মঙ্গলবার বিমল গুরুংকে নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে কোনও আলোচনাই হয়নি-তামাং

মঙ্গলবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে বৈঠকে বিমল গুরুংকে নিয়ে কোনও আলোচনাই হয়নি৷ মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক সেরে সল্টলেকের গোর্খা ভবনে সাংবাদিক বৈঠক করে বিনয় তামাং বলেন, ‘বৈঠকে বিমল গুরুঙ্গকে নিয়ে কোনও আলোচনাই হয়নি। আমাদের সিলেবাসে বিমল গুরুঙ্গ, রোশন গিরিরা নেই।’ তাঁর দাবি, শুধুমাত্র পাহাড়ের শান্তি কীভাবে বজায় রাখা যায়, তা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে তাঁদের আলোচনা হয়েছে৷
বিনয় তামাং ছাড়াও এ দিনের বৈঠকে হাজির ছিলেন অনীত থাপা৷ অন্যদিকে রাজ্যের তরফে মুখ্যমন্ত্রী ছাড়াও বৈঠকে হাজির ছিলেন পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম সহ রাজ্য প্রশাসনের শীর্ষ কর্তারা৷ গত ২৬ অক্টোবর মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় স্বয়ং ফোন করে বিনয় তামাংকে এই বৈঠকে উপস্থিত থাকার জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছেন বলেই মোর্চার তরফে দাবি করা হয়েছে। সোমবার বাগডোগরা বিমানবন্দরে বিনয় তামাং বলেছিলেন, ‘বিমল গুরুং একজন পালিয়ে যাওয়া নেতা। তিনি এই বৈঠকের সাবজেক্ট অথবা অবজেক্ট, কোনওটাই নন। তাই বৈঠকেও থাকবেন না।’ বৈঠকের শেষে অবশ্য বিনয় তামাং দাবি করেছেন, এ দিনের আলোচনা সদর্থক হয়েছে৷ উল্লেখ্য, গুরুং প্রকাশ্যে আসার পরই ফের অশান্তির সম্ভাবনা মাথাচাড়া দেয় পাহাড়ে৷ গুরুং পন্থী এবং বিরোধীরা মিছিল- পাল্টা মিছিল শুরু করেন৷ জিটিএ প্রধান বিনয় তামাং এবং তাঁর অনুগামীরা সাফ জানিয়ে দেন, কোনও অবস্থাতেই পাহাড়ে ঢুকতে দেওয়া হবে না গুরুংকে৷ জটিলতা এড়াতে এ দিন নবান্নে বিনয় তামাং, অনীত থাপাদের বৈঠকে ডাকেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷
ইতিমধ্যেই বিনয় তামাংপন্থীরা দার্জিলিং, কালিম্পং, কার্শিয়াং ও মিরিকে মিছিল শুরু করেছেন, মঙ্গলবারও মিছিল হয়েছে দার্জিলিংয়ে। বিনয় তামাং বলেন, ‘তিন বছর ধরে কোনও বনধ, খুন, অশান্তি, হিংসার ঘটনা ঘটেনি দার্জিলিংয়ে৷ গোটা উত্তরবঙ্গ খুশি রয়েছে৷ লকডাউনের পরেও দার্জিলিংয়ে হাজার হাজার পর্যটক আসছেন৷ আমরা চাই পাহাড়ে পর্যটক আসুক, দার্জিলিং শান্ত থাকুক৷ কারণ পর্যটনই প্রধান শিল্প৷’

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s