দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দিল হাওয়া দফতর

 ওড়িশা উপকূলে জলীয় বাষ্পের ঘন চাদর জমা হতে হতেই উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে আরও একটি নিম্নচাপ মাথা তুলে দাঁড়িয়েছে। এই নিম্নচাপ বেশ জোরালো হয়ে শক্তি সঞ্চয় করেছে আজ। সোমবার থেকে টানা চারদিন গাঙ্গেয় বঙ্গে তুমুল বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে। দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাসও দিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর।

         বৃহস্পতিবার পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গ জুড়ে বৃষ্টি চলবে। মঙ্গল ও বুধবার প্রবল বর্ষণের সর্তকতা রয়েছে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে। সমুদ্র উত্তাল থাকার কারণে মৎস্যজীবীদের আজ রাতের মধ্যেই ফিরতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। মঙ্গল ও বুধবার দিঘা, মন্দারমনি, সাগরসহ সমুদ্র সৈকতে সর্তকতা জারি করা হয়েছে। সমুদ্রস্নান সহ সমস্ত রকম সৈকতের বিনোদন বন্ধ রাখতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বলা হয়েছে সমুদ্র উপকূলে ৫৫ কিলোমিটার পর্যন্ত ঝড়ো হাওয়া বইতে পারে। দুই মেদিনীপুর, দুই ২৪ পরগনা, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়া, হাওড়া-হুগলিতেও ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনার কথা বলেছে হাওয়া অফিস। এছাড়াও দক্ষিণবঙ্গের নদীর জল স্তর অনেকটা বাড়তে পারে। প্লাবিত হতে পারে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের বেশ কিছু এলাকা। কলকাতাসহ শহরতলীর বেশকিছু শহরে নিচু এলাকা জলমগ্ন হওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। বৃহস্পতিবার মূলত পশ্চিমের পাঁচ জেলায় ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস। ভারী বৃষ্টি হবে বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, এবং ঝাড়গ্রামে। ওড়িশা ও গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ উপকূল সংলগ্ন উত্তর বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপ তৈরি হয়েছে।

           আগামিকাল প্রবল বৃষ্টির সম্ভাবনা ওড়িশায়। মঙ্গল ও বুধবার গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে প্রবল বর্ষণের সম্ভাবনা। বুধ ও বৃহস্পতি ঝাড়খন্ডে প্রবল বৃষ্টির সর্তকতা। রাজ্যের নদীগুলিতে আগামী কয়েকদিনে জলস্তর আরও বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s