন শিল্পেও দরজা খোলা হচ্ছে। তবে একসঙ্গে নয়, ধাপে ধাপে আমরা কেন্দ্রগুলো খুলব। সামাজিক দূরত্ব রক্ষার জন্য এখন যেখানে বেশি জায়গা জুড়ে লজ রয়েছে সেখানেই শুধুমাত্র বুকিং নেওয়া হবে। সেভাবেই বাছাই করা হচ্ছে সরকারি পর্যটন আবাসগুলো।’‌’

Swarnali Goswami 04.06.2020

বৃহস্পতিবার দিঘা-নন্দকুমার জাতীয় সড়কের উপর দুটি মোটরবাইকে সঙ্গে গাড়ির ধাক্কায় মৃত্যু হল ২ জনের ৷ আহত ৩ জন বলে জানা গিয়েছে ৷ এদিন বিকেলে দ্রুত গতিতে যাওয়া ব্যাঙ্কের এটিএমের টাকা নিয়ে যাওয়ার একটি গাড়ির সঙ্গে উল্টো দিক থেকে আসা বাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষ লাগলে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় দুই বাইক আরোহীর।

Swarnali Goswami 04.06.2020

বুধবার নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, অফিসে হাজিরা দিতে দেরি হলেও আপাতত একমাস লাল কালির দাগ পড়বে না এবং অনুপস্থিত বলে গণ্য করা হবে না৷ যেহেতু গণপরিবহণের অভাবে অফিসে আসতে সমস্যায় পড়ছেন কর্মীরা, তাই মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকেই সরকার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী৷ বুধবার পর্যন্ত কলকাতা সহ সংলগ্ন এলাকাগুলিতে বেসরকারি বাস সেভাবে পথে নামেনি৷ ফলে সময়ে অফিসে পৌঁছনো কার্যত অসম্ভব হয়ে দাঁড়িয়েছে অফিসযাত্রীদের জন্য৷ সময়ে অফিসে পৌঁছতে না পেরে উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন অনেকেই৷ সংক্রমণের ঝুঁকি নিয়েই ভিড় বাসেই গন্তব্যের উদ্দেশ্যে রওনা হচ্ছেন মানুষ৷ মুখ্যমন্ত্রীর এই ঘোষণায় সরকারি কর্মীরা অন্তত অনেকটাই আশ্বস্ত হবেন৷

Swarnali Goswami 03.06.2020

স্বাস্থ্য দফতর সূত্রের খবর অনুযায়ী, গত সপ্তাহ পর্যন্ত গোটা রাজ্যে মোট কনটেনমেন্ট জোনের সংখ্যা ছিল প্রায় ৬০০। কিন্তু সরকারি ওয়েবসাইটে কয়েকটি জেলার তথ্য আপডেট হওয়ার পরে দেখা যাচ্ছে, তা পেরিয়ে গিয়েছে ৮০০। শেষ তথ্য অনুযায়ী রাজ্যে সব জেলার কনটেনমেন্ট জোন যোগ করলে সংখ্যাটা এতটাই দাঁড়াচ্ছে। নবান্ন ও স্বাস্থ্য দফতর সূত্রের খবর, এই বৃদ্ধির প্রধান ও অন্যতম একটি কারণ হল, গত কয়েক দিনে বহু সংখ্যক পরিযায়ী শ্রমিকদের রাজ্যে ফেরা। শুধু তাই নয়, এতদিন যে করোনার সংক্রমণের মূল কেন্দ্র ছিল কলকাতা, তা ক্রমেই জেলাগুলিতে ছড়াতে শুরু করেছে। একটিও জেলা আর বাকি নেই সংক্রামিত হতে। অর্থাৎ পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরা একটা বড় কারণ হয়েছে কনটেনমেন্ট জ়োন বাড়ার। এর পাশাপাশি গত কয়েক দিনে রাজ্যে টেস্টের সংখ্যাও প্রচুর বেড়েছে।

Swarnali Goswami 02.06.2020

পশ্চিমবঙ্গ মধ্য শিক্ষা পর্ষদ তাদের ওয়েবসাইটে দ্রুত মাধ্যমিকের ফলাফল প্রকাশ করার প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছে। প্রত্যেক পরীক্ষককে বোর্ডের তরফে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে আগামী ৪৮ ঘন্টার মধ্যে প্রতিটি উত্তরপত্র দেখার কাজ শেষ করতে। শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানিয়েছেন জুলাই মাসের মধ্যেই প্রকাশিত হবে ২০২০ সালের মাধ্যমিক পরীক্ষার ফল। উল্লেখ্য, এবছর মোট ২৭ লাখ খাতা দেখতে হয়েছে পরীক্ষকদের।

Swarnali Goswami 01.05.2020

রাজ্যে লকডাউনের মেয়াদ বাড়ল আরও ২ সপ্তাহ ৷ ১৫ জুন পর্যন্ত বাংলায় জারি থাকবে লকডাউন, জানাল রাজ্য সরকার ৷ তবে বেশ কয়েকটি ক্ষেত্রে আরও শিথিল হচ্ছে নিয়ম ৷ রাজ্যে খুলছে অফিস থেকে শপিং মল, মন্দির থেকে রেস্তোরাঁ ৷ শনিবার কেন্দ্রের আনলক ওয়ান গাইডলাইনের পরই আরও কিছু বিষয়ে ছাড়ের ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার ৷ ৮ তারিখ থেকে রাজ্যে খুলে যাচ্ছে হোটেল, রেস্তোরাঁ, শপিং মল৷ তবে মাস্ক ও গ্লাভসের ব্যবহার এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা আবশ্যক৷

Swarnali Goswami 30.05.2020

আমফানের কারনে পড়ে যাওয়া বড় গাছগুলিকে রিপ্ল্যান্টেশনের -এর উদ্যোগ নিল উত্তরপাড়া পুরসভা। প্রকৃতির ভারসাম্য রক্ষা করতে শনিবার উত্তরপাড়া হাসপাতালের ভিতর প্রায় শতাধিক বছরের পুরনো ভেঙে পড়া একটি বটগাছকে বুলডোজার দিয়ে সোজা করে দাঁড় করানো হয়। পাশাপাশি ভদ্রকালী অ্যাসোসিয়েশনের মাঠের কাছে আরও একটি বটগাছকে সোজাসুজি দাঁড় করানো হয়। এলাকার আরও কয়েক জায়গায় নতুন চারা গাছ লাগানো হয়েছে। এই উদ্যোগে খুশি এলাকাবাসী।

Swarnali Goswami 30.05.2020

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ট্যুইট করে জানিয়েছেন, সরকারি কর্মচারীদের অফিসের উপস্থিতি ৫০% থেকে বাড়িয়ে ৭০% করা হল। তবে জুট মিল এবং চা বাগানের কর্মীরা ১০০%ই কাজে যোগ দিতে পারবে বলে রাজ্যের তরফে অনুমতি দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। বেসরকারি ক্ষেত্রে কর্মীরা তাদের সুবিধামতো যাতে কাজের ক্ষেত্রে সদর্থক ভূমিকা নিতে পারে, সেই কথাই জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। উল্লেখ্য, এর আগে নবান্নতে এই নিয়ে তিনি নির্দেশ দিয়েছিলেন। পরে ট্যুইট করে তাঁর নির্দেশাবলী কিছুটা পাল্টেছেন।

Swarnali Goswami 29.05.2020

আমফান বিপর্যয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকার পুর্নগঠনে রাজ্য সরকারের তরফে মোট ৬ হাজার ২৫০ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, ঘূর্ণিঝড়ে যাঁদের বাড়ি ভেঙে গিয়েছে আপাতত রাজ্য সরকারের তরফে তাঁদের ২০ হাজার টাকা করে দেওয়া হবে। সেইসঙ্গে ১০০ দিনের কর্মসংস্থান প্রকল্পের আওতায় আরও ২৮ হাজার টাকা পাইয়ে দেওয়ার নিশ্চয়তা দেওয়া হবে। এখন ৫ লক্ষ এমন ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের হাতে সহায়তা রাশি তুলে দেওয়া হয়। পরে আরও ৫ লক্ষ পরিবার এই সুবিধা পাবেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

Swarnali Goswami 29.05.2020

উচ্চ মাধ্যমিকের পরীক্ষা কেন্দ্র হিসেবে চিহ্নিত প্রায় সাড়ে চারশো স্কুল ঘূর্ণিঝড়ের তাণ্ডবে ক্ষতিগ্রস্ত বলে এর আগেই জানিয়েছেন রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় বিকল্প হিসেবে প্রয়োজনে স্থানীয় কলেজে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা কেন্দ্রের ব্যবস্থা করার যায় কি না, তা খতিয়ে দেখার জন্য শিক্ষা দফতের আধিকারিকদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এই প্রতিকূল পরিস্থিতির মধ্যে দাঁড়িয়েও সূচি মেনে ৬ জুলাইয়ের মধ্যে যাতে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা শেষ করা যায় তার আপ্রাণ চেষ্টা করছে রাজ্য সরকার। ৬ জুলাই পরীক্ষা শেষ করতে পারলে এক মাসের মধ্যে উচ্চমাধ্যমিকের ফল প্রকাশ করা হবে বলে আশ্বস্ত করেছেন শিক্ষামন্ত্রী। মাধ্যমিকের ফল প্রকাশের প্রস্তুতি পুরোদমে চলছে। খুব শিগগির ফল প্রকাশ করা হবে।

Swarnali Goswami 28.05.2020

মঙ্গলবার উচ্চমাধ্যমিকের বাকি পরীক্ষাগুলো সূচি ঘোষণা করলেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। উচ্চমাধ্যমিকের বাকি পরীক্ষাগুলো নেওয়া হবে ২৯ জুন, ২ ও ৬ জুলাই। করোনাভাইরাসকে মাথায় রেখে তবে পরীক্ষা নেওয়ার ক্ষেত্রে একাধিক বিধিনিষেধ জারি থাকবে। তবে কোন কোন দিনে কি কি পরীক্ষা নেওয়া হবে তা ঠিক করবে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদই। সংসদ সূত্রে জানা গিয়েছে, পুরনো সূচি মোতাবেক যে তিন দিনের যে বিষয়গুলোর পরীক্ষা ছিল সেই সূচি মোতাবেক পরীক্ষা নেওয়া হবে। প্রত্যেকটি পরীক্ষা কেন্দ্র কিভাবে পরীক্ষা পরিচালনা করবে তা বৃহস্পতিবার উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ বিস্তারিত গাইড লাইন আকারে নির্দেশিকা দেবে বলেই সংসদ সূত্রে জানা গিয়েছে। উচ্চমাধ্যমিকের বাকি পরীক্ষা গুলি শেষ হওয়ার এক মাসের মধ্যেই ফল প্রকাশের চেষ্টা হবে।

Swarnali Goswami 19.05.2020

আলিপুর আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস বলছে, আমফানের দাপটে কলকাতা, হাওড়া, হুগলি, পশ্চিম মেদিনীপুরে ঘণ্টায় ১৩০ কিমি বেগে ঝড় বইতে পারে। আমফান সতর্কতায় ইতিমধ্যেই বিভিন্ন এলাকা থেকে বাসিন্দাদের সরানোর কাজ শুরু হয়েছে। দিঘা, হলদিয়া, সুন্দরবন এলাকায় অন্যত্র নিরাপদ স্থানে সরানো হচ্ছে বাসিন্দাদের। একইরকমভাবে বিভিন্ন সতর্কতামূলক পদক্ষেপ হাওড়া পুরনিগমও। হাওড়ায় ২৪ ঘন্টা চালু রাখা হচ্ছে হেল্পলাইন নম্বর। সব বরো অফিস এবং বালি সাব অফিসগুলিতে ২৪ ঘঁনাটির কন্ট্রোল রুম খোলা হচ্ছে এবং বিপর্যয় মোকাবিলা পরিচালনার দল তৈরী করা হচ্ছে।

Swarnali Goswami 19.05.2020

বেসরকারি বাসে বাড়তি ভাড়ায় অনুমোদন দিল না রাজ্য সরকার৷ পুরনো ভাড়াতেই বাস চালাতে হবে স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন পরিবহণ মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী৷ বেসরকারি বাস যদি রাস্তায় না নামে তাহলে বাড়তি সরকারি বাস নামিয়ে সেই ঘাটতি পুষিয়ে দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি৷ ভাড়া বৃদ্ধি ছাড়া বেসরকারি বাস মালিকদের বাকি সবরকম সহযোগিতা করতে সরকার তৈরি বলে জানিয়েছেন পরিবহণমন্ত্রী৷ একদিকে বাসভাড়া যেমন বাড়ছে না, তেমনই অন্য দিকে বাড়ছে না ট্যাক্সি ভাড়াও। এদিন সাংবাদিক বৈঠক করে স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন শুভেন্দু অধিকারী। তিনি বললেন, সকাল সাতটা থেকে সন্ধ্যে সাতটা পর্যন্ত চলবে ট্যাক্সি। ক্যাব ও সাধারণ হলুদ ট্যাক্সির ক্ষেত্রে এই একই নিয়ম প্রযোজ্য হবে। সব জেলাতেই এই একই নিয়ম প্রযোজ্য হবে। এছাড়া, স্বাস্থ্যবিধি মেনে ট্যাক্সি চালানো হবে বলেই জানিয়েছেন পরিবহণ মন্ত্রী।

Swarnali Goswami 16.05.2020

বিবেক কুমারকে স্বাস্থ্য সচিব পদ থেকে সরানো হল। তাঁকে পাঠানো হয়েছে পরিবেশ দফতরের প্রিন্সিপ্যাল সচিবের দায়িত্বে। তাঁর পরিবর্তে নতুন স্বাস্থ্য সচিব করা হচ্ছে নারায়ণ স্বরূপ নিগমকে। তিনি ছিলেন পরিবহণ দফতরের সচিব। উল্লেখ্য, গত ৩০ এপ্রিল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের সচিবকে যে চিঠি বিবেক কুমার পাঠিয়েছিলেন, তাতে বিস্তর গরমিলের একটা ছবি অতিশয় স্বচ্ছ হয়ে ধরা পড়ে। সোশ্যাল মিডিয়ায় দাবানলের মতো ছড়িয়ে পড়ে সেই চিঠির প্রতিলিপি। পর্যবেক্ষকদের অনেকের মতে, কোভিডের মতো সংকট মোকাবিলা করতে গিয়ে রাজ্যের অন্যতম দুটি দফতরের সচিবকে বদল করতে হল। একটি খাদ্য দফতর, অন্যটি স্বাস্থ্য। এই ঘটনা কিছুটা হলেও প্রশাসনিক ব্যর্থতার ইঙ্গিত বহন করছে।

Swarnali Goswami 12.05.2020

মঙ্গলবারের মধ্যেই রাজ্যে ফিরতে চলেছেন ভিন রাজ্যে আটকে থাকা প্রায় সাড়ে চার হাজার শ্রমিক৷ কর্ণাটক, তামিলনাড়ু এবং পঞ্জাব- মূলত এই তিন রাজ্য থেকেই শ্রমিকদের ফেরার কথা৷ এছাড়া মঙ্গলবার থেকে নয়াদিল্লি থেকে হাওড়া পর্যন্ত রেল পরিষেবা শুরু হচ্ছে৷ এর ফলে সেই সংখ্যাটা আরও বাড়বে৷ রেলের এক আধিকারিকও জানিয়েছেন, ট্রেন চলাচল শুরু হলে অন্যান্য রাজ্য থেকে পশ্চিমবঙ্গে ফিরে আসা মানুষের সংখ্যা আরও বেশ কিছুটা বাড়বে৷

Swarnali Goswami 11.05.2020